এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > পুরুলিয়া-ঝাড়গ্রাম-বাঁকুড়া > জঙ্গলমহলে পদ্ম ফোটাতে মরিয়া গেরুয়া শিবির, ড্যামেজ কন্ট্রোল করে বিজেপিকে রুখে দিতে আত্মবিশ্বাসী তৃণমূলও, জোর টক্কর

জঙ্গলমহলে পদ্ম ফোটাতে মরিয়া গেরুয়া শিবির, ড্যামেজ কন্ট্রোল করে বিজেপিকে রুখে দিতে আত্মবিশ্বাসী তৃণমূলও, জোর টক্কর

Priyo Bandhu Media

পঞ্চম দফার ভোট শেষে অবশেষে আজ চলছে ষষ্ঠদফার লোকসভা নির্বাচন। যেখানে দেশের 6 টি রাজ্যের পাশাপাশি বাংলার তমলুক, ঘাটাল, ঝাড়গ্রাম, পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, বিষ্ণুপুর এবং মেদিনীপুর লোকসভা কেন্দ্রে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। বিগত পাচ দফা নির্বাচনে শাসক দল তৃণমূল এবং বিরোধী দল বিজেপির পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে, তারাই এই ভোট হয়ে যাওয়া বেশিরভাগ আসনে জয়লাভ করবেন। কিন্তু কি হবে ষষ্ঠ দফার লোকসভা নির্বাচনে?

বস্তুত, রাজ্যের যে সমস্ত কেন্দ্রে আজ নির্বাচন হতে চলেছে, তা জঙ্গলমহলের অন্তর্গত এলাকা বলেই পরিচিত। বিগত দিনে এখানে মাওবাদী উপদ্রব থাকলেও রাজ্যে পালাবদলের পর তা অনেকটাই শিথিল হয়েছে বলে দাবি করেছে শাসক দল। কিন্তু এবারের লোকসভা নির্বাচনে জঙ্গলমহলের এই লোকসভা কেন্দ্রগুলিতে জয়ের জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছে তারা।

কেননা বিগত পঞ্চায়েত নির্বাচনে জঙ্গলমহলে বেশ কিছু জেলায় শাসক দলকে বেগ দিয়ে সেখানে প্রথম সারিতে উঠে আসতে দেখা গেছে বিরোধী দল বিজেপিকে। যা নিয়ে চিন্তার ভাঁজ দেখা গিয়েছে তৃণমূলের নেতাদের কপালে। কিন্তু যেনতেন প্রকারেন লোকসভা নির্বাচনে যাতে এই জঙ্গলমহলের এলাকাগুলিতে ঘাসফুল ফোটানো যায় তার জন্য আপ্রাণ চেষ্টা করছে তৃণমূল।

WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

তবে এই এলাকাগুলিতে বিজেপি যে তাদের পথে অনেকটাই কাটা হতে পারে সেই আশঙ্কার কথা শোনা কাছে তৃনমূল নেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের গলাতেও। পুরুলিয়া, ঝাড়গ্রামের মত এলাকাগুলিতে জনসভা করতে এসে তিনি জানিয়েছেন, “বিজেপির ফাঁদে কেউ পা দেবেন না। ওরা ভুল বুঝিয়ে ভোট নিচ্ছে।”

এদিকে বিগত পঞ্চায়েতের কিছুটা সাফল্যের মুখ দেখা বিজেপিও এবারে পুরুলিয়া ঝাড়গ্রামের মত লোকসভা কেন্দ্রগুলিকে দখলের জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছে। ইতিমধ্যেই বাঁকুড়া, পুরুলিয়ায় বিজেপির হয়ে সভা করে গিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তবে কি শেষ হাসি হাসলেন এই জঙ্গলমহলে? তা দেখবার জন্য অপেক্ষা করতেই হবে আগামী 23 মে ভোটবাক্স খোলা পর্যন্ত।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!