এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > মুকুল-শোভনের বিরুদ্ধে দিলীপের বিস্ফোরক ইন্টারভিউ নিয়ে কড়া বার্তা বিজেপি মিডিয়া সেলের

মুকুল-শোভনের বিরুদ্ধে দিলীপের বিস্ফোরক ইন্টারভিউ নিয়ে কড়া বার্তা বিজেপি মিডিয়া সেলের

আজ সকাল থেকেই বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের বিস্ফোরক ইন্টারভিউ নিয়ে সরগরম ছিল রাজ্য রাজনীতি। কলকাতার এক নামি পোর্টালের এক প্রখ্যাত সাংবাদিক এক ইন্টারভিউ প্রকাশ করেন এবং সেই ইন্টারভিউ এ দাবি করেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, মুকুল রায় থেকে শোভন চট্টোপাধ্যায়, অর্জুন সিং থেকে তাঁর নিজের বিতর্কিত কথা বলা – বিভিন্ন বিষয়ে তাঁকে এক্সক্লুসিভলি বহু অজানা কথা জানিয়েছেন।

স্বাভাবিকভাবেই সেই খবর প্রকাশিত হওয়ার পর ঝড় উঠে যায় রাজনীতিতে। সেই ইন্টারভিউ অনুযায়ী, দিলীপবাবু মুকুল রায় সম্বন্ধে যেসব কথাবার্তা বলেছেন তা রীতিমত ‘অপমানজনক’ বলেই অভিমত রাজনৈতিক মহলের। সেখানে তিনি দাবি করেছেন, মুকুলবাবুর নাকি কোন ভ্যালু নেই, তিনি বিজেপিতে যোগ দিয়ে দাবি করেছিলেন তাঁর সঙ্গে অন্তত 50 হাজার লোক যোগদান করবে, কিন্তু তিনি 500 লোকও আনতে পারেননি। বর্তমানে বিজেপি সাংসদ নিশীথ প্রামাণিকের যতটা গুরুত্ব আছে, মুকুল রায়ের নাকি ততটা গুরুত্ব নেই।

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর আরও সহজে হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের যে কোনও এক্সক্লুসিভ সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপে। ক্লিক করুন এখানে – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউবফেসবুক পেজ

যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এখানে

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

এর পাশাপাশি সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া আরেক হেভিওয়েট নেতা শোভন চট্টোপাধ্যায় সম্বন্ধে নাকি দিলীপবাবু মন্তব্য করেন, শোভনবাবুর ভ্যালু জিরো হয়ে গেছে। তিনি বৈশাখীদেবীর কব্জায় আছেন। বৈশাখীদেবীর কব্জা থেকে তিনি না বের হতে পারলে, বিজেপিতে তিনি কোনও কাজেই নাকি লাগবেন না। এমনকি দিলীপবাবু কেন বিভিন্ন সময় বিতর্কিত কথা বলেন সেই সম্পর্কেও তিনি নাকি খোলাখুলি কথা বলেছেন সেই ইন্টারভিউতে। সেখানে তিনি জানিয়েছেন গন্ডগোলের কথাবার্তা বললে মিডিয়া কভার করে এবং সেখান থেকে তিনি তো প্রচার পানই, আর প্রচার পায় তাঁর দল।

এদিকে এই পরিপ্রেক্ষিতেই যখন রাজ্য রাজনীতি সরগরম, তখন বিজেপির মিডিয়া সেলের ইনচার্জ সপ্তর্ষি চৌধুরী, হোয়াটস্যাপে এক প্রেস বার্তায় স্পষ্ট জানিয়ে দেন, এই ধরনের কোন ইন্টারভিউ দিলীপবাবু দেননি। এই সংক্রান্ত যে খবর প্রকাশিত হয়েছে তা সম্পূর্ণ ভ্রান্ত এবং যারা এই ধরনের খবর প্রকাশিত করেছে, তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। যদিও এই ইন্টারভিউ প্রকাশ হওয়ার পর এই সম্পর্কে মুকুল রায়, শোভন চট্টোপাধ্যায়, অর্জুন সিং বা নিশীথ প্রামানিক কেউই মুখ খোলেননি। এমনকি সপ্তর্ষি চৌধুরীর বার্তা আসার পরে, সংশ্লিষ্ট সাংবাদিকেরও কোন প্রতিক্রিয়া এখনো জানা যায়নি।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!