এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > দার্জিলিংয়ে মমতার সভার জন্য অনুমতি দিল না প্রশাসন, কালিম্পঙেই একই দিনে একই সময়ে ঝড় তুলতে চান অমিত শাহ

দার্জিলিংয়ে মমতার সভার জন্য অনুমতি দিল না প্রশাসন, কালিম্পঙেই একই দিনে একই সময়ে ঝড় তুলতে চান অমিত শাহ

আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূলের সুপ্রিমো তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং বিজেপির হেভিওয়েট নেতা তথা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির উত্তরবঙ্গের ভোট প্রচার এবং বাকযুদ্ধকে ঘিরে সরগরম হয়ে উঠেছিল রাজ্য রাজনীতি। আর সেই গরম আবহাওয়া কাটতে না কাটতেই বৃহস্পতিবার একই সময়ে দলীয় প্রার্থীর সমর্থনে যখন দার্জিলিঙে জনসভা করবেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঠিক তখনই সেই পাহাড়ের মাটিতে সভা করার কথা রয়েছে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহর।

আর দুই হেভিওয়েট নেতা নেত্রীর এই সভা ঘিরে শৈল শহরের যে ফের রাজনৈতিক উত্তাপ ছড়াতে পারে, সেই ব্যাপারে একপ্রকার নিশ্চিত রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। প্রসঙ্গত, তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দার্জিলিংয়ের এই জনসভা আগেভাগে ঠিক করা থাকলে বিজেপি সেই দার্জিলিঙে তাদের সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহকে দিয়ে পাল্টা জনসভা করার সিদ্ধান্ত নেয়।

কিন্তু একই দিনে শাসক-বিরোধী দুই দলের দুই হেভিওয়েট নেতা নেত্রীদের দিয়ে সভা করার মত পরিকাঠামো এবং নিরাপত্তার বিষয়টি মাথায় রেখে বৃহস্পতিবার বিজেপিকে সেই দার্জিলিংয়ের জনসভা করার জন্য অনুমতি দেওয়া হয়নি বলেই প্রশাসনের তরফে জানা গেছে।

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর আরও সহজে হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের যে কোনও এক্সক্লুসিভ সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপে। ক্লিক করুন এখানে – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউবফেসবুক পেজ

যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এখানে

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

এদিকে দার্জিলিংয়ে জনসভার জন্য অনুমতি না পাওয়ার পর সোমবার রাত থেকেই ঠিক কোথায় জনসভা করা যায় সেই ব্যাপারে দফায় দফায় বৈঠক করে বিকল্প স্থান হিসেবে শিলিগুড়ি শহর লাগোয়া শুকনা এবং কালিম্পংকে বেছে নেয় গেরুয়া শিবির। আর শেষ পর্যন্ত সেখানেই ঠিক হয় যে, বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ কালিম্পংয়েই সভা করবেন।

আর একই দিনে একদিকে দার্জিলিংয়ের তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সভা, আর অন্যদিকে কালিম্পংয়ে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহের সভায় প্রবল রাজনৈতিক উত্তাপের আশঙ্কা করছেন বিশেষজ্ঞরা। এদিন অমিত শাহের সভা প্রসঙ্গে বিজেপি উত্তরবঙ্গ কমিটির আহ্বায়ক রথীন্দ্রনাথ বোস এবং শিলিগুড়ি সাংগঠনিক জেলা কমিটির সভাপতি অভিজিৎ রায়চৌধুরী বলেন, “দার্জিলিঙে অনুমতি না পেলেও আমরা বৃহস্পতিবারই কালিম্পংয়ে অমিত শাহের সভা করার জন্য প্রশাসনের অনুমতি পেয়েছি। ওই দিন সকাল 11 টায় কালিম্পংয়ের গ্রাহাম হোমসের মাঠে অমিত শাহের সভা হবে।”

রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে এই দার্জিলিং লোকসভা কেন্দ্র দখলের জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছে তৃণমূল এবং বিজেপি দুই রাজনৈতিক দলই। আর তাইতো শৈলশহরের এই আসনটি দখল করবার জন্য দুই দলের শীর্ষ নেতা নেত্রীরা বারে বারে পাহাড়ের মাটিতে পা রেখে জোর প্রচার চালাতে শুরু করেছেন বলেই মনে করছে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা

আপনার মতামত জানান -
Top