এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > পুরোনো দলিল খুঁজে বার করে মদন মিত্র জানিয়ে দিলেন আগামী দিনে কার হাতে দেশের ভার

পুরোনো দলিল খুঁজে বার করে মদন মিত্র জানিয়ে দিলেন আগামী দিনে কার হাতে দেশের ভার

সোস্যাল নেটওয়ার্কিং সাইট ফেসবুকের সৌজন্যে তৃণমূল কংগ্রেস নেতা মদন মিত্র এদিন  আমেরিকার ম্যাগাজিনের সমীক্ষা রিপোর্ট প্রকাশ করলেন। ফেসবুক লাইভে উপস্থিত থেকে অভিজ্ঞ এই নেতা পর্যালোচনা করে বললেন আগামী ২০ বছর ক্ষমতায় কে থাকবে, কে হবেন ভারতীয় রাজনীতির নিয়ন্ত্রক। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বের প্রশংসা এবং দলের নেতা থেকে নানা ছোট বড় ঘটনার মধ্যে তাঁর মুখ্যমন্ত্রী হয়ে ওঠার ভূয়সী প্রশংসা করলেন। অতীতের  একটি জন সাধারণের অজ্ঞাত ঘটনার কথা উল্লেখ করে এদিন মদন মিত্র লাইভ অনুষ্ঠানে বললেন, ১৯৯১ সালে আমেরিকার টাইমস ম্যাগাজিনের প্রতিনিধিরা মুখ্যমন্ত্রীর কালীঘাটের বাড়িতে একটি সমীক্ষার জন্য উপস্থিত হয়েছিলেন।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

কথা প্রসঙ্গে সেই সময়ে ঐ প্রতিনিধিদল জানিয়েছিলেন মূলত দুটি কারণেই তারা ভারতে এসেছেন। একজন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় অন্যজন মুকেল আম্বানি। তাঁরা সেদিন জানিয়েছিলেন আগামী ২০ বছর দেশের রাজনীতিতে নিয়ন্ত্রক হবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু মদন বাবুর মতে তাঁদের বক্তব্য সত্য হলেও তা সম্পূর্ণ নয় আংশিক সত্য। কারণ মমতা  বন্দ্যোপাধ্যায় ২০ বছরের জন্যে না ৫০ বছরের জন্যে দেশের রাজনীতির নিয়ন্ত্রক হবেন। একইসাথে তিনি এও বললেন ওই ম্যাগাজিনের প্রতিনিধিরা জানিয়েছিলেন তাঁরা ২০ বছরের জন্যই সমীক্ষা করেন। তাই হয়ত ২০ বছরের বেশি সময়ের কথা তারা প্রকাশ করেননি। মদন বাবু সেদিনের ঘটনা স্মরণ করে বললেন , ” সেদিন পৃথিবীর এক নম্বর সংবাদ গ্রুপের মুকে যখন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নাম শুনেছিলাম, আনন্দে আত্মহারা হয়ে গিয়েছিলাম। গর্বে বুক ফুলে গিয়েছিল। তখন মমতা যুব কংগ্রেস সভানেত্রী। আমি যুব কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক। আজ ম্যাগাজিনের সেই কথাকেই সত্য প্রমাণিত করে দিদি রাজ্যের ক্ষমতায় এবং বর্তমানে দেশের রাজনীতিতে মূল নিয়ন্ত্রক হতে চলেছেন।”

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!