এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > দিলীপ ঘোষের কু-কথার বাণ, মুখ্যমন্ত্রীর ‘শরীর’ নিয়ে প্রকাশ্যে অশালীন মন্তব্য

দিলীপ ঘোষের কু-কথার বাণ, মুখ্যমন্ত্রীর ‘শরীর’ নিয়ে প্রকাশ্যে অশালীন মন্তব্য

বুধবার বিজেপির তরফে আইন অমান্য কর্মসূচির আয়োজন করা হয় কলকাতার রাণী রাসমণি রোডে। ঐ মঞ্চ থেকেই রাজ্দিয বিজেপি সম্পাদক দিলীপ ঘোষ , মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় থেকে শুরু করে পার্থ চট্টোপাধ্যায়, পুলিশ , সিপিএম, যাদবপুরের ছাত্রছাত্রী সকল কেই নানা ভাবে অশ্লীল বাক্যবাণে বিদ্ধ করলেন। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের চেহারা নিয়ে কুরুচিকর বর্ণনা দিয়ে বললেন, ”বিজেপির এমনই গুঁতো যে মুখ্যমন্ত্রীর মুখ শুকিয়ে আমড়া হয়ে গিয়েছে। মুখ্যমন্ত্রীর কী চেহারা হয়েছে একবার দেখুন!” মুখ্যমন্ত্রীকে মন্থরার নামে ডেকে বললেন, , ”এ কী কথা শুনিলাম মন্থরার মুখে।ত্রিপুরায় লেনিনের মুর্তি ভাঙা হয়েছে, এখানে মুখ্যমন্ত্রীর হৃদয়ে ব্যথা লাগছে। ত্রিপুরায় বিজেপি জিতেছে, এবার লক্ষ্য বাংলা। তাই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আর তাঁর মন্ত্রিসভার সদস্যরা ভয় পেয়ে গিয়েছেন।” এরপর ছড়া কেটে বললেন,
”ত্রিপুরা গেল, দিল্লি গেল, এবার বাংলা বলে যাই যাই, ভয় পেয়েছে দিদিভাই।” মমতার লালাকেল্লা দখলের প্রত্যুত্তরে বললেন , ”এবার বাংলা, পারলে সামলা’ বলে।বাংলাকে চতুর্দিক দিয়ে ঘিরে ফেলা হয়েছে। আর কোথাও পালাবার জায়গা নেই। একদিকে আসাম-ত্রিপুরা, অন্যদিকে বিহার- উত্তরপ্রদেশ, কোথায় পালাবে তৃণমূল।” এরপর তৃণমূল কংগ্রেস মহাসচিবকে উদ্দেশ্য করে মোটা মন্ত্রী বলে কটাক্ষ করলেন। সিপিএমকে বললেন ‘লেনিনের বাচ্চা’।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!