এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > ক্ষোভ উগরে চিঠি লিখে দল ছাড়লেন হেভিওয়েট নেতা

ক্ষোভ উগরে চিঠি লিখে দল ছাড়লেন হেভিওয়েট নেতা

বিজেডি সুপ্রিমো নবীন পট্টনায়কের সঙ্গে মনোমালিন্যের কারণে দলীয় সদস্যপদ থেকে ইস্তফা দিলেন ২০০০ সাল থেকে বিজেডির সাংসদ পদে আসীন ক্ষমতাশালী নেতা বৈজয়ন্ত জয় পান্ডে। বিজেডি সাংসদের ঘনিষ্ঠ মহল সূত্রে তাঁর দলত্যাগের কারণ হিসেবে দলের প্রধান নবীন পট্টনায়কের সাথে সম্পর্কের তিক্ততার কথা বলা হলেও নবীন পট্টনায়ককে দল ছাড়ার সিদ্ধান্ত জানিয়ে লেখা চিঠিতে তিনি বলেছেন ,”অত্যন্ত যন্ত্রণা, দুঃখ এবং কষ্টের সঙ্গে দল ছাড়ার সিদ্ধান্ত জানাচ্ছি।”

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

চিঠিতে তিনি বিজেডি ছাড়ার সিদ্ধান্ত লোকসভার স্পিকারকে লিখিতভাবে জানিয়ে দিয়েছেন এই কথাও উল্লেখ করেন। আবার নবীন পট্টনায়কের বাবা বিজু পট্টনায়ককে উদ্দেশ্য করে অন্য এক চিঠিতে তিনি ব্যক্তিগত অনুযোগের বহিঃপ্রকাশ করে লিখেছেন , ” আপনারা খুব ভাল করে বুঝিয়ে দিয়েছেন দলে আমার আর কোনও প্রয়োজন নেই। এখান থেকে সরে যাওয়ার এটাই উপযুক্ত সময়।’‌’ রাজনৈতিক মহলের মতে আগামী বছর অর্থাৎ ২০১৯ সালে লোকসভা নির্বাচনের আগে সাংসদ জয় পান্ডের মত একজন অভিজ্ঞ নেতা বিজেডি দল থেকে নিজের সদস্য পদ প্রত্যাহার করার ফলে সমস্যার সম্মুখীন হবে বিজেডি দল। এরফলে বিজেপি দলের যে সুবিধা হবে তা আআদা করে বলার অপেক্ষা রাখেনা। এর আগে দলের শীর্ষ নেতৃত্বকে লেখা এই চিঠিতে আক্ষেপ করে বৈজয়ন্ত জয় পান্ডে লিখেছিলেন , ”‌আমার বাবা নীবন আঙ্কেলের অত্যন্ত কাছের ছিলেন তার পরেও বিজেডির তরফ থেকে কেউ তাঁর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেনি।’‌’ অবশ্য গত কয়েক মাস ধরেই তাঁর বিরুদ্ধে তাঁরই কেন্দ্রের মানুষজন ,দুর্ব্যবহারের অভিযোগ করছিলেন। এমনকি দুর্নীতির অভিযোগ ও উঠেছিলো এই অভিজ্ঞ সাংসদের বিরুদ্ধে । রাজনৈতিক মহলের মতে এইসব ঘটনায় দল থেকে বহিঃস্কৃত হতে পারেন এই আশ্নকার আগাম দলত্যাগ করেছেন তিনি।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!