এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > নদীয়া-২৪ পরগনা > নির্বাচন কমিশনের কাছেই বিরোধী হেভিওয়েট নেতাকে নজরবন্দী করার আবেদন তৃণমূল সভাপতির

নির্বাচন কমিশনের কাছেই বিরোধী হেভিওয়েট নেতাকে নজরবন্দী করার আবেদন তৃণমূল সভাপতির

ভোট মরশুমে এ যেন উলটপুরান হতে দেখা গেল বঙ্গ রাজনীতিতে। এতদিন লোকসভা নির্বাচনে সন্ত্রাসের আশঙ্কা করে বিভিন্ন জেলার তৃণমূল নেতাদের বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ জানাতে দেখা যেত বিরোধীদের। এমনকি বিরোধীদের এই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলকে নির্বাচনের দিন নজরবন্দিও করেছিল নির্বাচন কমিশন।

কিন্তু এবার এই ঘটনাটা যেন সম্পূর্ণই উল্টে গেল। আর কোনো শাসকের নেতাকে নজরদারি করা নয়, বরঞ্চ শাসকদলের পক্ষ থেকে অভিযোগ উঠল বিরোধী দল বিজেপির হেভিওয়েট নেতাকে নজরবন্দী করানোর জন্য। যা দেখে কিছুটা হলেও বিষ্মিত রাজনৈতিক মহলও।

প্রসঙ্গত, রাত পোহালেই ব্যারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রের নির্বাচন। আর সেই নির্বাচনের দিন যাতে সেই ব্যারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী অর্জুন সিংহকে নজরবন্দি করে রাখা যায়, তার জন্য এবার কমিশনের কাছে আবেদন জানালেন উত্তর 24 পরগনা জেলা তৃণমূল সভাপতি তথা মন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। কিন্তু যেখানে সব জায়গাতেই ভোটকে কেন্দ্র করে শাসকদলের নেতাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ জানিয়ে কমিশনের দ্বারস্থ হতে দেখা যাচ্ছে বিরোধীরা, সেখানে ব্যারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থীর বিরুদ্ধেই কেন নজরবন্দী করার অভিযোগ দাবি জানালেন জেলা তৃণমূল সভাপতি?

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

এদিন এই প্রসঙ্গে জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক বলেন, “অর্জুন সিং এলাকায় গুন্ডামী করছে। ভোটারদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে হুমকি দিচ্ছে। তাই ওকে যাতে নজরবন্দী করা যায় তার জন্য নির্বাচন কমিশনের কাছে আমরা আবেদন করেছি। আমরাও ওর ওপর নজর রাখছি।” অন্যদিকে এই ব্যাপারে পাল্টা ব্যারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী অর্জুন সিংহ বলেন, “আসলে ব্যারাকপুর এখন গেরুয়া হয়ে গিয়েছে। ওদের কুৎসা অপপ্রচারকে মানুষ প্রত্যাখ্যান করবেই। জ্যোতিপ্রিয়বাবু চাইলেই তো সব হবে না। ওরা অনেক মিথ্যা অপপ্রচার করেছে। আগামী 23 মে সমস্ত উত্তর পেয়ে যাবে।”

রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে, উত্তর 24 পরগনা জেলা তৃণমূল সভাপতির নির্বাচন কমিশনের দ্বারস্থ হয়ে এই ব্যারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী অর্জুন সিংকে ভোটের দিন নজরদারি করার দাবি জানানো অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ।যা দেখে অনেকেই মনে করছেন, কিছুদিন আগেই ব্যারাকপুরে প্রচারে এসে তৃনমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ব্যারাকপুর লোকসভা কেন্দ্র জিততেই হবে।

এটা তার প্রেস্টিজ ফাইট বলে জানালে সেই কেন্দ্রটি দখলের জন্যই এবার কদিন আগে এখানকারই হেভিওয়েট তৃণমূল নেতা অর্জুন সিং বিজেপিতে যোগ দিয়ে ব্যারাকপুর লোকসভা কেন্দ্র তৃণমূলের প্রার্থী দীনেশ ত্রিবেদীর বিরুদ্ধে প্রার্থী হওয়ায় এখানে তৃণমূল অনেকটাই চাপে পড়েছে। আর সেই চাপ থেকেই তারা এবার ভোটের দিন সেই বিজেপি প্রার্থীকে নজরবন্দী করার দাবি নির্বাচন কমিশনের কাছে রাখল বলে মত রাজনৈতিক মহলের একাংশের।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!