এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > মুখ্যমন্ত্রীর দিল্লিতে বক্তৃতা বন্ধের পিছনে কি বিজেপির ষড়যন্ত্র? পরবর্তী পদক্ষেপ কি?

মুখ্যমন্ত্রীর দিল্লিতে বক্তৃতা বন্ধের পিছনে কি বিজেপির ষড়যন্ত্র? পরবর্তী পদক্ষেপ কি?

আবারো বাতিল হলো মমতা বন্দোপাধ্যায়ের সফর। গতবার তা ছিল চীনে, এবার দিল্লীর সেন্ট স্টিফেন্স কলেজে। কথা ছিল আগামী ৩১ জুলাই দিল্লিতে ভারতের বৃহত্তম খ্রিস্টান সংগঠন ‘দ্য ক্যাথলিক বিশপস অর্গানাইজেশন অব ইন্ডিয়া’ আয়োজিত অনুষ্ঠানে অংশ নেওয়ার পর ১ আগস্ট দিল্লির সেন্ট স্টিফেন্স কলেজের পড়ুয়াদের সামনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বক্তব্য রাখবেন মমতা। কিন্তু কথা থাকলেও কলেজের তরফে জানানো হয়েছে, প্রোটোকল অনুযায়ী দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের সামনে বক্তব্য রাখতে পারবেন না মমতা। তবে মমতার দিল্লি সফরসূচী অপরিবর্তিত থাকছে।

প্রসঙ্গত গত মাসে চিনা কর্তৃপক্ষের গাফিলতিতেই বাতিল হয়েছিল মুখ্যমন্ত্রীর চিন সফর। আগামী মাসে শিকাগোতে স্বামী বিবেকানন্দের ঐতিহাসিক ভাষণের বর্ষপূর্তি উপলক্ষ্যে একটি অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার কথা ছিল মমতার। কিন্তু আয়োজকরা জানান মমতার অনুষ্ঠান বাতিল করা হয়েছে। একের পর এক অনুষ্ঠান বাতিলের মধ্যে রাজনৈতিক ষড়যন্ত্রের আঁচ পাচ্ছে তৃণমূল।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে।

কারণ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দিল্লী যাওয়া মানে দিল্লীর রাজনৈতিক পালে নতুন হাওয়া লাগা। তা হয়ত অনেকের কাছেই অনভিপ্রেত। এ প্রসঙ্গে দলের এক বর্ষীয়ান সাংসদ জানিয়েছেন, “মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জন্য বিজেপি-আরএসএসকে নিদ্রাহীন রাত কাটাতে হচ্ছে, ওরা ওদের মতো চেষ্টা করছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে থামানোর, কিন্তু মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে থামানো যাবে না।”

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!