এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > প্রার্থী নিয়ে দলের ক্ষোভ- বিক্ষোভকে উড়িয়ে বঙ্গ বিজেপির দাবি- 23 নয়, নরেন্দ্র মোদীকে বাংলা থেকে 32 আসন দেবেন!

প্রার্থী নিয়ে দলের ক্ষোভ- বিক্ষোভকে উড়িয়ে বঙ্গ বিজেপির দাবি- 23 নয়, নরেন্দ্র মোদীকে বাংলা থেকে 32 আসন দেবেন!

আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে বাংলার 42 টি লোকসভা আসনের মধ্যে 22 থেকে 23 টি আসন নিজেদের দখলে রাখবার জন্য বারে বারেই বাংলার বিজেপি নেতৃত্বকে নিজের টার্গেট বেধে দিয়েছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ। কিন্তু বিজেপির এরাজ্যে প্রথম দফার প্রার্থী তালিকা প্রকাশের পরই সেই প্রার্থী নিয়ে জেলায় জেলায় যেভাবে অসন্তোষ এবং বিদ্রোহ শুরু হয়েছে, তাতে কি করে এই 22 থেকে 23 টি আসন নিজেদের দখলে রাখার স্বপ্ন সার্থক হবে তা নিয়ে বিভিন্ন মহলে উঠতে শুরু করেছে নানা প্রশ্ন।

যেমন, সদ্য কোচবিহারের তৃণমূল নেতা নিশীথ প্রামাণিক বিজেপিতে আসলে এবং মালদহের সিপিএম বিধায়ক খগেন মুর্মু বিজেপিতে আসার সাথে সাথেই তাদেরকে যেভাবে দলের তরফে টিকিট দেওয়া হয়েছে তা নিয়ে সেখানকার বিজেপি কর্মীদের একাংশ প্রকাশ্যে বিদ্রোহ ঘোষণা করতে দেখা গেছে।

পাশাপাশি লকেট চট্টোপাধ্যায় এবং সায়ন্তন বসুকে টিকিট দেওয়া হলে বিজেপি একাংশ কর্মীদের মধ্যে প্রবল গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব শুরু হয়েছে। আর এভাবে যদি চলতে থাকে তাহলে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে তাদের পক্ষে যে বিপুল সংখ্যক আসন বাংলা থেকে নিজেদের ঝুলিতে পড়া সম্ভব নয় – তা ভেবে নিয়ে যখন প্রবল চিন্তায় পড়েছে দলের নিচুতলার কর্মী-সমর্থকরা, ঠিক তখনই প্রার্থী নিয়ে দলের একাংশের ক্ষোভ কেন তৈরি হল সেই ব্যাপারে রাজ্য নেতৃত্বের কাছে রিপোর্ট চেয়ে পাঠাল বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

আর এই রিপোর্টেই আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে বাংলার 22 থেকে 23 টি আসন দখলের কথা প্রথমে বলা হলেও এবারে বাংলার 42 টি আসনের মধ্যে 32 টি আসন তারা কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে উপহার দেবেন বলে জানিয়ে দিল বঙ্গের বিজেপি নেতৃত্ব। কিন্তু যখন একদিকে দলীয় গোষ্ঠী কোন্দল আর অপরদিকে বিভিন্ন আসনে প্রার্থী ঘোষণা না হওয়ায় প্রবল দ্বিধাদ্বন্দ্বে ভুগছি রাজ্য বিজেপি, ঠিক সেখানেই কি করে বাংলা থেকে 32 টি আসন নিজেদের দখলে রাখবে তারা!

তাহলে কি শুধুমাত্র কেন্দ্রের নেতৃত্বকে সন্তুষ্ট রাখতেই বিজেপির রাজ্য নেতারা এহেন রিপোর্ট পাঠালেন তা নিয়ে রাজনৈতিক মহলের একাংশ প্রবল প্রশ্ন তুলতে শুরু করছে। যদিও বা এই রিপোর্টের ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী বিজেপির অন্যতম কেন্দ্রীয় সম্পাদক তথা রাজ্য বিজেপির প্রাক্তন সভাপতি রাহুল সিনহা।

এদিন তিনি বলেন, “দলের সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ বাংলা থেকে 23 টি আসন চেঞ্জ। কিন্তু আমরা তাকে বলেছি যে 23 টি নয়, পশ্চিমবঙ্গ থেকে 32 টি আসন বিজেপি জিতবে। প্রার্থী তালিকা নিয়ে কিছু জায়গায় সামান্য বিক্ষোভ হয়েছে। এখন সব ঠিকঠাক আছে। আসলে বিজেপিকে বিপাকে ফেলতেই প্রতিপক্ষ রাজনৈতিক দলগুলো এই ঘটনাকে বড় বলে প্রচার করছে।”

সব মিলিয়ে 23 এর বদলে 32 টি আসন আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে এই বাংলা থেকে তারা কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে উপহার দেবে বলে বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বের কাছে রিপোর্ট পাঠালেও শেষ পর্যন্ত ঠিক কতগুলো আসন এই বাংলা থেকে নিজেদের ঝুলিতে পুরতে পারে গেরুয়া শিবির এখন সেদিকেই তাকিয়ে সকলে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!