এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মুর্শিদাবাদে আশাতীতভাবে কমেছে সদস্য পদ চিন্তায় আলিমুদ্দিন

মুর্শিদাবাদে আশাতীতভাবে কমেছে সদস্য পদ চিন্তায় আলিমুদ্দিন

উল্লেখ্য, সবং উপনির্বাচনে সিপিআই(এম)-এর রক্তক্ষয় চোখে পড়ার মতো। কয়েকহাজার ভোট কমেছে সবং কেন্দ্রে। আর এর থেকেও চিন্তা বাড়ালো মুর্শিদাবাদে গত তিন বছরে সিপিআই(এম)-এর ৪হাজার সদস্যপদ কমেছে।গতকাল তিনদিনের জেলা সম্মেলন শেষে দলীয় সূত্রে একথা জানা গেছে।সেই ছবিই যদি আসন্ন পঞ্চায়েত নির্বাচনে দেখা যায় তবে কি হবে ? সেই নিয়ে চিন্তিত আলিমুদ্দিন স্ট্রিট।

২০১৫সালে সিপিআই(এম)-এর সদস্যপদ ছিল ১৬হাজার।এবার তা কমে ১২হাজারে দাঁড়িয়েছে।পাশাপাশি,৭০জনের জেলা কমিটি ছোটো করে ৬০জনে নামিয়ে আনা হয়েছে।তবে জেলা কমিটি থেকে পুরোনো সদস্যদের সরিয়ে তরুণ প্রজন্মের সদস্যর নেওয়া হয়েছে।এ ব্যাপারে দলের জেলা সম্পাদক মৃগাঙ্ক ভট্টাচার্য বলেন,”এই সময়ে বিভিন্ন কারণে একশোর বেশি পার্টি সদস্যকে বহিষ্কার করা হয়েছে। যারা দলে নিষ্ক্রিয় ছিল তাদেরও অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।পাশাপাশি, নতুন সদস্যকেও দলে নেওয়া হয়েছে।
মুর্শিদাবাদ এক সময় সিপিআই(এম)-এর ঘাঁটি হিসেবে পরিচিত ছিল।পরে অধীর চৌধুরীর উত্থানের সময় ধীরে ধীরে শক্তি হারাতে শুরু করে সিপিআই(এম)। শক্তি হারাতে শুরু করলেও তখনও তাদের প্রভাব কমেনি।কিন্ত,তৃনমূল ক্ষমতায় আসার পর থেকেই মুর্শিদাবাদে কোণঠাসা হয়ে পড়ে তারা।অধিকাংশ গ্রাম পঞ্চায়েত ও পঞ্চায়েত সমিতি তৃনমূলের দখলে চলে যায়।আর চলতি বছরে সদস্যপদ সিপিআই(এম)-এর জেলা কমিটিকে আরও ভাবিয়ে বলে দলীয় সূত্রে খবর।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!