এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > ঘুরে দাঁড়াতে কংগ্রেসের শেষ ভরসা প্রিয়াঙ্কা গান্ধী সাংগঠনিক পরিবর্তনের সিলমোহর অবশেষে – জানুন বিস্তারিত

ঘুরে দাঁড়াতে কংগ্রেসের শেষ ভরসা প্রিয়াঙ্কা গান্ধী সাংগঠনিক পরিবর্তনের সিলমোহর অবশেষে – জানুন বিস্তারিত

2014 সালের থেকে এখনো পর্যন্ত কংগ্রেস সেভাবে ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি কেন্দ্রীয় রাজনীতিতে। ইতিমধ্যে কংগ্রেসের সভাপতির পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন রাহুল গান্ধী। কংগ্রেসের সভাপতি পদে আবারও ফিরে এসেছেন সোনিয়া গান্ধী। তাহলে কি এবার সোনিয়া গান্ধীর হাত ধরে কংগ্রেস রাজনীতির মঞ্চে আসতে চলেছেন কন্যা প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরা?

রাহুল গান্ধী কংগ্রেসের সভাপতি থেকে পদত্যাগ করার পর কংগ্রেস দল সেভাবে সভাপতি পাচ্ছিল না। বর্তমানে অস্থায়ী সভানেত্রী হয়েছেন সোনিয়া গান্ধী। এবার সংগঠনের ভার নিজের হাতে নেওয়ার পরে কংগ্রেস দলে বড় রদবদল করতে চলেছেন সোনিয়া গান্ধী। প্রথমেই উত্তরপ্রদেশে সংগঠন গোছানোর লক্ষ্য রেখেছেন তিনি। শোনা যাচ্ছে, মা সোনিয়া গান্ধীর সাথে তালে তাল মিলিয়ে এবার রাজনীতির মঞ্চে আসতে চলেছেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরা।

এবার সমগ্র উত্তর প্রদেশের দায়িত্ব প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর হাতে তুলে দিতে চলেছেন কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী। এই সিদ্ধান্ত 2022 এর বিধানসভা নির্বাচনের কথা মাথায় রেখেই নেওয়া হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। উল্লেখ্য, পশ্চিম উত্তরপ্রদেশের পর্যবেক্ষকের দায়িত্ব আগে ছিল জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়ার ওপর। কিন্তু সম্প্রতি দলের অন্দরে তিনি
মধ্যপ্রদেশের কংগ্রেস সভাপতি হবার জন্য বিদ্রোহ শুরু করেছেন। তা না হলে জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া দল ছাড়বেন বলে ঘোষণা করেছেন‌। অতএব যোগীর রাজ্যে বিজেপির বিরুদ্ধে লড়বার জন্য কংগ্রেসের নতুন মুখ হতে চলেছে প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরা।

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর আরও সহজে হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের যে কোনও এক্সক্লুসিভ সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপে। ক্লিক করুন এখানে – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউবফেসবুক পেজ

যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এখানে

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

2019 এর লোকসভা ভোটে উত্তরপ্রদেশে কংগ্রেসের ফলাফল না বলার মত। তাই এবার উত্তরপ্রদেশের সাংগঠনিক স্তরে আসতে চলেছে পরিবর্তনের ঝড়। প্রিয়াঙ্কা গান্ধী ইতিমধ্যেই তার কাজ শুরু করে দিয়েছেন। যোগী সরকারের বিরুদ্ধে ক্রমাগত ছোট-বড় সব ইস‍্যুতেই তিনি সরব হচ্ছেন নিয়মিত। উত্তরপ্রদেশেও তাকে সংগঠনের কাজে সময় দিতে দেখা যাচ্ছে বেশী পরিমাণে। তবে প্রিয়াঙ্কা গান্ধী উত্তরপ্রদেশের নির্বাচনী পর্যবেক্ষক হচ্ছেন নাকি সভানেত্রী হচ্ছেন তা এখনও স্পষ্ট নয়। তবে বিজেপি এবার কংগ্রেসের বিরুদ্ধে পুরনো অস্ত্র পরিবার তন্ত্রের অভিযোগ নিয়ে আবার মাঠে নামছে।

সামনে 2021 এর বিধানসভা ভোট অতএব এই ভোটে প্রমাণ হয়ে যাবে প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর সাংগঠনিক দক্ষতার। তবে বিজেপি যে হারে সারাদেশের মধ্যে তাদের সদস্য সংখ্যা বাড়াচ্ছে, তাতে অন্যান্য বিরোধী দলের ঘুরে দাঁড়ানো বেশ কঠিন হবে বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!