এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মেদিনীপুর (Page 2)

দিলীপ ঘোষের সাথে তৃণমূলের হেভিওয়েট নেতার ছবি ভাইরাল, বিজেপি যোগের সম্ভাবনা নিয়ে জোর জল্পনা

লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল প্রকাশের পর থেকেই বিভিন্ন জায়গা থেকে শাসকদলের জনপ্রতিনিধিরা গেরুয়া শিবিরে যোগদান করতে শুরু করেছেন। প্রতিনিয়ত রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় এই যোগদান পর্ব চলছে। যা নিঃসন্দেহে তৃণমূলের ঘুম কেড়ে নিচ্ছে। আর এই পরিস্থিতিতে এবার সেই তৃণমূলের অস্বস্তি বাড়িয়ে বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের সঙ্গে শহীদ মাতঙ্গিনী পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি

আবার রক্তাক্ত খেজুরি, বিজেপি কর্মীর বাড়িতে বিস্ফোরণে জখম শিশু সহ দুই

নন্দীগ্রাম আন্দোলনের সময়, রোজই প্রায় রক্তাক্ত হয়ে খবরের শিরোনামে আসত পূর্ব মেদিনীপুরের খেজুরি। মাঝখানে বেশ কিছুদিন শান্ত থাকলেও, আবারো রক্তাক্ত হয়ে খবরের শিরোনামে খেজুরি। এবার, এক বিজেপি কর্মীর বাড়িতে মজুত বিস্ফোরক থেকে হঠাৎ বিস্ফোরণ হয়ে এক শিশু সহ দুজন গুরুতর জখম হয়েছেন। স্থানীয় সূত্রের খবর, পূর্ব মেদিনীপুরের জনকা গ্রাম পঞ্চায়েতের কটকাদেবীচক

তৃণমূল কার্যালয়ে ভাঙচুর হতেই তল্লাশির নামে হেনস্থা রাষ্ট্রপতি পুরস্কার প্রাপ্তের পরিবারকে

উত্তাল শুভেন্দু গড় - লোকসভা নির্বাচন থেকেই ইঙ্গিত মিলছিল গোটা রাজ্যের সঙ্গে সাযুজ্য রেখেই দুই মেদিনীপুরেও নিজেদের সাংগঠনিক শক্তির বেশ বড়সড় বৃদ্ধি করছে বিজেপি। ফলে রাজনৈতিক হানাহানি লেগেই আছে। আজ ভোরেও মেদিনীপুরের হাতিহলকা গ্রামে শুরু হয় রাজনৈতিক অশান্তি। উত্তেজিত জনতা আগুন লাগিয়ে দেয় তৃণমূলের কার্যালয়ে। যদিও তৃণমূলের তরফে অভিযোগের আঙ্গুল উঠেছে

বিজেপির ভরা বাজারে এখনও তিনিই তৃণমূলের ‘ভরসা’ আবার প্রমান করলেন শুভেন্দু অধিকারী

সদ্যসমাপ্ত লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণার আগের দিন পর্যন্ত বেশ তুরীয় মেজাজে ছিলেন তৃণমূলের নেতা-কর্মী-সমর্থকরা। কেননা, তাঁদের দলনেত্রী খোদ ৪২ এ ৪২ করে প্রধানমন্ত্রী হওয়ার স্বপ্ন দেখছেন। বেশ কিছু প্রথম শ্রেণীর সংবাদমাধ্যম ইঙ্গিত দিয়েছে বিজেপির ভোট বাড়লেও শেষ হাসি হাসবে তৃণমূলই। ফলে নাকি ৪২ এ ৪২ না হলেও ২০১৪ এর থেকে

সন্ত্রাসের প্রতিবাদে কেশপুরে বিজেপির মিছিলে ঝড় তুললেন সায়ন্তন বসু-ভারতী ঘোষ

কেশপুরকে তৃণমূলের শেষপুর করার জন্য আরো একবার হুঙ্কার ছাড়লেন রাজ্য বিজেপির অন্যতম শীর্ষনেতা সায়ন্তন বসু। মঙ্গলবার দুপুরে বিজেপি নেত্রী ভারতী ঘোষকে সঙ্গে নিয়ে কেশপুরের বিভিন্ন এলাকায় মিছিল করেন তিনি। সঙ্গে ছিলেন কেশপুরের বিজেপি নেতা তন্ময় সাহা এবং হাজার খানেক বিজেপি কর্মী সমর্থক। এদিন আরো একবার সায়ন্তন বসু পুলিশ ও তৃণমূল নেতাদের

সন্ত্রাসের প্রতিবাদে কেশপুরে বিজেপির মিছিল, উপস্থিত সায়ন্তন বসু,ভারতী ঘোষ

পশ্চিম মেদিনীপুর : কেশপুরকে তৃণমূলের শেষপুর করার জন্য আরো একবার হুমকি দিলেন বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু । মঙ্গলবার দুপুরে বিজেপি নেত্রী ভারতী ঘোষ কে সঙ্গে নিয়ে কেশপুরের বিভিন্ন এলাকায় মিছিল করেন তিনি। সঙ্গে ছিলেন কেশপুরের বিজেপি নেতা তন্ময় সাহা এবং হাজার খানেক বিজেপি কর্মী সমর্থক । এদিন আরো একবার সায়ন্তন বসু

পিচ ফেলার পরের দিনে ক্ষতিগ্রস্ত রাস্তা, অভিনব উপায়ে প্রতিবাদ গ্রামবাসীরদের

পশ্চিম মেদিনীপুর :-রাস্তার কাজে আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগ তুলে নবনির্মিত পিচ রাস্তার উপরে ধানের চারা গাছ রোপন করে গ্রামবাসীরা।ঘটনা পশ্চিম মেদিনীপুরের কেশিয়াড়ি থানার নছিপুর ৬ নং অঞ্চলের নিশ্চিন্তপুর গ্রামে। প্রসঙ্গত ভসরা থেকে উত্তর ডম্বুরকোলা পর্যন্ত প্রায় 7 কিলোমিটার প্রধানমন্ত্রী গ্রাম সড়ক যোজনা আর্থিক দুর্নীতি করে রাস্তা নির্মানকারী সংস্থা।অভিযোগ দু'বছর আগে থেকেও রাস্তা

এবার বিজেপির বিরুদ্ধে লড়তে মাঠে নামলেন শুভেন্দু, কর্মীদের দিলেন বড়সড় বার্তা

লোকসভা নির্বাচনে এবার তৃনমূলের ভরাডুবি হয়েছে। দিকে দিকে বিজেপি তাদের শক্তিবৃদ্ধি করতে শুরু করেছে। আর এই পরিস্থিতিতে দলকে ঘুরে দাড়াতে মরিয়া হয়ে উঠেছে তৃনমূল শীর্ষ নেতৃত্ব। সামনেই তৃণমূলের একুশে জুলাই। আর সেই 21 শে জুলাই এবার ইভিএমের কারচুপির অভিযোগে ইভিএম নয়' ব্যালট চাই স্লোগানকে সামনে রেখে ফের রাজপথে নেমেছে ঘাসফুল

মমতা থেকে দলীয় নেতা – ‘কাটমানি’ ইস্যুতে তৃণমূলের অস্বস্তি বাড়িয়ে দিলেন দিলীপ ঘোষ

লোকসভা নির্বাচনে এবার তৃণমূলের ফলাফল খুব একটা ভাল হয়নি। 42 এর স্লোগান তুলেও 22 এই আটকে যেতে হয়েছে তাদের। অন্যদিকে বিজেপি 18 টি আসন নিজেদের দখলে নিয়ে নিয়েছে। আর এই পরিস্থিতিতে দলের খারাপ ফলাফলে কি করে ভাবমূর্তি ফেরানো যায়, তার জন্য ফলাফল পর্যালোচনা বৈঠকের দুর্নীতিকেই প্রধানভাবে দায়ী করতে দেখা যায়

এবার দুর্নীতির অভিযোগ উঠল তৃনমূল কাউন্সিলর, তার স্বামী ও দিব্যেন্দুর বিরুদ্ধে, চাঞ্চল্য শুভেন্দু গড়ে

লোকসভা নির্বাচনে দলের ভরাডুবি পর ফলাফল পর্যালোচনা বৈঠকে দুর্নীতিতে প্রধান ভাবে দায়ী তা বুঝতে পেরেছিলেন তৃণমূল নেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর তাইতো দলকে স্বচ্ছভাবে এগিয়ে নিয়ে যেতে গত 18 জুন কলকাতার নজরুল মঞ্চে দলীয় কাউন্সিলরদের নিয়ে বৈঠকে এই কাটমানি যাতে না নেওয়া হয়, তার ব্যাপারে সকলকে সতর্ক করে দিয়েছিলেন

Top
error: Content is protected !!