এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > সদস্য সংগ্রহ অভিযানে গিয়ে বেধড়ক মার খেলেন বিজেপি নেতা, জোর শোরগোল

সদস্য সংগ্রহ অভিযানে গিয়ে বেধড়ক মার খেলেন বিজেপি নেতা, জোর শোরগোল

গত 6 জুলাই থেকে সারা দেশের পাশাপাশি বাংলাতেও বিজেপির সদস্য সংগ্রহ অভিযান প্রক্রিয়া চলছে। বিভিন্ন জায়গায় এই সদস্য সংগ্রহ অভিযানে অংশ নিয়ে বাংলায় যাতে দলের সদস্য আরও বাড়ানো যায়, তার প্রবল চেষ্টা চালাচ্ছেন বিজেপির নেতা কর্মীরা। আর এই পরিস্থিতিতে এবার সেই সদস্য সংগ্রহ অভিযান করতে গিয়েই দুষ্কৃতীদের হাতে মার খেতে হল বিজেপি কর্মী অঙ্কিত সাউকে।

সূত্রের খবর, গত শুক্রবার রাতে এই অঙ্কিত সাউ দলীয় কর্মীদের সঙ্গে বিস্তারক অভিযান কর্মসূচিতে ব্যস্ত ছিলেন। আর সেই সময়ই এলাকায় একসময় পরিচিত তৃণমূল কর্মী বর্তমানে বিজেপি কর্মী বলে পরিচয় দেওয়া রাজীব সিং সেই অঙ্কিত সাউয়ের উপর হামলা করে বলে অভিযোগ ওঠে। কিন্তু এক দলের দুই কর্মী হলেও কেন একে অপরের উপর হামলা করল!

জানা গেছে, অঙ্কিত সাউ রাজীব সিংয়ের এলাকায় ঢুকে কেন দলীয় কর্মসূচি পালন করছে, তার জন্যই সেই রাজীববাবুর সঙ্গে অঙ্কিতবাবুর গন্ডগোল বাধে। আর এরপরই সেই রাজীব সিংহ ও তার দলবল মিলে অঙ্কিত সাউয়ের ওপর হামলা চালায়। এদিকে কানে-ঘাড়ে ব্যাপক চোট লাগায় ব্যারাকপুর বি এন মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় সেই অঙ্কিত সাউকে। পরে তিনি টিটাগর থানায় এসে রাজীব সিং ও তার দলবলের বিরুদ্ধে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

এদিন এই প্রসঙ্গে অঙ্কিত সাউ বলেন, “এই ওয়ার্ডে বেশ কিছুদিন ধরে বিজেপির তরফ থেকে সদস্য সংগ্রহ কর্মসূচি পালন হচ্ছিল। সেই সময় তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতী রাজীব সিং, যিনি বর্তমানে নিজেকে বিজেপি কর্মী বলে দাবি করছে, সে ফোন করে তার এলাকায় আমাকে ঢুকতে বারণ করেছিল। কিন্তু সেই সমস্ত হুমকিকে পাত্তা না দিয়ে শুক্রবার এখানে সদস্য সংগ্রহ অভিযান হয়। আর তাতেই রুষ্ট হয়ে রাজীব সিং ও আরও বেশ কয়েকজন এসে আমাকে মারধর করে।”

এদিকে পরিস্থিতি ক্রমেই উত্তেজিত হচ্ছে আচ করতে পেরে এই হামলার খবর পেয়ে তড়িঘড়ি সেখানে উপস্থিত হন টিটাগর মন্ডল বিজেপির সভাপতি রবীন্দ্র সিং। যেখানে তিনিও এই রাজীব সিংকে তৃণমূলের দুষ্কৃতী বলে অভিহিত করেন। এদিন তিনি বলেন, “রাজীব সিং তৃণমূলের দুষ্কৃতী। কিন্তু বর্তমান পরিস্থিতিতে সে নিজেকে বিজেপি কর্মী বলে দাবি করছে। কিন্তু ওকে কেউ দলে নেয়নি। নিজেই নিজের মতো করে প্রচার করছে। ওর সঙ্গে বিজেপির কোনো সম্পর্ক নেই।”

এদিকে বিজেপি রাজীব সিংহকে তাদের কর্মী বলে অস্বীকার করলেও রাজীব সিং তাকে বিজেপি কর্মী বলায় পাল্টা এই ব্যাপারে সুর চড়িয়ে গোটা ঘটনাটিকে বিজেপির গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব বলে আখ্যা দিয়েছেন টিটাগর পৌরসভার তৃণমূলের চেয়ারম্যান প্রশান্ত চৌধুরী।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!