এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > শীর্ষ নেতৃত্ব চাইলে এক মুহূর্তেই রাজ্য সরকার বদলে দিতে পারেন বলে বড়সড় দাবি কৈলাশ বিজয়বর্গীয়র

শীর্ষ নেতৃত্ব চাইলে এক মুহূর্তেই রাজ্য সরকার বদলে দিতে পারেন বলে বড়সড় দাবি কৈলাশ বিজয়বর্গীয়র

সম্প্রতি হয়ে যাওয়া পাঁচ রাজ্যের নির্বাচনে – গো-বলয়ের তিন রাজ্য থেকে ক্ষমতাচ্যুত হয়েছে বিজেপি। গেরুয়া শিবিরের কাছে ছত্তিশগড়ের ফলাফল হতাশাজনক হলেও, গো-বলয়ের বাকি দুই রাজ্য মধ্যপ্রদেশ ও রাজস্থানে কংগ্রেসের সঙ্গে সমানে সমানে টক্কর দিয়েছে বিজেপি। কিন্তু, কড়া টক্কর দিলেও গেরুয়া শিবিরকে বসতে হয়েছে বিরোধী আসনেই।

রাজস্থানে অশোক গেহলতের পাশাপাশি মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন কমল নাথ। কিন্তু, সরকার গড়লেও মধ্যপ্রদেশে বোধহয় সেই সরকারের স্থায়িত্ব নিয়ে খুব একটা আশাবাদী জায়গায় নেই কংগ্রেস। কেননা সম্প্রতি কংগ্রেসের অন্যতম বরিষ্ঠ নেতা দিগ্বিজয় সিং দাবি করে বসেন, মধ্যপ্রদেশে কংগ্রেস সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করতে বিজেপির তরফে নাকি ১০০ কোটি টাকা পর্যন্ত অফার করা হয়েছে কংগ্রেস বিধায়কদের!

হাতের মুঠোয় আরও সহজে প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে যোগ দিন –

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

আর এবার এক প্রকাশ্য জনসভায় তার পাল্টা দিলেন বিজেপি নেতা কৈলাশ বিজয়বর্গীয়। তিনি বলেন, এটা কী ধরনের সরকার?‌ এই সরকার আমাদের দয়ায় চলছে। ১৫ বছর আমরা এখানে সরকার চালিয়েছি। শীর্ষ নেতৃত্ব চাইলে যেকোনও মুহূর্তে এই রাজ্যে বিজেপি ক্ষমতায় ফিরতে পারে। এই সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করাটা কোনও ব্যাপার নয়।

পাশাপাশি কৈলাশ বিজয়বর্গীয়র আরও দাবি, গত ১৫ বছরে আমাদের সরকার এই রাজ্যে অনেক কাজ করেছে। কোনও সরকারি আধিকারিককে কাজ করাতে হলে একটি ফোনই যথেষ্ট ছিল। আর এখনকার সরকার, যাঁরা কাজ করছে না তাঁদেরই পুজো করছে। স্বাভাবিকভাবেই বিজেপি নেতার এই বিস্ফোরক অভিযোগের পাল্টা প্রত্যাঘাত করতে ছাড়ে নি কংগ্রেসও।

মধ্যপ্রদেশে কংগ্রেসের মুখপাত্র নীলাভ শুক্লা কৈলাশ বিজয়বর্গীয়র মন্তব্যের তীব্র বিরোধিতা করে বলেন, সাধারণ মানুষের রায় মানতে চাইছে না বিজেপি। বিজয়বর্গীয়ের কথায় পরিষ্কার, কমল নাথের সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করতে তাঁরা টাকা দিয়ে বিধায়ক কেনাবেচার চেষ্টা করছেন। এভাবে জনগনের রায়কে অপমান করার অধিকার তাঁদের নেই!

Top
error: Content is protected !!