এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > পিবি এক্সক্লুসিভ – গ্রেপ্তার হয়েছেন বিজেপি নেতা মুকুল রায়? জানুন পিছনের আসল সত্যিটা

পিবি এক্সক্লুসিভ – গ্রেপ্তার হয়েছেন বিজেপি নেতা মুকুল রায়? জানুন পিছনের আসল সত্যিটা

আজ সকাল থেকেই দপ্তরে ফোনের পর ফোন – সকলেরই প্রায় একই প্রশ্ন। বিজেপি নেতা মুকুল রায় কি গ্রেপ্তার হয়েছেন? তাঁরা নাকি বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপে খবরটি পেয়েছেন এবং এটি নাকি ‘পাকা’ খবর। অথচ কোনো মিডিয়া এখনো সেটা দেখাচ্ছে না – এটা তাঁদের কাছে রীতিমত ‘রহস্য’!

প্রথমত জানাই, মুকুলবাবুর গ্রেপ্তারি নিয়ে কোনো খবর আমাদের কাছে নেই। এছাড়াও, মুকুলবাবু বিজেপিতে যোগদানের পরে তাঁর নামে অনেক মামলা হলেও, আদালতের স্পষ্ট নির্দেশ আগামী ১৫ ই ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত তাঁকে সেইসব মামলায় কোনো অবস্থাতেই গ্রেপ্তার করা যাবে না। তবে, ফোনকারীদের বক্তব্য ছিল – পুরোনো কোনো মামলায় নয়, মুকুলবাবুকে নাকি সদ্য প্রয়াত তৃণমূল কংগ্রেস বিধায়ক সত্যজিৎ বিশ্বাসের হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

হাতের মুঠোয় আরও সহজে প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে যোগ দিন –

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

এই প্রসঙ্গে, আমরা মুকুলবাবু ও তাঁর আপ্ত-সহায়কের সঙ্গে টেলিফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে ব্যর্থ হই। তখন, আমরা মুকুলবাবুর একাধিক ‘অত্যন্ত ঘনিষ্ঠ’ অনুগামীর সঙ্গে যোগাযোগ করি। তাঁরা প্রত্যেকেই নিশ্চিন্ত করেছেন – এরকম কোনো ঘটনা ঘটে নি। পুরোটাই বিভ্রান্তিকর রটনা। মুকুলবাবু, আপাতত দলীয় কাজে রাজ্যের বাইরে – গতকাল রাতেই তিনি ও তাঁর আপ্ত-সহায়ক রাজ্যের বাইরে গেছেন। সুতরাং, পুরো রটনাটিই উদ্দেশ্য প্রনোদিত।

মুকুলবাবুর অনুগামীদের আরও দাবি, মুকুলবাবুর দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনে (এমনকি তুমুল বাম আমলেও) তাঁর নামে একটিও জিডি পর্যন্ত হয় নি। অথচ, তিনি বিজেপিতে যোগদানের পরেই তাঁর নামে ৩০ টিরও বেশি মামলা করা হয়েছে, যা স্পষ্টতই রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। রাজ্যের যেখানে যে ঘটনা ঘটছে সেখানেই মুকুলবাবুর নাম জড়িয়ে মামলা করা হচ্ছে এবং আদালতও বোধহয় তা অনুধাবন করেছে – তাই আগামী ১৫ তারিখ পর্যন্ত মুকুলবাবুকে গ্রেপ্তার করা যাবে না বলে নির্দেশ দিয়েছে।

এছাড়াও মুকুলবাবুর অনুগামীদের বক্তব্য, সত্যজিৎ বিশ্বাস হত্যা মামলায় ইচ্ছকৃতভাবে মুকুলবাবুর নাম জড়ানোয় ইতিমধ্যেই তিনি সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি ও সংবাদমাধ্যমকে আইনি নোটিশ পাঠিয়েছেন। সেই হত্যা মামলায়, সবে তদন্ত শুরু হয়েছে – সেখানে মুকুলবাবুকে ডেকে জিজ্ঞাসাবাদ পর্যন্ত করা হয় নি – সেক্ষেত্রে গ্রেপ্তারি করে নেবে কিভাবে? তাঁদের আরও দাবি, আসলে রাজনৈতিকভাবে মুকুলবাবুকে ভয় পেয়েই এইসব রটনা ছড়ানো হচ্ছে – তবে এতে ভয় পাওয়ার কিছু নেই, মুকুলবাবু তাঁর রাজনৈতিক কাজে রাজ্যের বাইরে আছেন এবং একদমই ঠিক আছেন।

Top
error: Content is protected !!