এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা

স্যাটে শেষ ডিএ মামলার শুনানি, অপেক্ষা রায়ের, তারমাঝেই বড় স্বীকারোক্তি রাজ্য সরকারের

প্রিয় বন্ধু মিডিয়া এক্সক্লুসিভ - দীর্ঘ টালবাহানার পর অবশেষে আজ স্টেট অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ ট্রাইবুন্যালে শেষ হল ডিএ মামলার শুনানি। গত ১২ ই জুন এই মামলায় রাজ্য সরকারের শুনানি শেষ হয়ে গিয়েছিল, আজ বাকি ছিল মামলাকারী দুই পক্ষ কনফেডারেশন অফ স্টেট গভর্নমেন্ট এমপ্লয়ীজ ও ইউনিটি ফোরামের সওয়াল। দুই পক্ষের দুই আইনজীবী সর্দার

লোকসভায় তৃণমূল নেতাদের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে ফের উঠলো ‘জয় শ্রী রাম’ স্লোগান

লোকসভায় তৃণমূল নেতাদের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে ফের উঠলো 'জয় শ্রী রাম' স্লোগান। তৃণমূল নেতারা একে একে শপথ নেন বাংলায়। তাদের নাম ঘোষণা হতেই ' জয় শ্রী রাম' স্লোগান দেওয়া শুরু হয়। তবে সবথেকে বেশি 'জয় শ্রী রাম' স্লোগান দেওয়া হয় অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় এর শপথ নেওয়ার সময়। এদিকে শপথ নেওয়ার পর

স্বাস্থ্য ব্যবস্থার অচলাবস্থার অবসানে স্বস্তি সব মহলে, কে কি বললেন জেনে নিন

এনআরএস কান্ড এবং তার জেরে মেডিকেল কলেজে জুনিয়র চিকিৎসকদের লাগাতার ধর্মঘটে লাটে উঠেছিল রাজ্যের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা। সরকারের পক্ষ থেকে বারেই বারেই চিকিৎসকদের আলোচনা করার জন্য আবেদন করা হলেও তা সম্ভব হয়নি। অন্যদিকে বিরোধীদের পক্ষ থেকে এই ব্যাপারে সরকারের সদিচ্ছা নিয়ে প্রশ্ন তুলে কেন মুখ্যমন্ত্রী ইগো ধরে বসে আছেন, সেই ব্যাপারে

এবার কি এই পুরপ্রধানও বিজেপিতে যেতে চলেছেন, জোর শোরগোল রাজ্যে

লোকসভা নির্বাচনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় 42 টি আসনের মধ্যে 42 টি আসনই দখল করার ডাক দিয়েছিলেন। কিন্তু বাস্তবে তার সেই স্বপ্ন পূর্ণ হয়নি। উল্টে বিজেপি এই রাজ্য থেকে 18 টি আসন নিজেদের ঝুলিতে পুড়েছে। আর তৃনমূলের ভরাডুবি এবং বিজেপির উত্থানের পরেই শাসক দল ভেঙে একের পর এক জনপ্রতিনিধি গেরুয়া শিবিরে নাম

ভোটের খারাপ ফলাফলে কাউন্সিলরদের সঙ্গে বৈঠকেও উঠে এলো মুকুল-এর প্রসঙ্গ ,জেনে নিন

লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূল নেত্রী 42 এ 42 এর স্লোগান দিলেও বাস্তবে 22 টি আসন নিজেদের দখলে রেখেই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছে রাজ্যের শাসক দলকে। অন্যদিকে বিজেপি এই রাজ্য থেকে 18 টি আসন নিজেদের দখলে নিয়েছে। আর এই পরিস্থিতিতে রাজ্যে তৃণমূলের ভরাডুবি এবং বিজেপির প্রবল উত্থানের পরই দলের সমস্ত নেতা, বিধায়ক ও

ফের মুখ্যমন্ত্রীর ছবি বিকৃত করে হুমকি চিঠি, জোর শোরগোল রাজ্যে

রাজনীতিতে শাসক বিরোধী দ্বৈরথ থাকবে, এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু তার জন্য কোনো এক দলের প্রধানকে কুরুচিকর মন্তব্য করা কখনই কাম্য নয়। যে বাংলা সব সময় সংস্কৃতির জন্ম দিয়ে এসেছে, ভোট প্রচারে সেই বাংলার রাজনৈতিক নেতা-নেত্রীদেরই বিভিন্ন সময়ে কু মন্তব্য করতে দেখা গেছে। আর এবার ভোটের পরেও স্বয়ং তৃণমূল নেত্রী তথা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী

এবার এই পুরপ্রধানকে পদত্যাগ করার নির্দেশ দিলেন শীর্ষ নেতৃত্ব, শোরগোল রাজ্যে

লোকসভা ভোটে তৃনমূলের ভরাডুবি এবং বিজেপির উত্থানে হতচকিত হয়েছেন অনেকেই। গত 2014 সালে তৃণমূল বাংলা থেকে 34 টা আসন পেলেও এবার তাদের দখলে এসেছে মোটে 22 টি আসন। অন্যদিকে বিজেপি 2 থেকে বাড়িয়ে তাদের আসন সংখ্যা 18 করে নিয়েছে। আর বিজেপির এই অভাবনীয় ফলাফলের পরই দিকে দিকে শাসকদলের জনপ্রতিনিধিরা তৃণমূল

সুনীল সিংহের তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান প্রসঙ্গে মুখ খুলে মমতাকে কটাক্ষ অর্জুনের

লোকসভা নির্বাচনের দামামা বাজার পর ব্যারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রে তৃণমূলের তরফে দীনেশ ত্রিবেদীকে প্রার্থী করা হলে তা নিয়ে দলের অন্দরেই অসন্তোষ প্রকাশ করেন ভাটপাড়ার প্রাক্তন তৃণমূল বিধায়ক অর্জুন সিংহ। কিন্তু শেষ পর্যন্ত দীনেশ বাবুর নামেই প্রার্থী হিসেবে শীলমোহর দেওয়ায় দলের বিরুদ্ধে গিয়ে দিল্লিতে বিজেপির সদর দপ্তরে বিজেপি নেতা মুকুল রায় ও

ফের আরও এক পঞ্চায়েত সমিতির দখল নিল বিজেপি, অস্বস্তিতে তৃণমূল

লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূল নেত্রী 42 এ 42 টি আসন দখল করার স্লোগান দিলেও রাজ্যে বিজেপির উত্থানে ধ্বস নেমেছে শাসক দলের ভোটব্যাঙ্কে। মোটে 22 টি আসন তৃনমুল তাদের ঝুলিতে পুড়লেও বিজেপি 18 টি আসন নিজেদের দখলে রেখে শাসকদলের ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলতে শুরু করেছে। আর লোকসভায় বিজেপির এই অভাবনীয় ফলাফলের পরই দিকে দিকে

এনআরএস কান্ড মিটতে না মিটতেই, অশান্তি শুরু যাদবপুরে

যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে অশান্তি বাঁধল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ও বহিরাগতদের মধ‍্যে। ছাত্রছাত্রীদের অভিযোগ বিশ্ববিদ্যালয়ের রিসার্চ স্কলার হোস্টেল বহিরাগতদের উপস্থিতি নিত‍্যদিনের ঘটনা। এর পিছনে ঐ হোস্টেলেরই এক অংশ বোর্ডার জড়িত। তাদেরই মদতে বাইরের লোক হোস্টেলে এসে মদ‍্যপান করে ও হইহল্লা করে হোস্টেলের পরিবেশ নষ্ট করে। গতকাল হোস্টেলের আবাসিকদের একটা অংশ হোস্টেলে বাইরের মানুষের এই

Top
error: Content is protected !!