এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > মঞ্চে মমতা-হাসিনা আর দর্শকাসনে দিলীপ-মুকুলকে বসিয়ে রাজনীতির পাকা চাল মোদীর

মঞ্চে মমতা-হাসিনা আর দর্শকাসনে দিলীপ-মুকুলকে বসিয়ে রাজনীতির পাকা চাল মোদীর

বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তনী অনুষ্ঠানের মঞ্চকেও রাজনীতির স্পর্শ থেকে বঞ্চিত রাখলেন না প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। প্রসঙ্গত শুক্রবার বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তনী অনুষ্ঠানে অংশ গ্রহণ করার জন্যে বোলপুরে পৌঁছে বৃহস্পতিবার সন্ধেবেলায় রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ”এটা রাজনীতি করার জায়গা নয়।” সেখানে এদিন অনুষ্ঠাণ মঞ্চ থেকে  রবীন্দ্রনাথের প্রসঙ্গ ধরে কেন্দ্রের বিজেপির সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের কথা উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী। এমনকি তাঁর সরকার ডিজিটাল ইন্ডিয়া, উজ্জ্বলা যোজনা, গ্রামোন্নয়ন প্রভৃতি বিষয় নিয়ে কী কী কাজ করছে তার খতিয়ানও দেন।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

অবশ্য বক্তৃতার শুরুতে উপস্থিত দর্শক , ছাত্রছাত্রী , অতিথি সহ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক – অশিক্ষক কর্মচারীদের দৃষ্টি আকর্ষন করে অতি বিনয়ের সাথে বাংলা ভাষায় তিনি বললেন, “”শান্তির নীড় শান্তিনিকেতনে এসে শান্তি অনুভব করছি।” সঙ্গে ক্ষমা চেয়ে নিলেন উপস্থিত ছাত্রছাত্রীদের থেকে। ”আমি যখন গাড়ি থেকে নেমে হেঁটে আসছিলাম, তখন অনেকে ইশারায় বলছিলেন পানীয় জল নেই। বিশ্বভারতীর আচার্য হিসেবে এটা আমার দায়িত্বের মধ্যে পড়ে। আমি ক্ষমা চাইছি।” এদিন প্রধানমন্ত্রী তাঁর ভাষণ শুরু করতেই দর্শকদের মধ্যে থেকে ”জয় শ্রীরাম” ধ্বনি উঠতে শোনা যায়। জানা যাচ্ছে দর্শকাসনের সামনের সারিতে সেই সময়ে উপস্থিত ছিলেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, প্রাক্তন রাজ্য সভাপতি রাহুল সিংহ এবং বিজেপি নেতা মুকুল রায়। উল্লেখ্য ২০২১ সালে বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের শতবর্ষ পূর্তি। নরেন্দ্র মোদী তার প্রাক্কালে ১০০ গ্রামকে স্বনির্ভর করে তোলার আহ্বান জানান । 

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!