এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > দিলীপ-মুকুল জুটিতেই সিলমোহর দিয়ে রাজ্য বিজেপির সংগঠনে বড় পরিবর্তন শীঘ্রই? জানুন বিস্তারিত

দিলীপ-মুকুল জুটিতেই সিলমোহর দিয়ে রাজ্য বিজেপির সংগঠনে বড় পরিবর্তন শীঘ্রই? জানুন বিস্তারিত

প্রিয় বন্ধু মিডিয়া এক্সক্লুসিভ – দীর্ঘদিন ধরেই গেরুয়া শিবিরের অন্দরমহলে কান পাতলে শোনা যাচ্ছে – এবার নাকি বড়সড় সাংগঠনিক পরিবর্তন হতে চলেছে। এই ‘পরিবর্তনের’ কথা সামনে আসে গত বছরের জুলাই মাস থেকে। তখন থেকেই জল্পনা ছড়ায়, লোকসভা ভোটে দল প্রার্থী হিসাবে চাইছে রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষকে। সুতরাং তাঁর পক্ষে নাকি গোটা রাজ্যে সময় দেওয়া সম্ভব হবে না, তাই নতুন সভাপতির দরকার লোকসভা নির্বাচনের আগে।

এরপরে, আবার নতুন করে জল্পনা ছড়ায়, ডিসেম্বর মাস নাগাদ। সভাপতি হিসাবে দিলীপ ঘোষের মেয়াদ শেষ হচ্ছিল তখনই। কিন্তু, নির্বাচনের কথা মাথায় রেখে, শেষপর্যন্ত বিজেপি কোনো পদেই কোনো পরিবর্তন করে নি। এরপরে, লোকসভা নির্বাচনে জিতে দিলীপ ঘোষ সাংসদ হওয়ার পর, আবার নতুন করে জল্পনা শুরু হয় – এই সভাপতি পদ নিয়ে। একদিকে, দাবি ওঠে সাংসদ হিসাবে দিল্লিতে সময় দেওয়ার পর, বাংলার জন্য কতখানি সময় দিতে পারবেন তিনি।

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর আরও সহজে হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের যে কোনও এক্সক্লুসিভ সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপে। ক্লিক করুন এখানে – টেলিগ্রাম, হোয়াটস্যাপ, ফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউবফেসবুক পেজ

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

এর পাশাপাশিই দলের মধ্যে দাবি ওঠে, লোকসভা ভোটে বাংলায় বিজেপির তুমুল সাফল্যের পিছনে মুকুল রায়ের ‘যথেষ্টই’ অবদান আছে। অথচ, তিনি দলে এখনো কার্যত পদহীন, পদ বা গুরুত্ব পাননি মুকুল রায়ের ‘ঘনিষ্ঠমহল’ বলে পরিচিতদের দু-একজন ছাড়া কেউই। সেক্ষত্রে এখনো মুকুল রায়কে কোনো সম্মানজনক পদ না দিলে, ভুল বার্তা যাবে অনেকের কাছেই বলে দাবি ওঠে। আর, এরই মাঝে একটা মহল বলতে থাকে এই নিয়েই নাকি দিলীপ ঘোষ-মুকুল রায়ের দুটি গোষ্ঠী হয়ে গেছে বিজেপিতে!

আর সেই দুই গোষ্ঠীর আড়াআড়ি বিভাজনের খবর আসতে থাকে বিভিন্ন মহল থেকে। যা রীতিমত অস্বস্তি বাড়িয়েছিল গেরুয়া শিবিরের। সূত্রের খবর, বিজেপির দিল্লির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব এবার সেই ‘দ্বন্দ্ব’ ভুলে এক করে দিতে চলেছেন দিলীপ ঘোষ-মুকুল রায়কে। রাজ্যে আসছেন বিজেপির কার্যকরী সভাপতি জেপি নাড্ডা। আর তিনি এসেই, একাধিক সাংগঠনিক পরিবর্তনের ঘোষণা করবেন। তবে, সাংগঠনিক পরিবর্তন হলেও – ‘মেন স্ট্রাইকিং ফোর্স’ হতে চলেছেন সেই দিলীপ-মুকুল জুটিই।

অসমর্থিত সূত্রের খবর, বিজেপির দিল্লির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব যে ফর্মুলায় সংগঠন সাজাতে চলেছেন, তাতে দিলীপ ঘোষই থেকে যাচ্ছেন রাজ্য সভাপতি। মুকুল রায়কে করা হবে অন্যতম জাতীয় সম্পাদক। এর পাশাপাশিই বদলে যাবে বিজেপির পুরো রাজ্য কমিটি থেকে শুরু করে জেলা বা মন্ডল কমিটি। আর, সেই কমিটি বসে ঠিক করবেন দিলীপ ঘোষ, মুকুল রায় ও সঙ্ঘ। অর্থাৎ, দিলীপ ঘোষ-মুকুল রায়কে সামনে রেখে ও সঙ্ঘের অনুমোদন নিয়েই নব কলেবরে পথ চলা শুরু করবে বঙ্গ বিজেপি। আর সেই ঘোষণা হবে জেপি নাড্ডার বঙ্গে পদার্পণের পরেই।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!