এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > বিরোধীদের মহাজোট বিজেপির কাছে চ্যালেঞ্জ, মেনে নিলেন অমিত শাহ

বিরোধীদের মহাজোট বিজেপির কাছে চ্যালেঞ্জ, মেনে নিলেন অমিত শাহ

Priyo Bandhu Media


সম্প্রতি দেশের বিরোধী দলগুলির উদ্দেশ্যে আপত্তিকর ভাষায় আক্রমন করেছিলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ। দেশের বিভিন্ন রাজ্যের আঞ্চলিক দলগুলির জোট প্রসঙ্গে তিনি বলেছিলেন , ” প্রবল বন্যায় কুকুর বিড়াল সাপেরা যেমন কিছুকে আঁকড়ে ধরে বাঁচতে যায় তেমনই বিরোধীরা মোদী ঝড়ের মুখে পড়ে একে অপরকে আঁকড়ে ধরে বাঁচতে চাইছে।”  পরবর্তীতে কর্ণাটক বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফল এবং সরকার গঠনে ব্যর্থতা গেরুয়া শিবিরকে বেশ খানিকটা বিপর্যস্ত করে তোলে। কর্ণাটকে নব নির্বাচিত মুখ্যমন্ত্রীর শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান মঞ্চে প্রায় সব রাজ্যের বিজেপি বিরোধী আঞ্চলিক দলগুলির সমাবেশ আগামী বছরে লোকসভা নির্বাচনে অবিজেপি জোট এবং তার সাফল্যের সম্ভবনা যে বেশ খানিকটা উস্কে দিয়েছে সে বিষয়ে কোনো দ্বিমত নেই। যা স্বভাবতই বিজেপি শিবিরকে চাপের মুখে ফেলেছে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

কেন্দ্রে বিজেপি সরকারের চার বছর বর্ষ পূর্তি উপলক্ষ্যে আয়োজিত এক সাংবাদিক সম্মেলনে অমিত শাহ প্রকাশ্যে বললেন,  উত্তরপ্রদেশে ২০১৯ এর লোকসভা নির্বাচনে বহুজন সমাজ পার্টি ও সমাজবাদী পার্টির জোট একটা ফ্যাক্টর হয়ে উঠবে। এদিন তিনি উত্তরপ্রদেশ প্রসঙ্গে আরো বললেন, ”বিএসপি ও সপা যদি জোট বেধে লড়াই করে তাহলে অবশ্যই সেটা আমাদের কাছে একটা বড় চ্যালেঞ্জ। কিন্তু একটা ব্যাপারে নিশ্চিত আমেথি অথবা রায়বেরিলির মধ্যে যে কোনও একটি আসন আমরা পাচ্ছি।” উল্লেখ্য গত লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি দল যখন গোটা উত্তর প্রদেশ রাজ্যে বিজয় পতাকা উড়িয়েছে সেই সময়ে তাদের অধরা থেকে গেছে কংগ্রেস দলের সাবেক আসন আমেথি এবং রায়বেরিলি। বর্তমানে আমেথির সাংসদ রাহুল গান্ধী এবং রায়বেরিলির সাংসদ সোনিয়া গান্ধী। এছাড়াও সম্প্রতি উত্তরপ্রদেশে দুটি লোকসভা কেন্দ্র ফুলপুর ও গোরক্ষপুরের উপনির্বাচনে সপা- বসপা জোটের কাছে পরাস্ত হয় বিজেপি। যা ঐ রাজ্যে প্রবল বিজেপি পরাক্রমের মাঝে এক প্রবল ধাক্কা বলে রাজনৈতিক মহল দাবি করছে। কয়েকদিনের ব্যবধানে বেশ কয়েক নির্বাচনে বিজেপির পরাজয়ের পরেও আগামীতে সাফল্যের আশা রেখে অমিত শাহ এদিন বললেন, ”  আগামী লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির ফল আরও ভালো হবে। তিনি জানান, ২০১৪ সালে বিরোধীরা বিজেপিকে আটকাতে পারেনি। তারা যদি জোটও বাধে তাহলেও বিজেপিকে হারাতে পারবে না। পশ্চিমবঙ্গ, ওডিশা, অন্ধ্রপ্রদেশ, তেলেঙ্গানা, তামিলনাড়ু ও কেরলে বিজেপি এবার আসন পাবে। ” মহারাষ্ট্র রাজ্যে বিজেপির জয়ের সম্ভবনা প্রসঙ্গে তিনি বললেন, “২০১৯ এ বিজেপি শিবসেনার সঙ্গেই লড়াই করতে চায়। কিন্তু শিবসেনা এনডিএর সঙ্গে থাকবে কীনা সেটা তাদের ব্যাপার। তারা যদি এনডিএ ছেড়ে বেরিয়ে যেতে চায় সেটা তাদের সিদ্ধান্ত। আমরা সব ধরনের পরিস্থিতির মোকাবিলায় প্রস্তুত।”

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!