এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মুখ্যমন্ত্রীর নামে অশ্লীল পোস্ট করে ফের গ্রেপ্তার যুবক! রগে ফুঁসছে তৃণমূল শিবির!

মুখ্যমন্ত্রীর নামে অশ্লীল পোস্ট করে ফের গ্রেপ্তার যুবক! রগে ফুঁসছে তৃণমূল শিবির!


আজকের দিনে সোশ্যাল মিডিয়াকে ব্যবহার করে যেকোনো মানুষের নামে যেভাবে খুশি বলা যায়। শুধু বলা যায় তাই না, রীতিমতো কদর্য ভাষায় কাউকে আক্রমণ করা যায়। এদিন এরকমই একটি ঘটনার সাক্ষী রইল পশ্চিমবঙ্গ। সম্প্রতি চোখে পড়েছিল মুখ্যমন্ত্রী সম্পর্কে একটি অশ্লীল পোস্ট, যেখানে মুখ্যমন্ত্রীকে রুচিহীন কদর্য ভাষায় আক্রমণ করা হয়েছিল। যে পোস্ট চোখে আসামাত্রই পোস্টদাতার বিরুদ্ধে অভিযোগ জারি হয়। তার ফলস্বরূপ, চন্ডীতলা থানার পুলিশ বরিশালি থেকে গ্রেফতার করে আনজিষ্ণু মুখোপাধ্যায় নামক এক যুবককে।

শনিবার সোশ্যাল মিডিয়ায় মুখ্যমন্ত্রীর নামে একটি কুরুচিকর মন্তব্য সহযোগে পোষ্ট করে আনজিষ্ণু নামক এক যুবক‌। পোস্টটি তৃণমূলের দলীয় কর্মীদের নজরে আসার সাথে সাথে তাঁরা চন্ডীতলা থানায় অভিযোগ দায়ের করে। পুলিশের পক্ষ থেকে তাঁকে গ্রেফতার করা হয়। আর এরপরই তৃণমূল যুব কংগ্রেসের ব্লক সভাপতি কৌশিক শীলের নেতৃত্বে থানায় বিক্ষোভ দেখানো হয়। তৃণমূলের তরফ থেকে ওই যুবকটিকে বিজেপির সক্রিয় সদস্য বলে জানানো হয়েছে।

এই অভিযোগের ভিত্তিতে অন্যদিকে বিজেপি শ্রীরামপুর সাংগঠনিক জেলা সভাপতি শ্যামল দাস তৃণমূলের অভিযোগ সম্পূর্ণ অস্বীকার করে জানিয়েছেন, আনজিষ্ণু মুখোপাধ্যায়ের নামক কোন যুবক তাঁদের দলের কেউ নন। যদি দলের কেউ হতেন, তাহলেও মুখ্যমন্ত্রীর সম্বন্ধে এ ধরনের অশ্লীল মন্তব্যকে বিজেপি দল থেকে প্রশ্রয় দেওয়া হতো না। ফলে অকারণেই তৃণমূল এই ঘটনার সাথে বিজেপিকে জড়াচ্ছে বলে পাল্টা অভিযোগ করেন তিনি।

WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

এই প্রসঙ্গে তৃণমূলের জেলা নেতা তথা স্থানীয় বাসিন্দা সুবীর মুখোপাধ্যায় বিজেপির বিরুদ্ধে বলেন, সম্প্রতি মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে এ ধরনের কুরুচিকর মন্তব্যের প্রকাশ পেয়েছে সিঙ্গুরে। আর তারপরেই চন্ডীতলায় এদিন আবার একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হলো। তৃণমূল যুব সভাপতি কৌশিক জানিয়েছেন, শুক্রবার ওই যুবক সোশ্যাল মিডিয়ায় অশ্লীল পোস্ট করার পর তৃণমূলের তরফ থেকে ব্লক সভাপতি প্রবীর ঘোষ তীব্র আপত্তি জানিয়ে পাল্টা পোস্ট করেন। কিন্তু তার ফলে মুখ্যমন্ত্রীর নামে অশ্লীলতাসূচক মন্তব‍্য আরো দ্বিগুণ বাড়িয়ে দেয় আনজিষ্ণু। ফলস্বরূপ তার নামে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়।

স্হানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত শুক্রবার তৃণমূলের একটি সভা ছিল চন্ডীতলায়, যেখানে বিজেপির নানা কর্মকাণ্ডের প্রতিবাদ করা হচ্ছিল। সেই সভার পরেই এ ধরনের ন্যক্কারজনক ঘটনাটি ঘটে বলে জানা গেছে।তবে এই ঘটনার পর রাজনৈতিক মহলে উত্তেজনা ছড়ায়।

এ প্রসঙ্গে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের দাবি, বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়ার দৌলতে যে কোন মানুষকে ছোট করে দেখানো যায়। এক্ষেত্রেও মুখ্যমন্ত্রীকে ছোট করার জন্য তাঁর বিরুদ্ধে অশ্লীল শব্দকে হাতিয়ার করা হয়েছে। যা অত্যন্ত নিকৃষ্ট মনের পরিচয় দিয়েছে পোস্ট কর্তা। তবে এই ঘটনায় সমস্ত রাজনৈতিক দল একযোগে মন্তব্য করেছে, এ ধরনের ঘটনা কোনোমতেই হওয়া উচিত নয়। এ ব্যাপারে প্রশাসন এবার কি পদক্ষেপ নেয় সেদিকেই নজর রাখছে শাসকশিবির।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!