এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > লোকসভা ভোট, তাই বাজেট নিয়ে বড়সড় সিদ্ধান্ত মোদি সরকারের, বিরোধিতায় কংগ্রেস

লোকসভা ভোট, তাই বাজেট নিয়ে বড়সড় সিদ্ধান্ত মোদি সরকারের, বিরোধিতায় কংগ্রেস

সামনেই লোকসভা ভোট। আর সেই লোকসভা ভোটের আগে এবার কেন্দ্রের বর্তমান বিজেপি সরকার পূর্ণাঙ্গ বাজেট নাকি ভোট অন একাউন্ট পাস করবে তা নিয়েই এখন শাসক বনাম বিরোধীদের প্রবল তরজা শুরু হয়েছে জাতীয় রাজনীতিতে। সূত্রের খবর, আগামী 1 ফেব্রুয়ারি পূর্ণাঙ্গ বাজেট পেশ করতে চলেছে কেন্দ্রের বর্তমান বিজেপি সরকার। কিন্তু কদিন পরেই মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়া একটি সরকার কিভাবে পূর্ণাঙ্গ বাজেট পেশ করতে পারে তা নিয়েই প্রশ্ন তুলেছে কংগ্রেস।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, নিয়মমত পূর্ণাঙ্গ বাজেট পেশের পর স্থায়ী কমিটির বৈঠকে বিভিন্ন মন্ত্রকভিত্তিক বাজেটের অনুমোদন পাস করানো হয়। কিন্তু বর্তমান কেন্দ্রের বিজেপি সরকারের মেয়াদ আগামী 26 মে শেষ হয়ে যাচ্ছে। তাই সে দিক থেকে যদি লোকসভাই না থাকে তাহলে সংসদীয় স্থায়ী কমিটির আর কোনো গুরুত্বই থাকবে না। ফলে কেন্দ্রের বিভিন্ন মন্ত্রকের বাজেট ঠিক কী হবে তা নিয়ে একটা বড় মাপের প্রশ্ন চিহ্ন তৈরি হয়েছে।

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর আরও সহজে হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের যে কোনও এক্সক্লুসিভ সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপে। ক্লিক করুন এখানে – টেলিগ্রাম, হোয়াটস্যাপ, ফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউবফেসবুক পেজ

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

আর এই প্রশ্নকে হাতিয়ার করেই এবার কেন্দ্রের বর্তমান বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে মাঠে নেমেছে কংগ্রেস। এদিন এই প্রসঙ্গে এক সাংবাদিক বৈঠকে কংগ্রেস মুখপাত্র মনীশ তিওয়ারি বলেন, “সংবিধান মেনেই ভোট অন একাউন্ট পাস করুক সরকার। সাংবিধানিক বাধা থাকলে স্বাধীনতার পর থেকে ভোটের বছরে অন্তর্বর্তী বাজেটই প্রথা হিসেবে রয়েছে। তাই নির্বাচনের আগে পূর্ণাঙ্গ বাজেট পেশ করার কোনো আইন নেই।”

অন্যদিকে বিজেপির এই পূর্ণাঙ্গ বাজেটের বিরোধিতা করে কংগ্রেস নেতা আনন্দ শর্মা বলেন, “তিন মাসের সরকার অথচ 12 মাসের বাজেট করছে। এটা সত্যিই একটা উদ্ভট ব্যাপার।”

কংগ্রেসের এই সমস্ত দাবিকে উড়িয়ে দিয়ে কেন্দ্রের বর্তমান বিজেপি সরকারের পক্ষ থেকে অবশ্য বলা হচ্ছে, বাজেট বাজেটই। নির্বাচনের আগে পূর্ণাঙ্গ বাজেট পেশ করা যাবে না এমন কোনো আইন নেই। তবে আর কদিন পরেই মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়া কেন্দ্রের বর্তমান বিজেপি সরকার ভোট অন অ্যাকাউন্ট নাকি পূর্ণাঙ্গ বাজেট পেশ করবে তার জন্য নজর রাখতেই হবে আগামী 1 ফেব্রুয়ারির দিকে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!