এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > বদলে যাবে ত্রিপুরার সমীকরণ? মোদী-শাহের পদক্ষেপে বাড়ছে জল্পনা

বদলে যাবে ত্রিপুরার সমীকরণ? মোদী-শাহের পদক্ষেপে বাড়ছে জল্পনা

কয়েক দশকের বাম শাসনের অবসানের পরে ত্রিপুরা রাজ্যে নব নির্বাচিত বিজেপি দলের সদস্য বিপ্লবকুমার দেব মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ গ্রহণ করেন। মুখ্যমন্ত্রী পদ গ্রহণের পর একাধিক বিতর্কিত মন্তব্য করে এর মধ্যেই বেশ কয়েকবার সংবাদ শিরোনামে উঠে এসেছেন তিনি। এবার সেই বিতর্কিত মন্তব্য করার জন্যেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী স্বয়ং তাঁকে শমন পাঠালেন। এই প্রসঙ্গে এক বরিষ্ঠ বিজেপি নেতা জানলেন আজ দিল্লিতে একটি বৈঠকের আয়োজন করা হয়েছে। বিপ্লব কুমার দেবকে প্রধানমন্ত্রী সেই বৈঠকে উপস্থিত থাকার নির্দেশও দিয়েছেন। পাশাপাশি ওই বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ-ও।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

ওই বৈঠক আয়োজনের প্রধান বিষয় বিপ্লব কুমার দেবের বিতর্কিত মন্তব্যের কারণ খুটিয়ে দেখা। এই ধরনের মন্তব্য কেবল বিতর্কিত নয়, দলের ভাবমূর্তিতেও আঘাত আনে এই ধরনের মন্তব্য। সম্প্রতি দেশের প্রাক্তন বিশ্ব সুন্দরী ডায়না হেডেন এর সম্পর্কে কিছু আপত্তিকর মন্তব্য করে বিতর্কের কেন্দ্রে এসেছিলেন ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী। এছাড়াও তিনি রাজ্যবাসীকে স্বভাবতই অবাক করে মন্তব্য করেছিলেন মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারদের সিভিল সার্ভিসে চাকরী পাওয়া একেবারেই উচিত নয়। সিভিল সার্ভিস পাওয়ার যোগ্যতা কেবল সিভিল ইঞ্জিনিয়ারদেরই আছে। এমনকি যুব সম্প্রদায়কে ব্যঙ্গ করেই তিনি বলেছিলেন সরকারি চাকরির জন্য যে সব তরুণ রাজনৈতিক দলের মদত চায়, তাদের চাকরি করার পরিবর্তে পানের দোকান খুলে বসা উচিত্‍। সঙ্গে চাইলে দুধের ব্যবসা ও গরু পালনের কাজও করতে পারেন তারা। এই মন্তব্যগুলির জন্যে সমগ্র ত্রিপুরা রাজ্য সহ দেশের বিভিন্ন অংশে যুব সমাজে তীব্র ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। যুব সম্পদ্রায় দাবি করে এধরনের মন্তব্য করা অনৈতিক। প্রশাসনের উচিত্‍ এই মন্তব্যগুলির যথাযথ পদক্ষেপ নেওয়া। শুধু রাজ্য বাসী নয় বিজেপি দলের নেক শীর্ষ নেতাও একজন মুখ্যমন্ত্রীর এহেন মন্তব্যে কার্যতই অসন্তুষ্ট হয়েছেন। তাঁদের কথায়, একজন মুখ্যমন্ত্রীর থেকে এই ধরনের মন্তব্য কাম্য নয়।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!