এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > বোর্ড-গঠনের কাজ প্রায় শেষ হয়ে গেলেও এখনও তৃণমূলে যোগ দিতে পুলিশের শাসানির অভিযোগ

বোর্ড-গঠনের কাজ প্রায় শেষ হয়ে গেলেও এখনও তৃণমূলে যোগ দিতে পুলিশের শাসানির অভিযোগ

পঞ্চায়েত বোর্ড গঠনকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা ছড়িয়েছে ধনীরামপুর-১ গ্রাম পঞ্চায়েতে। দু বার বোর্ড গঠন স্থগিত হওয়ার জেরে তীব্র অসন্তোষের শিকার গেরুয়াশিবির। প্রতিবাদ জানাতে বিজেপি পঞ্চায়েতের নির্বাচিত নজন সদস্যকে নিয়ে আগামীকাল জেলাশাসকদের সঙ্গে দেখা করবে বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে। প্রশাসন হয় বোর্ড গঠন করুক নয় তাঁদের জয়ী শংসাপত্র বাতিল করে দিক,এমনটাই আবেদন রাখবে জয়ী সদস্যরা জেলাশাসকের কাছে।

স্থানীয় সূত্র থেকে জানা গিয়েছে, ধনীরামপুর-১ পঞ্চায়েতে বোর্ড গঠন করার কথা বিজেপির। কারণ মোট ১৪ টি আসনের মধ্যে বিজেপি নটি এবং তৃণমূল ৫ টি আসন পায়। গত ২৮ আগষ্ট বোর্ড গঠন করার দিন নির্ধারণ হলেও আইন শৃঙ্খলার অবনতির জন্য প্রশাসন বোর্ড গঠন স্থগিত করে দেয়। এরপর ৭ সেপ্টেম্বর বোর্ড গঠনের দিন ধার্য হয়। কিন্তু প্রিসাইডিং অফিসার সহ আরো সরকারি কিছু লোকজন বোর্ড গঠনের দিন দুষ্কৃতি হামলাা শিকার হওয়ায় ফের ভেস্তে যায় বোর্ড গঠন। এরপরই ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠে বিজেপি। আগামী ৫ অক্টোবর অব্দি বোর্ড গঠনের সময়সীমা রয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

ওদিকে, একইরকম টালমাটাল অবস্থা আলিপুরদুয়ার-২ ব্লকের কোহিনূর গ্রাম পঞ্চায়েতেও। সংখ্যাগরিষ্ঠতার নিরিখে এখানে বোর্ড গঠনের করে বিজেপি। মোট ৮ টি আসনের মধ্যে বিজেপি পেয়েছে ৫ টি,তৃণমূল ২ টি এবং নির্দল ১ টি আসন পায়। প্রধান পদটি পান বিজেপির ভারতীয় টি ওয়ার্কার্স ইউনিয়নের নেতা কিশুন মন্ডলের স্ত্রী নীলম মন্ডল। কিন্তু বোর্ড গঠন হওয়ার পরই শান্তি ফেরেনি এলাকায়। অনুগামীদের নিয়ে নীলম দেবী যদি অবিলম্বে তৃণমূলে যোগ না দেন তাহলে তাঁর স্বামী কিশুন মন্ডলের বিরুদ্ধে বোমা,বারুদ,গাঁজা ও ধর্ষনের মামলা করার হুমকি দেওয়া হয়েছে। সম্প্রতি শামুকতলা থানার এক পুলিশ অফিসার এসে নীলম দেবীকে শাসিয়ে গেছেন। এমনটাই সাংবাদিক সম্মেলন করে অভিযোগে জানালেন নতুন পঞ্চায়েত প্রধান।

পঞ্চায়েত প্রধানের স্বামীকে হুমকি দেওয়ার বিষয়ে বিজেপির চিঠি খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলেই জানালেন জেলাশাসক নিখিল নির্মল। বিজেপির অভিযোগ খতিয়ে দেখার কথা জানালেন শামুকতলা থানার পুলিশ সুপার সুনীল কুমার যাদবও। তিনি আরো জানান,অভিযুক্ত ওই অফিসারকে এ বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ফোন করা হলে তিনি ব্যস্ততার বাহান দিয়ে ফোন কেটে দেন। তবে এ বিষয়ে উপযুক্ত ব্যবস্থা অবিলম্বেই নেওয়া হবে বলে আশ্বাস দেন পুলিশ সুপার।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

অন্যদিকে, এই অভিযোগ প্রকাশ্যে আসায় স্থানীয় বিজেপি কর্মী সমর্থকরা বিক্ষোভ প্রতিবাদে সামিল হয়েছেন। শামুকতলা থানার ওই পুলিশ কর্মীকে অবিলম্বে বদলি করা না হলে থানায় গিয়ে বিক্ষোভ দেখাবেন তাঁরা,এমনটাই জানিয়েছেন আলিপুরদুয়ার জেলা বিজেপি সভাপতি গঙ্গাপ্রসাদ শর্মা। তিনি অভিযোগে আরো জানান,তৃণমূলের নির্দেশে ধনীরামপুর-১ গ্রাম পঞ্চায়েতে বিজেপিকে বোর্ড গঠনে বাধা সৃষ্টি করা হচ্ছে। এর একটা বিহিত করতেই দলের নির্বাচিত জয়ী সদস্যদের নিয়ে জেলাশাসকের দপ্তরে যাবে বিজেপি। তবে এসব অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে দাবী করলেন তৃণমূলের জেলা সভাপতি মোহন শর্মা। পঞ্চায়েত বোর্ড গঠনের বিষয়টি সম্পূর্ণ প্রশাসনের দায়িত্বের মধ্যে পড়ে এমনটাই বক্তব্যে জানালেন তিনি।

 

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!