এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > পুরুলিয়া-ঝাড়গ্রাম-বাঁকুড়া > তৃণমূলের প্রাক্তন মন্ত্রীকে ছুরি দিয়ে খুনের চেষ্টায় গ্রেপ্তার যুবক – চাঞ্চল্য রাজ্য-রাজনীতিতে

তৃণমূলের প্রাক্তন মন্ত্রীকে ছুরি দিয়ে খুনের চেষ্টায় গ্রেপ্তার যুবক – চাঞ্চল্য রাজ্য-রাজনীতিতে

বর্ষীয়ান তৃণমূল কংগ্রেস নেতা তথা রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়কে খুনের চেষ্টা ঘিড়ে তুলকালাম বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুর। ২০১১ সালে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার পর মন্ত্রীত্ত্বের দায়িত্ত্ব পান শ্যামাপ্রসাদবাবু। পরে ২০১৬ সালে বাম সমর্থিত কংগ্রেস প্রার্থী তুষারকান্তি ভট্টাচার্যের কাছে হেরে যান তিনি।

কিন্তু, মন্ত্রীত্ত্ব গেলেও এখনও তিনি বিষ্ণুপুর পুরসভার চেয়ারম্যান। প্রতিদিনের মত গতকালও সন্ধ্যেবেলায় বাড়ির সঙ্গে থাকা অফিস ঘরে বসেছিলেন তিনি। এখানেই তিনি সাক্ষাতপ্রার্থীদের সঙ্গে কথা বলেন। মিলন দাস নামে এক যুবক এসেছিলেন শ্যামাপ্রসাদবাবুর সঙ্গে দেখা করতে। কিন্তু, তাঁর গতিবিধি বেশ সন্দেহজনক লাগে শ্যামাপ্রসাদবাবুর নিরাপত্তারক্ষীদের।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

সূত্রের খবর, বিষ্ণুপুর শহরের ৫ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা ওই যুবক খুব তাড়াতাড়ি প্রাক্তনমন্ত্রী তথা বিষ্ণুপুর পুরসভার চেয়ারম্যানের কাছে পৌঁছনোর চেষ্টা করে। ফলে শ্যামাপ্রসাদবাবুর দেহরক্ষীরা তার তল্লাশি শুরু করে। আর তল্লাশিতে যুবকের কাছ থেকে একটি পাইপের মধ্যে থাকা ধারালো ছুরি পাওয়া যায়। যা দেখে রীতিমত আতঙ্কিত হয়ে পড়েন শ্যামাপ্রসাদবাবু।

পরে রাজ্যের প্রাক্তনমন্ত্রী সংবাদমাধ্যমকে জানান, তাঁর দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনে এই ধরনের ঘটনা কখনো ঘটেনি। সমগ্র ঘটনায় তিনি রীতিমত আতঙ্কিত। তল্লাশিতে ছুরি বেরোনর পরেই যুবকটিকে আটক করেন শ্যামাপ্রসাদবাবুর দেহরক্ষীরা। পরে বিষ্ণুপুর থানার পুলিশ ওই যুবককে গ্রেফতার করে। স্থানীয় অধিবাসীদের অনুমান, শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়কে খুন করতেই এসেছিল ওই যুবক। তবে, কি কারণে তা এখনও জানা যায় নি।

Top
error: Content is protected !!