এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > পূজা মণ্ডপে তান্ডব করা কাউন্সিলরের স্থানে কে? তুমুল জল্পনা শুরু তৃণমূলে

পূজা মণ্ডপে তান্ডব করা কাউন্সিলরের স্থানে কে? তুমুল জল্পনা শুরু তৃণমূলে

গণ্ডগোলের ঘটনায় দলীয় নেতাকে সাসপেন্ড করেও রেহাই নেই শাসক শিবিরের। গত নবমীর দিন গভীর রাতে স্থানীয় একটি ক্লাবে মদ্যপ অবস্থায় ভাঙচুর চালানোর অভিযোগ ওঠে সেই উত্তরপাড়া পুরসভারই 16 নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলর সুমিত চক্রবর্তী ও তার অনুগামীদের বিরুদ্ধে। আর এরপরই পরদিন এলাকা দিয়ে যাওয়ার সময় সেই কাউন্সিলরকে প্রবল গণধোলাইয়ের শিকার হতে হয়।

পরিস্থিতি সামলাতে পুলিশের পক্ষ থেকে সেই আক্রান্ত কাউন্সিলরকে ভর্তি করানো হয় হাসপাতালে। আর এরপরই এই ঘটনায় কড়া পদক্ষেপ নেয় তৃণমূল কংগ্রেস। দলের পক্ষ থেকে সাসপেন্ড করার পাশাপাশি উত্তরপাড়া পুরসভার জল দপ্তরের দায়িত্বে থেকেও অব্যাহতি দেওয়া হয় সেই সুমিত চক্রবর্তীকে। আর এরপরই জল্পনা ছড়ায় যে জলের মতো গুরুত্বপূর্ণ পরিষেবা এখন ঠিক কার হাতে থাকবে?

সূত্রের খবর, রাজ্যের পুর ও নগরোন্নয়নমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের নির্দেশে বর্তমানে সেই দায়িত্ব সামলাচ্ছেন এই উত্তরপাড়া পুরসভার চেয়ারম্যান দিলীপ যাদব। কিন্তু চেয়ারম্যানের পক্ষে পুরসভার সব দায়িত্ব সামলে এই জল দফতরের দায়িত্ব সামলানো সম্ভব হবে কি না তা নিয়েও প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে বিভিন্ন মহলে।

ইতিমধ্যেই জল দপ্তরের দায়িত্বে বসা নিয়ে পুরসভার তিন কাউন্সিলরের নাম নিয়েও প্রবল চর্চা শুরু হয়েছে। তবে স্থানীয় তৃণমূল বিধায়ক প্রবীর ঘোষাল রাজ্যের বাইরে থাকায় নতুন করে এখনই এই চেয়ারম্যান পারিষদ নির্বাচনের প্রশ্ন নেই বলে জানিয়েছেন স্থানীয় তৃণমুল নেতা কর্মীদের একাংশ।

এদিন এ প্রসঙ্গে তৃণমূলের উত্তরপাড়া পুরসভার চেয়ারম্যান দিলীপ যাদব বলেন, “আপাতত জল দপ্তর আমাকে দেখতেই পুরমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন। পরে নতুন চেয়ারম্যান-ইন- কাউন্সিল নির্বাচন হবে কিনা তা দলই বলতে পারবে।”

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

 

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

রাজনৈতিক মহলের মতে, নতুন করে এই জল দফতরের এমসিআইসি পদে কোনো কাউন্সিলরকে নিয়োগ করলে প্রবল গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের শিকার হতে পারে তৃণমূল কংগ্রেস। তাই শেষ পর্যন্ত শীর্ষ নেতৃত্ব সেই পথে কতটা হাঁটবে তা নিয়ে সন্দেহ থেকেই যাচ্ছে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!