এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > বাবা-কাকার সঙ্গেই সুসম্পর্ক নেই, “ভুয়ো” পিসির সঙ্গে কতদিন টিকবে! প্রচারে ঝড় তুলছে বিজেপি

বাবা-কাকার সঙ্গেই সুসম্পর্ক নেই, “ভুয়ো” পিসির সঙ্গে কতদিন টিকবে! প্রচারে ঝড় তুলছে বিজেপি

কথায় আছে, উত্তরপ্রদেশে যে দল শেষ হাসি হাসে, তারাই নাকি দিল্লির মসনদ দখল করে। আর সেই মতো উত্তরপ্রদেশে এবার বিজেপিকে ঠেকাতে ও কেন্দ্রে বিজেপির ক্ষমতা দখল রুখতে উত্তরপ্রদেশেই একসময় প্রবল অহিনকুল সম্পর্ক থাকা দুই দল অখিলেশ যাদবের সমাজবাদী পার্টি এবং মায়াবতীর বহুজন সমাজবাদী পার্টি মহাজোট গড়েছে।

আর বুয়া-বাবুয়ার এই জোটে যে গেরুয়া শিবিরের ভোটব্যাঙ্কে অনেকটাই ধ্বস নামতে পারে, এই ব্যাপারে নানা চুলচেরা বিশ্লেষণ শুরু করে দিয়েছে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। আর এরই মধ্যে এবার অখিলেশ যাদব এবং মায়াবতীর জোটকে নিয়ে কড়া ভাষায় আক্রমণ করলেন উত্তরপ্রদেশের বিজেপির উপমুখ্যমন্ত্রী কেশবপ্রসাদ মৌর্য।

সূত্রের খবর, এদিন তিনি বলেন, “অখিলেশ নিজের বাবার বিশ্বাস অর্জন করতে পারেননি। কিন্তু মায়াবতীর সঙ্গে লোক দেখানো পিসি- ভাইপোর সম্পর্ক তৈরি করেছেন। তাই সেই সম্পর্ক কতদিন টিকবে তা নিয়ে সন্দেহ আছে। এতে কারোরই লাভ হবে না। একজন ব্যক্তি নিজের বাবা ও কাকার যখন বিশ্বাসযোগ্যতা অর্জন করতে পারেননা, তখন তিনি কি করে পিসি-ভাইপোর ভুয়ো সম্পর্ক টিকিয়ে রাখবেন!”

অন্যদিকে সপা, বসপা ও অন্যান্য রাজনৈতিক দল যতই জোট করুন না কেন, আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের পর ফের প্রধানমন্ত্রীর আসনে বসবেন নরেন্দ্র মোদী বলেও এদিন জানিয়ে দেন উত্তরপ্রদেশের বিজেপির উপমুখ্যমন্ত্রী কেশবপ্রসাদ মৌর্য। রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে, উত্তরপ্রদেশের অখিলেশ যাদবের সমাজবাদী পার্টি এবং মায়াবতীর বহুজন সমাজবাদী পার্টির জোটে কিছুটা হলেও চিন্তা বাড়ছে বিজেপির।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

আর তাই নিজেদের চিন্তা কমাতে এবং বিরোধী মহাজোটকে দমাতেই অখিলেশ যাদবের সঙ্গে তার বাবা মূলায়ম সিং যাদব এবং কাকার তিক্ততা তুলে ধরে সেই সমাজবাদী পার্টির ভোটকেই দুভাগে ভাগ করার চেষ্টা করলেন বিজেপির কেশব প্রসাদ মৌর্য বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহলের একাংশ।

তবে শুধু বুয়া-বাবুয়ার জোটকে কটাক্ষ করাই নয়, এদিন কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সভাপতি রাহুল গান্ধীর ন্যূনতম রোজগার সুনিশ্চিত প্রকল্পের প্রস্তাবকেও “ভাওতা” বলে কংগ্রেসকে কড়া ভাষায় বিধেন কেশবপ্রসাদ মৌর্য। তিনি বলেন, “মনমোহন সিংয়ের নেতৃত্বে 10 বছর কেন্দ্রে ক্ষমতায় ছিল কংগ্রেস। তাই কংগ্রেস নেতৃত্বের মুখে এহেন কথা মানায় না।

আসলে বিরোধী দলের উদ্দেশ্য হচ্ছে দেশকে রক্ষা করা নয়, নরেন্দ্র মোদিকে প্রধানমন্ত্রী হওয়া থেকে আটকানো। কিন্তু তাদের এই ইচ্ছা কোনোদিনই পূর্ণ হবে না।” অন্যদিকে রায়বেরেলি ও আমেথি দীর্ঘদিন ধরে কংগ্রেসের দখলে থাকলেও এবার সেই আসনে তারাই জিতবে বলে জানিয়ে দেন উত্তর প্রদেশের বিজেপির উপমুখ্যমন্ত্রী। সব মিলিয়ে একাধিক ইস্যুতে মুখ খুলে বিরোধীদের মহাজোটকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করলেন বিজেপির কেশবপ্রসাদ মৌর্য।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!