এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > বিজেপি নেত্রী লকেট চ্যাটার্জির বিরুদ্ধে থানায় এফআইআর দায়ের তৃণমূল নেত্রীর

বিজেপি নেত্রী লকেট চ্যাটার্জির বিরুদ্ধে থানায় এফআইআর দায়ের তৃণমূল নেত্রীর

লোকসভা ভোটার প্রচারে জমজমাট বাংলার রাজনীতি। প্রথম দফার ভোট গ্রহণ পর্ব সবে সমাপ্ত হতে না হতেই বাকি কেন্দ্রে জমিয়ে প্রচার শুরু করেছেন লোকসভা ভোটের প্রার্থীরা। রাজ্যের শাসকদল কেন্দ্রের বিজেপি সরকার ও রাজ্যের অন্য বিরোধীদের বিরুদ্ধে একের পর এক তোপ দাগছেন। কারুর কারুর বিতর্কিত মন্তব্য নিয়ে নিবার্চনী বিধিভঙ্গের দায়ে কমিশন দ্বারস্থ হচ্ছে বিরোধীরা। যদিও এই নিয়ে পিছিয়ে নেই বিরোধী প্রার্থীরাও।

আর এবার হুগলী লোকসভার বিজেপি প্রার্থী লকেট চ্যাটার্জীর নামে এদিন তৃনমুল নেত্রী অসীমা দেবীর অভিযোগ আনেন যে লকেট চ্যাটার্জি তাকে তুলে নিয়ে যাওয়ার হুমকি দিয়েছেন। আর এই নিয়েই তিনি গুড়াপ থানায় FIR দায়ের করেন। শুধু তাই নয় এই নিয়ে তিনি নির্বাচন কমিশনেও অভিযোগ করবেন বলে জানিয়েছেন।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

এদিন অসীমা পাত্র বলেন, “”একজন বিজেপি প্রার্থী কীভাবে বিধায়ক ও মন্ত্রীকে তুলে নিয়ে যাওয়ার হুমকি দেয়? কী করে এই সাহসটা হয়? কী বলতে চাইছে? তুলে নিয়ে গিয়ে মেরে দেবে? বিজেপি পারে গুন্ডামি করতে।”

এদিন অসীমা দেবী সোজা বিজেপিকে ভৎসনা করেন। এদিন বিজেপিকে গুন্ডাদের রাজত্ব বললেন তিনি। তিনি লকেট চ্যাটার্জির মন্তব্যের পাল্টা চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়ে বললেন , আসুক লকেট তিনিও দেখতে চান যে লকেট তার কি করেন । তিনিও ও রেডি হয়ে আছেন মোকাবিলার জন্য। তার সাথে ধনিয়াখালির মানুষও রেডি হয়ে আছে তাই বিজেপি প্রার্থী তার কিচ্ছু করতে পারবে না।

সাথেই তিনি দাবি করেন যে, তিনি বলেন এটা বাংলা, এখানে তৃনমুল এর নেত্রী লকেটের গুন্ডাগিরি কেউ সহ্য করে নেবেনা। তারাও পাল্টা জবাব দিতে জানেন। তবে তার হয়ে এবার জবাব দেবেন জনগণ। ৬ তারিখ বলে দেবেন জনগন কি চান। অসীমাদেবী লকেটকে তোপ দেগে বললেন উদ্দেশ্য মানুষ লকেটকে বীরভূম ছাড়া করেছেন এবার এসছে হুগলিতে এখান থেকেও বিদায় করবে জনগন।

ঘটনায় উল্লেখিত , অসীমা দেবী জানান গুড়াপের সভায় বিজেপির জনসমর্থন নেই। সেই কারনেই বিজেপির মাথা খারাপ হয়ে গেছে। ধনিয়াখালির মানুষ তৃনমুল এর পাশে আছেন। তারা উন্নয়নের সঙ্গে আছেন। সারাবছর ধরে তৃণমূলের MLA ও MP এর সমর্থনে মানুষ পাশে আছেন ও আগামীকাল ও পাশে থাকবেন। আর তাই অসীমা দেবী লকেট চট্টোপাধ্যায়ের এই ফাকা আওয়াজকে কোনো রকম পাত্তা দিতে রাজী নন। তার বক্তব্যে এমনটা আভাস পাওয়া গেল।

অবশ্য এই নিয়ে এখনো লকেট দেবীর কাছ থেকে কোনো পতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

Top
error: Content is protected !!