এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > করোনা আক্রান্তের সংখ্যা নিয়েও কেন্দ্র-রাজ্য দ্বন্দ্ব! তীব্র শোরগোল!

করোনা আক্রান্তের সংখ্যা নিয়েও কেন্দ্র-রাজ্য দ্বন্দ্ব! তীব্র শোরগোল!


করোনা ভাইরাস একটি মহামারী রোগের আকার নিয়েছে। প্রথম থেকেই এই ভাইরাসকে দমাতে শাসক-বিরোধী সমস্ত রাজনৈতিক দলগুলোকে একত্রিত হতে দেখা গিয়েছিল। তবে বাংলার মানুষ এই ব্যাপারে অন্তত রাজনীতি হবে না বলে আশা করলেও, তা তো হলই না। উল্টে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা নিয়ে চাপাচাপির জেরে কেন্দ্র-রাজ্য দ্বৈরথ চরমে ওঠার আশঙ্কা বৃদ্ধি পেল।

জানা গেছে, এই রাজ্যে এখনও পর্যন্ত করোনা আক্রান্তের সংখ্যা 63, মৃত 3 এবং তিনজন ব্যক্তি সুস্থ হয়ে উঠেছেন বলে দাবি করেছে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য এবং পরিবার কল্যাণ দপ্তর। তবে কেন্দ্রের এই রিপোর্টের সঙ্গে বিস্তর ফারাক দেখা গেল রাজ্যের। সূত্রের খবর, শনিবার বিকেলে সাংবাদিক সম্মেলন করে মুখ্যসচিব রাজীব সিনহা কেন্দ্রের রিপোর্টকে কার্যত অস্বীকার করেন।

WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

যেখানে তিনি বলেন, “এখনও পর্যন্ত রাজ্যে করোনাতে আক্রান্ত হয়েছেন 49 জন।” আর কেন্দ্রের তরফে এক রিপোর্ট প্রকাশের পর, রাজ্য আরেক রিপোর্ট পেশ করায় এখন তৈরি হয়েছে ধন্দ। অনেকে বলছেন, রাজ্য বনাম কেন্দ্রের যেমন দ্বৈরথ রয়েছে, ঠিক তেমনই রাজ্যের মুখ্যসচিবের সঙ্গে কি কেন্দ্রের স্বাস্থ্য সচিবের সম্পর্কে ফাটল ধরল? আর তাই কি দুইজন ব্যক্তি পশ্চিমবঙ্গ নিয়ে পৃথক পৃথক রিপোর্ট দিলেন?

বিশ্লেষকরা বলছেন, প্রথমদিকে মহামারী নিয়ে রাজনীতি হবে না বলে মনে করা হলেও, এখন যা দেখা যাচ্ছে, তাতে প্রত্যেকেই চেষ্টা করছেন, করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ছাপিয়ে যেতে। আর তাই কেন্দ্রের পক্ষ থেকে একটি সংখ্যা প্রকাশ করার পরেই, তা থেকে 14 জন কমিয়ে যে রিপোর্ট পেশ করল রাজ্য, তাতে কার কথা সত্যি! এখন সেই প্রশ্নেরই উত্তর খুজছেন বিশেষজ্ঞরা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!