এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > পরবর্তী রাজনৈতিক পদক্ষেপ নিয়ে বড়সড় সিদ্ধান্ত শাসনের মজিদ মাস্টারের

পরবর্তী রাজনৈতিক পদক্ষেপ নিয়ে বড়সড় সিদ্ধান্ত শাসনের মজিদ মাস্টারের

ঘরের ছেলে ঘরে ফিরতে চলেছেন। বছর তিনেক ঘরছাড়া ছিলেন তিনি। তবে আপাতত বিচ্ছেদ পর্ব গেছে চুকে, এবার মিলনের পালা। সমস্ত মন কষাকষিকে দূরে সরিয়ে দলে ফিরতে চলেছেন একসময়ের প্রভাবশালী বাম নেতা মজিদ মাস্টার। এমনটাই দাবী করছেন আলিমুদ্দিন কর্তারা। লোকসভা ভোটের আগেই মজিদ মাস্টার দলে ফিরতে চান একথা স্বীকার করে নিয়েছেন বিমান বসু-সূর্যকান্ত মিশ্রেরা।

মজিদ মাস্টারের দলে ফিরে আসার প্রসঙ্গে একটা স্বাভাবিক প্রশ্ন থেকেই যায়। সেটা হল,সিপিএম-এর কোনো প্রথম সারির নেতার আঙুল ধরেই কি প্রত্যাবর্তন করতে চলেছেন তিনি? এ ব্যাপারে কোনো মন্তব্যই করতে চাইলেন না জেলা সম্পাদক মৃণাল চক্রবর্তী,বিধায়ক মানস মুখোপাধ্যায়রা। তবে এ ব্যাপারে কোনোরকম বিষ্ময় প্রকাশ করলেন না হেভিওয়েট বাম নেতা গৌতম দেব। প্রতিক্রিয়া জানালেন, “ও যে ফিরবে তা জানাই ছিল। মজিদ মাস্টারের সঙ্গে জেলা পার্টির প্রত্যেকের যোগাযোগ রয়েছে।” তবে কি গৌতম দেবের মধ্যস্থতায় কি দলে প্রত্যাবর্তন করতে চলেছেন তিনি? এ প্রশ্নের জবাবে সমস্ত জল্পনার গোড়ায় জল ঢেলে সাফ কথায় তিনি জানিয়ে দিয়েছেন ৭৪ বছর রাজনীতির ময়দানে থেকে এখন যদি শেষ বেলায় এসে নিজের পার্টিতে যোগ দিতে গেলে লোক ধরতে হয় তাহলে সেটা অত্যন্ত বিষ্ময়ের। বললেন, ”পার্টি কংগ্রেসের আগে জেলা, রাজ্য ও কেন্দ্রীয় কমিটির একাধিক সদস্য তাঁর বাড়িতে এসেছিলেন। কিন্তু কাউকে কিছুই বলিনি।” দাবী করলেন,সিপিএম থেকে দূরে থাকাকালীন তৃণমূল,বিজেপি থেকে চেষ্টা করা হয়েছিলো তাকে দলে টানার। কিন্তু নিজের আদর্শে অটল ছিলেন তিনি।

দলে ফিরতে চান একথা প্রকাশ্যের স্বীকার করে নিয়েছেন মজিদ মাস্টার। বলেছেন,তিনি আজন্ম বামপন্থার একনিষ্ঠ সাধক। আর সারা জীবন সেই আদর্শ মেনেই চলবেন তিনি। কিছুদিন হয়তো ঘরের বাইরে ছিলেন তবে আদর্শ চ্যূত হননি কখনোই,না অন্য কোনো পার্টির সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন। খানিকটা মতভেদ হয়েছিল এই যা। জানালেন,২০১৬ সালের জুন মাসের পর থেকে বারাসাত পার্টি অফিসে পা রাখেননি তিনি। এর মাঝে লেখাপড়ায় সময় দিয়েছেন,ইংরাজি সাহিত্যে এমএ করেছেন। কিন্তু বিরোধীদের কর্মকান্ড থেকে তিনি চুপ করে থাকতে পারলেন না। তাই তাকে আবার প্রত্যক্ষ রাজনীতির ময়দানে আসতেই হল। নিজের রাজনীতি থেকে দূরত্বের কারণ ব্যাখ্যা করতে গিয়ে বিরোধীদের কটাক্ষও করে ফেললেন বর্ষীয়ান এই বাম নেতা।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

উল্লেখ্য,তিন বছরের বেশি সময় ধরে দল থেকে বহিষ্কৃত ছিলেন এই প্রতাপশালী বামনেতা। থাকতেন বারাসাতে ঘরভাড়া নিয়ে। নিজেকে বামপন্থী বলে দাবী করলেও আসন্ন লোকসভা ভোটের জন্য সিপিএম এর কংগ্রেসের সঙ্গে জোট বাঁধার সিদ্ধান্তকে একেবারেই সমর্থন করতে পারছেন না মজিদ মাস্টার। এ নিয়ে চূড়ান্ত আপত্তি আছে তাঁর। এমতাবস্থায় সিপিএমের পরবর্তী কর্মসূচীগুলোতে কীভাবে অংশ নেবেন তিনি? এ প্রশ্ন থেকে যাচ্ছে। জবাবে এই দুঁদে রাজনীতিক জানালেন,”দেশের পরিস্থিতি বলতে পারব না। কিন্তু বামপন্থীদের বিপদ বেশি। তাই এমন উদ্যোগ।”

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!