এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > মিড ডে মিল ‘কেলেঙ্কারিতে’ উঠে এল নতুন তথ্য, এবার সামনে এল মুড়ি-চানাচুর কান্ড

মিড ডে মিল ‘কেলেঙ্কারিতে’ উঠে এল নতুন তথ্য, এবার সামনে এল মুড়ি-চানাচুর কান্ড

বিগত কয়েক কয়েকদিনে রাজ্য রাজনীতি সরগরম মিড ডে মিল কেলেঙ্কারি নিয়ে। চুঁচুড়া বাণীমন্দির শিক্ষা কেন্দ্রে দেখা যায় মিড ডে মিলে ডিম ভাতের বদলে শিক্ষার্থীদের পাতে পড়ছে নুন ভাত। উত্তেজনা ছড়ায়। বিরোধী পক্ষ সরকারি পক্ষ মুখোমুখি যুদ্ধে জড়িয়ে পড়ে।

আর এবার মিড-ডে-মিল কেলেঙ্কারিতে উঠে এল মুড়ি-চানাচুর কখনো বা আবার বিস্কুট। পুরুলিয়া ঝালদা 1 নম্বর ব্লকের পুস্তি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এভাবেই চলছে মিড ডে মিল দেওয়া। এ বিষয়ে অভিভাবক ও স্থানীয়রা স্কুল পরিদর্শকের দ্বারস্থ হলেও সুফল মেলেনি। অবশেষে বাধ্য হয়েই তারা বিডিওর কাছে লিখিত অভিযোগ জানালেন।

মিড ডে মিলের মনোভাব নিয়ে কিছুদিন আগেই চুঁচুড়া একটি স্কুল খবরের শিরোনামে উঠে এসেছিল এবার পুরুলিয়া ঝালদা 1 নম্বর ব্লকের পুষ্টি প্রাথমিক বিদ্যালয় দীর্ঘদিন ধরে মিড ডে মিলে মুড়ি চানাচুর অথবা বিস্কুট দেওয়া চলছে এ বিষয়ে অভিযোগ জানাতে গেলে দেখা যায় অধিকাংশ দিন স্কুলে নানান অজুহাতে প্রধান শিক্ষক আসেন নাম অভিযোগ মিড ডে মিলের হিসাব নিয়েও তিনি গরমিল করেন এ বিষয়ে এ বিষয়ে অভিযোগ জানাতে গেলে প্রধান শিক্ষককে আড়াল করেন শিক্ষাবন্ধু জিতেন্দ্রনাথ কুইরি ও অবর বিদ্যালয় পরিদর্শক সিদ্ধার্থ মাহাতো।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

সব শেষে বাধ্য হয়ে অভিভাবকরা বিডিওর দ্বারস্থ হন। এ বিষয়ে ঝালদা 1 নম্বর ব্লকের বিডিও রাজ কুমার বিশ্বাস বলেন, ‘অভিযোগ পেয়েছি। গ্রামবাসীরা কথা বলে গিয়েছেন। খুব শীঘ্রই আমি ওই স্কুলে যাব।’ অন্যদিকে অবর বিদ্যালয় পরিদর্শক সিদ্ধার্থ মাহাতো জানান, ‘ওই প্রধান শিক্ষক শাস্তিমমূলক বদলির পর এখানে এসেছেন। মিড ডে মিল সহ তার বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগও রয়েছে। গোটা বিষয়টি জেলা শিক্ষাদপ্তর কে জানানো হয়েছে। ফলে আড়াল করার যে অভিযোগ উঠছে তা একেবারেই ভিত্তিহীন।’ তবে অভিভাবকরা জানিয়েছেন এই অভিযোগের সত্ত্বর সমাধান না হলে তারা বৃহত্তর আন্দোলনের পথে নামবেন।

চুঁচুড়া স্কুলের মিড ডে মিল কেলেঙ্কারি কান্ডে শিক্ষা মন্ত্রী ওই স্কুলের দুজনে শিক্ষককে শাস্তি দেন। পুরুলিয়ার ঝালদা তাকিয়ে আছে, পুস্তি প্রাইমারি স্কুলের শিক্ষক এর জন্য কোন শাস্তি অপেক্ষা করে রয়েছে তৃণমূল সরকারের তরফ থেকে তা দেখার জন‍্য।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!