এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > নদীয়া-২৪ পরগনা > “দিলীপ ঘোষ তৃণমূলের দালাল, অভিজিৎ দাস দিলীপ ঘোষের দালাল” – জানালেন কিষাণ মোর্চার সভাপতি

“দিলীপ ঘোষ তৃণমূলের দালাল, অভিজিৎ দাস দিলীপ ঘোষের দালাল” – জানালেন কিষাণ মোর্চার সভাপতি

গত একমাস ধরেই টান টান উত্তেজনা,দফায় দফায় কোর কমিটির বৈঠক,রাজ্য নেতৃত্বদের বারবার দিল্লি ছুটে যাওয়া। হাওয়ায় গুঞ্জন এবারের লোকসভা ভোটে বিজেপির প্রার্থী তালিকায় বড়সড় কোনো চমক আসতে চলেছে। তাই এতো দেরি হচ্ছে প্রার্থী তালিকা প্রকাশ করতে। অবশেষে সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে হোলির দিন প্রথম ও দ্বিতীয় দফায় প্রার্থী তালিকা প্রকাশ করে ফেলল বিজেপি।

আর প্রকাশ করতেই চমকের বদলে ভ্রু কুচকে গেল দলীয় বেশিরভাগ নীচু তলার কর্মীদের। রাজ্যের প্রার্থী তালিকায় ব্যাপক অসন্তুষ্ট সিংহভাগ নীচু তলার কর্মীরা। বীরভূম হোক বা বাঁকুড়া,বসিরহাট,বারাসাত এছাড়া উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন কেন্দ্রে প্রার্থী নিয়ে ঘোষ আপত্তি জানিয়েছে দলীয় কর্মী সমর্থকরা। এর জেরে দলীয় গোষ্ঠীকোন্দলও সামনে এসেছে। যা ভোটের বাজারে বাড়তি অক্সিজেন দিচ্ছে বিরোধীদের।

বিজেপির এই টালমাটাল পরিস্থিতিতে দলের সুপ্রিমো দিলীপ ঘোষকে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে রাজ্য রাজনীতিতে শোরগোল ফেলে দিলেন দক্ষিণ ২৪ পরগনার বিজেপি-র কিষাণ মোর্চার সভাপতি গৌতম নস্কর। তাঁর বক্তব্য,”দিলীপ ঘোষ তৃণমূলের দালাল। আর দক্ষিণ ২৪ পরগনার জেলা সভাপতি অভিজিৎ দাস দিলীপ ঘোষের দালাল। অভিজিতের মনোনীত প্রার্থী শ্যামাপ্রসাদ হালদারকে মথুরাপুর লোকসভায় BJP-র প্রার্থী করা হয়েছে। আমরা এই প্রার্থীকে মানছি না।”

প্রসঙ্গত, দক্ষিণ ২৪ পরগনার মথুরাপুর লোকসভা কেন্দ্র থেে শ্যামাপ্রসাদ হালদারকে বিজেপির প্রার্থী করা হয়েছে। প্রার্থী হিসাবে শ্যামাপ্রসাদকে মেনে নিতে চাইছে না কিষাণ মোর্চা। এদিন শ্যামাপ্রসাদের প্রার্থীপদকে বাতিল করার দাবীকে সামনে রেখে গৌতম বাবুর প্রতিনিধিত্বে মথুরাপুর লোকসভা কেন্দ্রের কুলপিতে বিক্ষোভ দেখান মোর্চার প্রায় তিনশো থেকে চারশো কর্মী সমর্থক।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

আপনার মতামত জানান -

গৌতমবাবুর অভিযোগ,গত পঞ্চায়েত ভোটে কুলপিতে তৃণমূলের থেকে বেশি আসন পেয়েছিল বিজেপি। কিন্তু জেলা সভাপতি অভিজিৎ দাস সেগুলোকে তৃণমূলের কাছে বিক্রি করে দেন। শ্যামাপ্রসাদকে এই কেন্দ্র থেকে প্রার্থী করে তৃণমূলেরই সুবিধা করে দিল বিজেপি। গত বিধানসভা ভোটে শ্যামাপ্রসাদ প্রার্থী ছিলেন। সেসময়ই তিনি তৃণমূলের দালালি করেছিলেন।

তাই শ্যামাপ্রসাদকে কোনোভাবেই বিজেপি প্রার্থী হিসাবে মেনে নিতে চান না গৌতম বাবু। অবিলম্বে শ্যামাপ্রসাদ বাবুকে বিজেপি প্রার্থীর পদ থেকে ছাঁটাই করা না হলে ভোট বয়কটের হুমকিও দিয়েছেন তাঁরা। ভোটের এতো কাছাকাছি এসে প্রার্থী পদ নিয়ে দলীয় কর্মীদের অসন্তোষ মোকাবিলা করা যথেষ্ট চ্যালেঞ্জের হয়ে দাঁড়াল দিলীপ ঘোষের কাছে।

এই অবস্থায় প্রচার কর্মসূচি নিয়ে ব্যস্ততা দেখাবেন না দলীয় কর্মীদের মানভঞ্জন করবেন দিলীপ বাবু? এই প্রশ্নকে ঘিরেই কৌতূহলে পারদ চড়ছে ক্রমশ।এদিকে গতকাল শ্যামাপ্রসাদবাবুকে নিয়ে ডায়মন্ড হারবারের পোলেরহাট এলাকায় একটি সভা করেন জেলা বিজেপি সভাপতি অভিজিৎ দাস। সেখানে জেলা বিজেপির সহ-সভাপতি সুফল ঘাটুও উপস্থিত ছিলেন।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!