এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > মমতা-উদ্ধব বৈঠকে নতুন সমীকরণের ইঙ্গিত জাতীয় রাজনীতিতে

মমতা-উদ্ধব বৈঠকে নতুন সমীকরণের ইঙ্গিত জাতীয় রাজনীতিতে

একজন প্রথম থেকেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ‘জনবিরোধী’ নীতির প্রবল বিরোধী, আরেকজন এনডিএ জোটের সবথেকে পুরোনো শরিক হয়েও প্রধানমন্ত্রীর একের পর এক ‘জনবিরোধী’ নীতি ঘোষণায় ক্ষুব্ধ হয়ে ক্রমশ বিরোধিতার সুর চড়াচ্ছেন। লোকসভা ভোটের মাত্র দেড় বছর আগে সেই দুই রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ত্ব যখন আলাদা বৈঠক করেন তখন তা জাতীয় রাজনীতিতে ঝড় তুলতে বাধ্য। আর বাস্তবে হোলোও তাই। আরব সাগরের তীরে যখন রাজ্যের জন্য শিল্প আনতে মরিয়া মুখ্যমন্ত্রী বৈঠকে ব্যস্ত তখনই বরাবরের প্রথা ভেঙ্গে শিবসেনা প্রধান উদ্ধব ঠাকরে সপুত্র এসে বৈঠক করে গেলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হোটেলে।
মোদীর জনবিরোধী নীতির জন্য কংগ্রেসকে মধ্যমনি করে বিজেপি বিরোধী এক বৃহত্তর জোটই হোক বা দেশের শক্তিশালী আঞ্চলিক দলগুলিকে একছাতার নিচে নিয়ে এসে বিজেপিকে ক্ষমতা থেকে হঠানোই হোক মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সবসময়ই এগিয়ে এসে নেতৃত্ত্ব দিয়েছেন। আর বর্তমান পরিস্থিতিতে যখন শিবসেনা এনডিএর মধ্যে থেকেই সুর চারাচ্ছেন তখন এই বৈঠক জাতীয় রাজনীতিতে নতুন সমীকরণের ইঙ্গিতই দিচ্ছে বলে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের ধারণা।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!