এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > একরাতেই উড়িয়েছেন ৮ কোটিরও বেশি টাকা! ইডির নজরে এবার মুখ্যমন্ত্রীর ‘সাধের’ ভাইপো!

একরাতেই উড়িয়েছেন ৮ কোটিরও বেশি টাকা! ইডির নজরে এবার মুখ্যমন্ত্রীর ‘সাধের’ ভাইপো!

Priyo Bandhu Media

দীর্ঘদিন ধরেই অভিযোগ আসছিল – কিন্তু এবার তদন্তে নেমে চক্ষু চড়কগাছ ইডির! মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী কমল নাথের ‘সাধের’ ভাইপো রাতুল পুরী এবং তাঁর বাবা-যে পরিমান টাকা নয়ছয় করেছেন বলে মনে করা হচ্ছে – তা জেনে রীতিমত মাথা ঘুরে গেছে তদন্তকারী অফিসারদের। সূত্রের খবর, দীর্ঘদিন ধরেই দেশে-বিদেশের বিভিন্ন নাইট ক্লাবে কোটি কোটি টাকা উড়িয়েছেন তিনি।

এরমধ্যে, তদন্তকারীরা আমেরিকার এক নাইট ক্লাবে ৮ কোটি টাকারও বেশি একরাতে উড়িয়ে দেওয়ার নির্দিষ্ট তথ্যপ্রমাণ পেয়েছেন বলে খবর! তবে রাতুল পুরী শুধুমাত্র ব্যক্তিগতভাবেই এইভাবে কোটি কোটি টাকা ওড়াননি, তাঁর বাবা-মাও একইভাবে টাকা নয়ছয় করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। সেন্ট্রাল ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া কর্তৃপক্ষ তাঁদের দুজনের বিরুদ্ধে মোট ৩৫৪ কোটি টাকা নয়ছয়ের অভিযোগ জানিয়েছে। সবথেকে বড় কথা এই নিয়ে সুনির্দিষ্ট প্রমানও তদন্তকারীদের হাতে এসেছে বলে জানা গেছে।

WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

এর পাশাপাশি, রাতুল পুরীর সংস্থা মোজারবিয়ার ইন্ডিয়া লিমিটেড মোট ৮ হাজার কোটি টাকার দুর্নীতিতে যুক্ত বলেও অভিযোগ সামনে এসেছে। ফলে, তাই নিয়েই তদন্তে নেমেছে ইডি। শুধু নাইট ক্লাবে যাওয়াই নয়, রাতুল পুরী যেভাবে বিলাসবহুল জীবনযাত্রা করেন – তা নিয়েও অনেক প্রশ্ন সামনে আসছে। সব মিলিয়ে, মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী কমল নাথের ভাইপোর বিরুদ্ধে তদন্ত যত এগোচ্ছে, ততই সব বিস্ফোরক তথ্য হাতে আসছে তদন্তকারীদের বলে জানা গেছে।

প্রসঙ্গত, বিজেপির দীর্ঘদিনের গড় বলে পরিচিত মধ্যপ্রদেশে গতবছর ক্ষমতায় আসে কংগ্রেস। সেই অবস্থায় মুখ্যমন্ত্রী পদ কে পাবেন – কমল নাথ না জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া, তা নিয়ে তীব্র জল্পনা শুরু হয়। সোনিয়া গান্ধী আস্থা রাখেন প্রবীণ কমল নাথের উপরেই। কিন্তু, বর্তমানে তাঁর ভাইপো রাতুল পুরী ও তাঁর পরিবারের ‘কুকীর্তি’ যেভাবে সামনে আসছে, তাতে ঘুম উড়েছে কমল নাথের। বিরোধীরা তো বটেই, এই নিয়ে আওয়াজ উঠেছে তাঁর নিজের দলের মধ্যেই। এই অবস্থায় মধ্যপ্রদেশে কংগ্রেস সরকারের ভবিষ্যৎ কি হয় তা নিয়ে ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গেছে তীব্র জল্পনা!

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!