এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় (Page 2)

নির্বাচনে প্রার্থী তালিকা প্রকাশ করলো বিজেপি, প্রবল গোষ্ঠীদ্বন্দ্বে অস্বস্তিতে গেরুয়া শিবির !

গোটা দেশের শাসন ক্ষমতা তাদের হাতে থাকলেও, ভারতবর্ষের যে জায়গাটিতে কেন্দ্র সরকারের অধিষ্ঠান, সেই দিল্লির ক্ষমতায় রয়েছে বিজেপি বিরোধী দল আম আদমি পার্টি। ফলে সেদিক থেকে এবারের দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনে আম আদমি পার্টিকে সরাতে উদ্যোগী ভারতীয় জনতা পার্টি। হাতে আর মাত্র কিছুদিন বাকি‌। তারপরেই দিল্লি বিধানসভার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। ইতিমধ্যেই

দেশের জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ নিয়ে কি এবার কেন্দ্র নয়া নিয়ম আনতে চলেছে? সংঘপ্রধানের মন্তব্যে জল্পনা

যত দিন যাচ্ছে, ততই ভারতের জনসংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। এই বিষয়টি নিয়ে নানা মহলে নানা চিন্তা, ভাবনা লক্ষ্য করা যাচ্ছে। আর এই পরিস্থিতিতে অনেকেই বলছেন যে ভারতের জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ করা দরকার। কিন্তু জনসংখ্যা বৃদ্ধির এই মুহূর্তে কি বলছেন সঙ্ঘপ্রধান মোহন ভাগবত! সূত্রের খবর, এদিন উত্তরপ্রদেশের মোরাদাবাদের এক সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে

টিকিট দিতে 10 কোটি চাইছেন মুখ্যমন্ত্রী, বড়সড় অভিযোগ এনে দল ছাড়লেন বিধায়কের

  হাতে আর কয়েকদিন বাকি। তারপরই অনুষ্ঠিত হবে দেশের রাজধানী দিল্লির বিধানসভা নির্বাচন। আর সেই বিধানসভা নির্বাচন নিয়ে ইতিমধ্যেই সেখানে ক্ষমতা দখল করতে উদগ্রীব হয়ে উঠেছে ভারতীয় জনতা পার্টি। সেখানকার শাসন ক্ষমতায় থাকা আম আদমি পার্টিকে সরাতে নানারকম পদক্ষেপ করতে শুরু করেছে তারা। আর এই পরিস্থিতিতে আম আদমি পার্টির অস্বস্তি বহুগুণে

জাতীয় জনগণনা পঞ্জি নিয়ে এবার কেন্দ্রের রিপোর্ট চাইল সুপ্রীম কোর্ট

সম্প্রতি দেশজুড়ে জাতীয় নাগরিকপঞ্জি আইন, সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন এবং জাতীয় জনগণনা পঞ্জি নিয়ে তুমুল আন্দোলন চলছে। এই আন্দোলনে পশ্চিমবঙ্গ বেশ কিছুটা এগিয়ে। এদিন পশ্চিমবঙ্গের কুড়ি জন শিক্ষক অধ্যাপক নিজেদের প্যান কার্ড ও আধার কার্ড তথ্য দিয়ে সুপ্রিম কোর্টে মামলা করেছেন এনপিআরের বিরুদ্ধে। ঘটনাচক্রে এই কজন শিক্ষক, প্রত্যেকেই হলেন মুসলমান। জাতীয়

এবার কি মহারাষ্ট্রে ক্ষমতা দখল করতে চলেছে বিজেপি! নয়া পদক্ষেপে বাড়ল জল্পনা

কিছুদিন আগেই মহারাষ্ট্রের বিধানসভা নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছিল। যেখানে মুখ্যমন্ত্রীর দাবিদার শিবসেনা থাকায় সেই শিবসেনার সঙ্গে জোট সম্ভব হয়নি ভারতীয় জনতা পার্টির। যার পরেই বিজেপিকে চাপে ফেলে শিবসেনা, কংগ্রেস এবং এনসিপি মিলে মহারাষ্ট্র সরকার গঠন করে। কিন্তু এবার শিবসেনার সঙ্গে মিলেই মহারাষ্ট্র সরকার গঠন করতে চাইছে বিজেপির একাংশ। কিন্তু অতীতে কদিন আগেই

চিটফান্ড কাণ্ডে সিবিআই অফিসার কেন পাল্টালো? সামনে এলো বিস্ফোরক তথ্য!

নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন নিয়ে বিজেপির বিরুদ্ধে অনেকদিন ধরেই সরব হয়েছে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস। এই আইন বাতিলের দাবিতে রাস্তায় নেমে প্রবল গর্জন দেখা গিয়েছে, রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। তবে এরই মাঝে নিজেদের মতকে জনসাধারনের কাছে তুলে ধরতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং নরেন্দ্র মোদির মধ্যে সমঝোতা রয়েছে বলে মাঝেমধ্যেই দাবি করতে

ফের জিএসটি নিয়ে নয়া ভাবনায় কেন্দ্র, কর নিয়ে নয়া নির্দেশিকা

  চলতি আর্থিক বছরে জিএসটি খাতে কর সংগ্রহের লক্ষ্য অনেকটা দূরে রয়েছে। আর এহেন একটা পরিস্থিতিতে এবার অর্থবর্ষের শেষ তিন মাসে কর আদায়ের নতুন লক্ষ্যমাত্রা বেঁধে দিল কেন্দ্রীয় সরকার। যা নিয়ে নানা মহলে তীব্র গুঞ্জনের সৃষ্টি হয়েছে। জানা গেছে, রাজস্ব সচিব সচিব অজয় ভুষণ পান্ডের নেতৃত্বাধীন এই বৈঠকটি শুক্রবার অনুষ্ঠিত হয়। যেখানে

বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি হচ্ছেন কে? কবেই বা নিজের পদে বসেছেন তিনি!

  অনেকদিন ধরেই জল্পনা চলছিল যে, বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি পদে বদল আসতে পারে। কেননা অমিত শাহ সভাপতি পদ সামলালেও বর্তমানে তিনি কেন্দ্রীয় সরকারের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। ফলে সেদিক থেকে প্রশাসনিক অনেক কাজ সামাল দিতে হচ্ছে তাঁকে। তাই তার জায়গায় কার্যকরী সভাপতি জেপি নাড্ডা সভাপতি হতে পারেন বলে মনে করা হয়েছিল। আর এবার পাকাপাকিভাবেই

মমতা-মোদীর সাক্ষাতে রুষ্ট সংখ্যালঘু? নয়া তত্ত্ব খাড়া করলেন রাজ্যের হেভিওয়েট মন্ত্রী!

  2019 সালের লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি 18 আসন পেয়েছিল এবং তৃণমূল পেয়েছিল 22 টি আসন। আর তৃণমূলের এই 22 টি আসন পাওয়ার পেছনে সহায় হয়েছিল যে রাজ্যের সংখ্যালঘুদের ভোটব্যাংক, তা বুঝতে বাকি নেই কারোরই। ফলে সেদিক থেকে সংখ্যালঘুরা যে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও তৃণমূল কংগ্রেসের বড় সম্পদ, সেই ব্যাপারে নিশ্চিত রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকেরা। কিন্তু

দিল্লির বৈঠকে না যাওয়া, এনআরসি বিরোধিতা নিয়ে মমতাকে আক্রমণ কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর, জোর চাঞ্চল্য!

  নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন লাগু হওয়ার পর থেকেই তার চরম বিরোধিতা করা শুরু করেছেন তৃণমূল নেত্রী তথা বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কোনোভাবেই তিনি বাংলায় এনআরসি হতে দেবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন। পাশাপাশি এই আইন বাতিলের দাবিতে পদযাত্রা সভা-সমিতিতে লাগাতার অংশ নিচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। যাকে কেন্দ্র করে বিজেপির তরফ সেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে

Top
error: Content is protected !!