এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > ইসলামপুরে ছাত্র মৃত্যু ঘিরে এবার পার্থকে পাল্টা দিলো আরএসএস

ইসলামপুরে ছাত্র মৃত্যু ঘিরে এবার পার্থকে পাল্টা দিলো আরএসএস

উত্তর দিনাজপুরের ইসলামপুরে ছাত্র-পুলিশ সংঘর্ষের ঘটনাকে কেন্দ্র করে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় অভিযোগের আঙ্গুল তুলেছিলেন বিজেপি আর আরএসএসের দিকে| এবার তারই পাল্টা তোপ ছোঁড়া হলো পার্থবাবুর দিকে| আরএসএস দাবি জানায় যে এই ঘটনার জন্য যে আরএসএস এবং বিজেপি দায়ী তার প্রমান দিক পার্থবাবু| যদি তা না হয় তাহলে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে নিঃশর্ত ক্ষমা চাইতে হবে পার্থবাবুকে।

শুধু তাই নয় আরএসএস এটাও দাবি জানায় যে পার্থবাবু যদি নিঃশর্ত ক্ষমা না চান, তাহলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে আরএসএসের পক্ষ থেকে এবং বৃহত্তর জন আন্দোলনে নামতে তারা বাধ্য় হবে। আরএসএস নেতৃত্বের দাবি, শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় কোনো প্রমান ছাড়াই আরএসএসের মতো এত বড় একটা সংগঠনের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছেন। বিজেপির তরফ থেকে ইসলামপুরের এই ঘটনাকে জালিয়ানওয়ালাবাগের হত্যাকাণ্ডকের সাথে তুলনা করা হয়।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

এই কথার পরিপেক্ষিতে পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেছিলেন যে, ইসলামপুরের ঘটনা বিজেপি ও আরএসএসের বৃহত্তর ষড়যন্ত্রের অংশ। তিনি জানান, বিষয়টি নিয়ে জেলা শাসক এবং স্বরাষ্ট্রসচিব ও রাজ্য পুলিশের ডিজি সাথে কথা হয়েছে। তারপরই সাসপেন্ড করা হয়েছে ডিআইকে। এবং এই ঘটনায় প্রধান শিক্ষকের ভূমিকাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন তিনি। ইসলামপুর-কাণ্ডে নিরপেক্ষ তদন্তের দাবি জানান তিনি| যারা এই ঘটনার জন্য দায়ী, তাদের বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও আশ্বাস দেন তিনি। সেক্ষেত্রে যদি পুলিশও যদি দায়ী হয় তাহলেও ব্যবস্থা নেবে সরকার। যদিও গ্রামবাসী সিবিআই তদন্তের দাবিতে অনড়।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!