এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > কংগ্রেসের সঙ্গে জোট করে আদতে লাভ হবে কি? কংগ্রেসের ভোট কতটা? খতিয়ে দেখেই সিদ্ধান্তের পথে বামফ্রন্ট

কংগ্রেসের সঙ্গে জোট করে আদতে লাভ হবে কি? কংগ্রেসের ভোট কতটা? খতিয়ে দেখেই সিদ্ধান্তের পথে বামফ্রন্ট

আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে বাংলায় ঠিক কিভাবে লড়াই করা হবে তা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই চিন্তায় পড়েছেন আলিমুদ্দিন স্ট্রিটের বাম নেতারা। একশ্রেণীর বক্তব্য, 2016 র বিধানসভা নির্বাচনের মতই এবারেও রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস এবং বিরোধী দল বিজেপিকে ঠেকাতে করে কংগ্রেস এবং বামেদের এক সাথেই লড়া উচিত।

তবে অপরপক্ষের মতে, গত বিধানসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের সঙ্গে জোট করা হলেও আদতে বামেদের তেমন কোনো লাভ হয়নি। তাই ফের সেই জোট করার ব্যাপারে কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হলে যেন সর্তকতা অবলম্বন করা হয়। আর এই দোলাচলের মধ্যে থাকা সিপিএমের ব্রিগেড এবার এই ব্যাপারে একটি পাকা সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে।

কেননা আর কদিন পরেই লোকসভা ভোটের দিনক্ষণ ঘোষণা হয়ে যাবে। আর তারপরেই প্রার্থী ঘোষণার তোড়জোড় শুরু করে দেবে প্রতিটা রাজনৈতিক দল। আর ঠিক তার আগেই দলের স্ট্র্যাটেজি ঠিক কী হবে তা নিয়ে একটা সিদ্ধান্ত নিতে চাইছেন বঙ্গের আলিমুদ্দিন স্ট্রিটের নেতারা। সূত্রের খবর, এই ব্যাপারে আগামী 3 এবং 4 মার্চ দিল্লিতে দু’দিন ব্যাপী একটি কেন্দ্রীয় কমিটির বৈঠক ডেকেছে সিপিএমের কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। আর সেখানেই এই ব্যাপারে সমস্ত আলোচনা হয়ে যাবে বলে মনে করছে বিশেষজ্ঞমহল।

জানা গেছে, সিপিএমের প্রাক্তন সাধারন সম্পাদক প্রকাশ কারাটের অনুগামীরা বাংলায় কংগ্রেসের সঙ্গে জোট করার একদম বিপক্ষে। তবে কংগ্রেসের সঙ্গে জোট করে তৃণমূল এবং বিজেপিকে অনেকটাই চাপে ফেলা যাবে বলে বিভিন্ন সময়ে ঘনিষ্ঠমহলে সেই বাম-কংগ্রেস জোটের পক্ষে সওয়াল করে এসেছেন সিপিএমের বর্তমান সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি। আর এই দুই মতের দ্বন্দের মাঝেই সিপিএমের যতবারই পলিটব্যুরো বৈঠক বসেছে এই ব্যাপারে, ঠিক ততবারই সেই বৈঠকে কোনো সিদ্ধান্ত গ্রহণ না করে তা কেন্দ্রীয় কমিটির দিকে ঠেলে দেওয়া হয়েছে।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

শেষবারের মতো লোকসভা নির্বাচনের আগে আগামী 3 এবং 4 ই মার্চের বৈঠক এই ব্যাপারে কোন একটি চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে সিপিএমের কেন্দ্রীয় কমিটি। তবে কেন্দ্রীয় কমিটি যাতে বাংলায় বাম-কংগ্রেস জোটের পক্ষেই সওয়াল করে সেজন্য ইতিমধ্যেই নিজেদের প্রস্তুতি নিয়ে রাখছেন সিপিএমের বঙ্গ ব্রিগেড।

সূত্রের খবর, সিপিএমের সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি ইতিমধ্যেই বাংলার সিপিএম নেতাদের নির্দেশ দিয়েছেন যে, রাজ্যে কংগ্রেসের ঠিক কত ভোট রয়েছে সেই ব্যাপারে সুনির্দিষ্ট তথ্য জোগাড় করতে। আর তাই এবারে সেই সমস্ত তথ্যকে জোগাড় করে নিয়ে কেন্দ্রীয় কমিটির বৈঠকে বাম-কংগ্রেস জোটের পক্ষে সওয়াল করতে উদ্যোগী হচ্ছে রাজ্যের বাম নেতারা।

বস্তুত কিছুদিন আগেই কংগ্রেসের হাইকমান্ডের সাথে এক বৈঠকে রাজ্য প্রদেশ কংগ্রেসের সভাপতি সোমেন মিত্র স্পষ্ট ভাষায় জানিয়ে দিয়েছেন যে, রাজ্যে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূলের সাথে কোনো জোট করা হবে না। আর এই কথা শুনেই কিছুটা হলেও উজ্জীবিত হয়েছেন বাংলার সিপিএমের নেতৃত্বরা।

তবে এবারে রাজ্যে কংগ্রেসের ঠিক কত শতাংশ ভোট রয়েছে সেই তথ্য জোগাড় করে এনে কেন্দ্রীয় কমিটির বৈঠকে যাতে বাংলায় বাম-কংগ্রেস জোটের পক্ষে বেশি করে সমর্থন পাওয়া যায় সেই চেষ্টায় রয়েছেন সিপিএমের সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি থেকে সিপিএমের বঙ্গ ব্রিগেড। তবে শেষ পর্যন্ত সেই কেন্দ্রীয় কমিটির বৈঠকে ঠিক কি হয় এখন সেই দিকেই তাকিয়ে সকলে।

Top
error: Content is protected !!