এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য

১২ বছর পরে অবশেষে রাজ্যে বড়সড় নিয়োগ হতে চলেছে অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্রগুলিতে – জানুন বিস্তারিত

এক যুগ প্রতিক্ষার অবসান ঘটিয়ে ১৯'এর লোকসভা ভোটের মুখে অঙ্গনওয়ারী নিয়োগ নিয়ে আশার বাণী শোনাল রাজ্য সরকার। আইসিডিএস সেন্টার বা অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্র পরিচালনার দায়িত্বে থাকা ৩৩৭৬ টি সুপারভাইজার পদ শূন্য হয়ে রয়েছে ২০০৭ সালের বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যের জামানা থেকে। এবার সেই পদগুলোই পূরণ করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে প্রশাসনের তরফ থেকে৷ গতকাল রাজ্য

দার্জিলিং লোকসভা ধরে রাখতে বিজেপির এখনো ভরসা বিমল গুরুং, তাঁকে ঘিরে অভিনব পরিকল্পনাতেই বাজিমাতের চেষ্টা

এবারের লোকসভা নির্বাচনে বিমল গুরুংয়ের ভাবমূর্তিকে সামনে রেখেই পাহাড়ে পদ্মফুল ফোটাতে মরিয়া বিজেপি। আর সেজন্যেই বিমল গুরুংয়ের সঙ্গে অডিও এবং ভিডিও নিয়ে দার্জিলিং আসনের জন্যে প্রচারে নামার পরিকল্পনা করেছে বিজেপি,এমনকি বিমল গুরুংকে সশরীরে পাহাড়ে প্রচারের জন্যে আনার চেষ্টাও চালিয়ে যাচ্ছে তাঁরা,এমনটাই খবর বিজেপি সূত্রের। অবশ্য এ নিয়ে আগ বাড়িয়ে এখনই কিছু

জয়ের সম্ভাবনা যত নিশ্চিত হচ্ছে মৌসম নূরের উপর ততই আস্থা বাড়ছে শাসকদলের – এবার পেলেন বড়সড় ‘দায়িত্ব’

মালদার হেভিওয়েট সাংসদ মৌসম নূর লোকসভা ভোটের আগে কংগ্রেস ছেড়ে তৃণমূলে এসেই স্বস্তি দিয়েছে জোড়াফুল শিবিরকে। মৌসমের নেতৃত্বেই এবার জেলায় জয় পাবে তৃণমূল,এই কথায় ভরসা রেখেই উত্তর মালদা লোকসভা কেন্দ্রের প্রার্থী করা হল তাকে। দলের পদাধীকারীদের সঙ্গে সাম্প্রতিক বৈঠকে এমনটাই জানিয়ে দিলেন মালদহের তৃণমূল পর্যবেক্ষক শুভেন্দু অধিকারী। পাশাপাশি দক্ষিণ মালদায় কাকে

অধীর চৌধুরীকে লোকসভায় মাত দিতে তাঁর বিরুদ্ধে প্রার্থী তালিকায় চূড়ান্ত চমক দিতে চলেছে তৃণমূল

এবার বহরমপুর লোকসভা কেন্দ্রে অধীর চৌধুরীকে ঘায়েল করতে তাঁর শ্যালক অরিৎ মজুমদারকেই অস্ত্র হিসাবে ব্যবহার করতে উদ্যোগী তৃণমূল কংগ্রেস,এমনটাই জল্পনা শুরু হয়েছে রাজনৈতিকমহলে। মুর্শিদাবাদে তৃণমূল এবং প্রদেশ কংগ্রেসের জোট বাঁধা সম্ভাবনা একেবারেই নেই। কাজেই এই কেন্দ্র কংগ্রেসের থেকে ছিনিয়ে নিতে চেষ্টায় কোনো খামতি রাখতে চায় না তৃণমূল। সেজন্যে প্রাক্তন প্রদেশ কংগ্রেস

লোকসভা ভোটে আপনার কেন্দ্রের সব প্রার্থীর সব তথ্য আপনার হাতের মুঠোয় আনতে এবার বিশেষ পদক্ষেপ নির্বাচন কমিশনের

আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে সুষ্ঠুভাবে গোটা নির্বাচন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে ইতিমধ্যেই একাধিক পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে দেশের নির্বাচন কমিশন। আর এবার তাদের এই পদক্ষেপের মধ্যেই অন্যতম হল অ্যান্ড্রয়েড মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে এবার ভোট প্রার্থীর যাবতীয় তথ্য হাতে পেয়ে যাবেন ভোটাররা। সূত্রের খবর, এবারই প্রথম কোনো প্রার্থীর দাখিল করার সমস্ত নির্বাচনী হলফনামা যদি কোনো

ভারতী ঘোষকে পাশে বসিয়ে তৃণমূল নেত্রীর বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ এনে দিল্লিতে সাংবাদিক বৈঠক মুকুল রায়ের

আজ সকালেই বিজেপি নেতা মুকুল রায়ের আপ্ত সহায়ক একটি মেসেজ করে জানান দিল্লিতে দুপুর ১২ টার সময় এক সাংবাদিক বৈঠক ডেকেছেন বিজেপি নেতা মুকুল রায়। তবে মুকুলবাবুর এই সাংবাদিক বৈঠক কি নিয়ে তার কোনো হদিশ ছিল না কারোর কাছেই। ফলে এই সাংবাদিক বৈঠকের খবর ঘিরে তীব্র জল্পনা ছড়ায় রাজ্য রাজীনীতিতে।

দিল্লিতে দুপুর ১২ টায় সাংবাদিক বৈঠক ডাকলেন বিজেপি নেতা মুকুল রায় – নতুন ‘চমকের’ আশায় বঙ্গ-রাজনীতি

গতকাল সন্ধ্যে পর্যন্ত খবর ছিল বিশেষ কাজে ত্রিপুরা গেছেন বিজেপি নেতা মুকুল রায় - কিন্তু গতকাল গভীর রাতের দিকে জানা যায় ত্রিপুরা নয়, মুকুলবাবু গেছেন দিল্লি। আর আজ সাত সকালেই তাঁর আপ্ত সহায়কের মেসেজ - দুপুর ১২ টায় দিল্লিতে সাংবাদিক বৈঠক ডেকেছেন মুকুল রায়। বর্তমানে মুকুলবাবুর দিল্লিতে সাংবাদিক বৈঠক মানেই

প্রাণ যেতে পারে যে কোনো মুহূর্তে বলেই কি শাসকদলের নেতারা এখন একে অপরকে বিশ্বাস করতে পারছেন না! অনুব্রতর কর্মীসভা ঘিরে জল্পনা!

অনুব্রত মণ্ডলের সভাপতিত্বে তৃণমূলের দলীয় কর্মীসভা সম্পন্ন হল কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থাকে বজায় রেখেই। সভার আগে জেলাপুলিশের পাশাপাশি অনুব্রতর দেহরক্ষীরা মেটাল এবং বম ডিটেক্টর দিয়ে সভাস্থল দফায় দফায় পরীক্ষা করে দেখেন। মাসকয়েক আগেও অনুব্রতবাবুর সুরক্ষার জন্যে মহিলা নিরাপত্তারক্ষী দেওয়া হয়েছিল। এবার আরো একধাপ এগিয়ে বম ডিটেক্টর ব্যবহার করা হল। এখন থেকেই

মানুষের মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে চিনতে আর বাকি নেই! ওঁর খুব তাড়াতাড়ি চিকিৎসা করানো প্রয়োজন: লকেট চট্টোপাধ্যায়

বরবারই তৃণমূল কংগ্রেস এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের সুর চড়া করে রাজ্যরাজনীতিতে শোরগোল ফেলেছেন বিজেপির মহিলা মোর্চার রাজ্য সভানেত্রী লকেট চট্টোপাধ্যায়। প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে তাঁর বিষ্ফোরক মন্তব্য সবসময়ই নজর কেড়েছে সমালোচকমহলের। পুলওয়ামার মর্মান্তিক হামলার ঘটনার প্রেক্ষিতেও সরাসরি তৃণমূল সুপ্রিমো তথা মুুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বিঁধতে ছাড়লেন না তিনি। "পুলওয়ামার ঘটনায় গোটা

লোকসভা নির্বাচনে ঝাড়গ্রাম ও পুরুলিয়াতে সাম্ভাব্য বিজেপি প্রার্থী ও বর্তমান পরিস্থিতি

আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে বাংলায় বিভিন্ন যুযুধান রাজনৈতিক দলগুলির মধ্যে সবথেকে বেশি আগ্রহ, উদ্দীপনা ও কৌতূহল তৈরী হয়েছে বিজেপির প্রার্থী তালিকা নিয়ে। এর অন্যতম প্রধান কারণ বোধহয়, এই প্রথম বাংলায় কোনো নির্বাচনে বিজেপি 'ভালো ফল' করার জন্য নয় - লড়তে নামছে 'জেতার জন্য'। বিজেপি সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ যে হুঙ্কার দিয়ে

Top
Close
error: Content is protected !!