এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > মেহুল চোকসির সঙ্গে লক্ষ লক্ষ টাকার লেনদেনে অরুণ জেটলির কন্যার নাম জড়ালো কংগ্রেস

মেহুল চোকসির সঙ্গে লক্ষ লক্ষ টাকার লেনদেনে অরুণ জেটলির কন্যার নাম জড়ালো কংগ্রেস

Priyo Bandhu Media


লোকসভা ভোট যতই এগিয়ে আসছে ততই যেন কেন্দ্রের বিজেপি সরকারের ঘাড়ের উপর নিঃশ্বাস ফেলছে বিরোধী দলগুলো। বাংলার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় থেকে সর্বভারতীয় ক্ষেত্রে রাহুল গান্ধী প্রত্যেকেই উঠতে-বসতে দুর্নীতি ইস্যুতে কটাক্ষ করতে ছাড়ছেন না নরেন্দ্র মোদি অমিত শাহকে। তবে শুধু নরেন্দ্র মোদি অমিত শাহই নয়, এবার কংগ্রেসের তোপের মুখে পড়তে পড়তে হল খোদ কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলিকেও।

দেশ ছেড়ে পালানোর আগে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর মেয়ের একাউন্টে 24 লক্ষ টাকা জমা করার অভিযোগ উঠল মেহুল চোকসির বিরুদ্ধে। আর যা নিয়ে কেন্দ্রকে তুলোধোনা করলেন কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সভাপতি রাহুল গান্ধী। শুধু তাই নয়, রাহুল গান্ধীর আরো অভিযোগ, মেহুল চোকসি বিদেশে পালানোর পরেই নাকি সেই টাকা তার একাউন্টে ফের ফেরত দেন অরুণ জেটলির মেয়ে সোনালী জেটলি। আর বিজেপির বিরুদ্ধে কংগ্রেস সভাপতির এহেন বিস্ফোরক অভিযোগে বর্তমানে টালমাটাল দেশীয় রাজনীতি।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, কদিন আগেই একই অভিযোগ করেছিলেন আর এক কংগ্রেস নেতা শচীন পাইলট। তার দাবি ছিল, চলতি বছরের 20 ফেব্রুয়ারি কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলির কন্যা সোনালী জেটলি এবং জামাই জয়েশ বক্সীর আইনি সহায়তা প্রদানকারী সংস্থার একাউন্টে 24 লক্ষ টাকা জমা করেছিলেন এই মেহুল চোকসি। আর তারপরই দেশ ছেড়ে পালিয়ে যান এই মেহুল চোকসি। কিন্তু বিদেশে পালানোর সাথে সাথেই নিজের মান বাঁচাতে ফের এই মেহুল চোকসির একাউন্টে সমস্ত টাকা ফেরত দিয়ে দেন জেটলির কন্যা এবং জামাই। আর এইখানেই শচীন পাইলট প্রশ্ন তোলেন, সোনালী জেটলি যদি মেহুল চোকসির কোন কাজই করতেন তাহলে কেন সেই মেহুল চোকসি তাকে এত বড় অংকের টাকা দিতে গেল?

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো  করুন এই লিঙ্কেখবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

 

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক

শুধুমাত্রই কি তাহলে বাবার পদের জন্যই অর্থমন্ত্রীর কন্যা এবং জামাইকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে না? এমনকি এই সমস্ত ঘটনা অরুণ জেটলি, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির দপ্তর এবং ইডি জানত বলেও তোপ দাগেন এই কংগ্রেস নেতা। পাশাপাশি এই ঘটনায় কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলির পদত্যাগ দাবি করেছে তারা। সব মিলিয়ে লোকসভা ভোটের আগে এবার পিএনবি ইস্যুতে কেন্দ্রকে তুলোধোনা করতেই ব্যস্ত কংগ্রেস।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!