এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > ধর্ষিতার থেকেই তোলা আদায় করে গ্রেপ্তার বিজেপি নেতা, অস্বস্তিতে গেরুয়া শিবির

ধর্ষিতার থেকেই তোলা আদায় করে গ্রেপ্তার বিজেপি নেতা, অস্বস্তিতে গেরুয়া শিবির

দীর্ঘদিন ধরে ধর্ষণ এবং শীরিক নিগ্রহের পর, নির্যাতিতার থেকে টাকা নেওয়ার অভিযোগ উঠল এক বিজেপি নেতার বিরুদ্ধে। মহারাষ্ট্রের ইয়াভাতামাল জেলার ওয়ানি এলাকার ঘটনা। পুলিশ বিজেপি কাউন্সিলার ধীরাজ দীগম্বর পাথেকে গ্রেপ্তার করেছে। জানা গেছে, অভিযুক্ত দীগম্বর পাথের বিরুদ্ধে আরও একটি ধর্ষণের মামলা আদালতে বিচারাধীন অবস্থায় রয়েছে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

ঘটনার তদন্তকারী অফিসার ওয়ানির পুলিশ ইন্সপেক্টর খাড়ে জানান, অভিযোগকারী তরুণী ছোট থেকেই দীগম্বর পাথের পরিচিত। দ্বাদশ শ্রেণিতে পড়াকালীন নাবালিকা অবস্থাতেই প্রথমবার তাঁর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হয়েছিল দিগম্বর। এরপর থেকে প্রায়ই তাঁকে যৌন হেনস্থার শিকার হতে হত। এর মধ্যেই অভিযুক্ত তরুণীকে বিয়ের জন্যে প্রস্তাব দিয়েছিল।

কিন্তু অভিযোগকারীনি তা প্রত্যাখ্যান করায় ওয়ানি মিউনিসিপ্যালিটি এলাকার বিজেপির কাউন্সিলর পাঁচ লক্ষ টাকা দাবি করে। এমনকি তরুণীর নামে ফেক ফেসবুক অ্যাকাউন্ট খুলে বিভিন্নজনকে আপত্তিকর মেসেজ পাঠাতে শুরু করে। ঘটনার কথা নির্যাতিতার পরিবারের গোচরে আসতেই এযাবত কালের সমস্ত ঘটনার কথা জানাজানি হয়ে যায়। তারপর স্থানীয় থানায় ওই কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ জানান ওই তরুণী। ওই অভিযোগের ভিত্তিতেই পুলিশ দিগম্বরকে গ্রেপ্তার করেছে। অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৭৬, ৩৬৩, ৩৬৫ ৩৮৪, ৪৭১ ধারায় ও পকসো আইনের আওতায় মামলা শুরু হয়েছে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!