এখন পড়ছেন
হোম > বিনোদন > কিভাবে বানাবেন বাঙালির মুখে জল আনা লাউ চিংড়ি, জেনে নিন

কিভাবে বানাবেন বাঙালির মুখে জল আনা লাউ চিংড়ি, জেনে নিন

লাউ শুনেই নাক সিটকাবেন না। জানি অনেকে লাউ পছন্দ করেন না। কিন্তু জানেন কি লাউ চিংড়ি বাঙালির পুরোনো দিনের একটা রান্না। লাউয়ের সঙ্গে চিংড়ির তো আলাদাই ভাব। আর তার সঙ্গে মা ঠাকুমার হাতের ছোঁয়ায় সেই লাউ চিংড়ির স্বাদই বদলে যেত-যেন অমৃত। জেনে নিন কিভাবে বানানো হতো লাউ চিংড়ি।

জেনে নিন কি কি উপকরণ লাগবে

লাউ
চিংড়ি
তেল

গোটা জেরা,
শুকনো লংকা

নুন

চিনি,
হলুদ গুঁড়ো,
জিরা গুঁড়ো
লঙ্কা গুঁড়ো
আদাবাটা,
ময়দা,
গরম মশলা গুঁড়ো।(এখানে একটা কথা বলি, যারা রান্না করেন যতটা পরিমান লাউ নেবেন সেই পরিমান মশলা নুন ব্যবহার করবেন। যারা নতুন রান্না করবেন তাঁরা খুব অল্প পরিমানে দেবেন। )

জেনে নিন কিভাবে বানাবেন লাউ চিংড়ি। —

প্রথমে লাউ এর খোসা ছাড়িয়ে ছোট ছোট করে কেটে নিতে হবে। এরপর চিংড়ি মাছ ছাড়িয়ে তাতে নুন – হলুদ মাখিয়ে কিছুক্ষন রেখে দিন। এরপর কড়াইয়ে তেল দিয়ে মাছ গুলো ভেজে নিন । ভাজা হয়ে গেলে অন্য পাত্রে ভাজাটা তুলে রেখে দিন। এবার কড়াইয়ে বাঁচা তেল এর সঙ্গে অল্প কিছু তেল দিন। তাতে জিরে আর শুকনো লিঙ্ক ফোড়ন দিন। এবার তেল হয়ে গেলে এতে লাউ গুলো দিয়ে দিন লাউ কিছুক্ষন নাড়াচাড়া করে নিয়ে নুন দিন পরিমাণমতো। এর পর ঢাকা দিয়ে রাখুন কিছুক্ষন। কয়েক মিনিট পর যখন লাউ থেকে জল বেড়োতে শুরু করবে তখন এতে অল্প হলুদ,জিরে গুঁড়ো আর আদা বাটা দিয়ে নাড়তে থাকুন। তার পর আবার ঢাকা দিয়ে দিন। এরপর লাউটা যখন আধসেদ্ধ হয়ে যাবে তখন চিংড়ি মাছগুলো কড়াইয়ে দিয়ে দিন। আর ভালো করে লাউয়ের সাথে মিশিয়ে একটু চিনি আর লঙ্কা গুঁড়ো মিশিয়ে ঢাকা দিয়ে দিন। দেখে নেবেন জল আছে কিনা। জল লাগলে জল দিন। এরপর ঢাকা দিয়ে ফুটতে দিন ৫ মিনিট মতো। এর পর গ্যাস কমিয়ে দিন। এরপর একটা বাটিতে ১ চা চামচ ময়দা গুলে সেটা ওই কড়াইয়ে  দিয়ে দিন। এরপর ১ চা চামচ গরম মশলা গুঁড়ো ছড়িয়ে ভালো করে লাউয়ের সাথে মিশিয়ে  ২ থেকে ৩ মিনিট রাখুন। তারপর গ্যাস বন্ধ করে দিন। বাস হয়ে গেলো আপনার লাউ চিংড়ি।

 

বলে রাখি আমরা এই প্রথম কোনো রেসিপি শেয়ার করলাম আপনাদের সঙ্গে। আপনাদের ভালো লাগলে জানাবেন। আমরা তাহলে আরো এমন নতুন নতুন রান্নার রেসিপি আপনাদের সঙ্গে শেয়ার করবো।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!