এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > পুরুলিয়া-ঝাড়গ্রাম-বাঁকুড়া > লাল-গেরুয়া ঝড়ে লন্ডভন্ড হয়ে ঘাসফুল শিবির নেমে এল শূন্যতে! জেনে নিন বিস্তারিত

লাল-গেরুয়া ঝড়ে লন্ডভন্ড হয়ে ঘাসফুল শিবির নেমে এল শূন্যতে! জেনে নিন বিস্তারিত

লোকসভা নির্বাচনের পরেই গেরুয়া শিবির নিজেদের শ্রমিক ইউনিয়নে এক বড়সড় পরিবর্তন করে। বিজেপি ও আরএসএস সমর্থিত ও ভারতীয় মজদুর সঙ্ঘ অনুমোদিত রাজ্যের বিদ্যুৎ সংস্থায় শ্রমিক সংগঠন পশ্চিমবঙ্গ বিদ্যুৎ উন্নয়ন নিগম শ্রমিক সংঘের সাধারণ সম্পাদক করা হয় হুগলির সুশান্ত মজুমদারকে।

দায়িত্ব পেয়েই বিজেপির রাজ্য সহ-সভাপতি রাজকুমারী কেশরীর অত্যন্ত ঘনিষ্ঠ বলে পরিচিত সুশান্তবাবু একের পর এক বিদ্যুৎ কেন্দ্রে রীতিমত গেরুয়া ঝড় তুলে দেন। যে সব বিদ্যুৎ সংস্থায় এতদিন গেরুয়া পতাকা কাঁধে নেওয়ার লোক পাওয়া যেত না, সেখানেই এখন কার্যত তাঁর হাত ধরে রীতিমত চমকে দেওয়া ফল করছে গেরুয়া শিবির।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

কিছুদিন আগেই তাঁর হাত ধরে মুর্শিদাবাদের সাগরদীঘি তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের নির্বাচনে ১৭ টির মধ্যে ১৫ টি আসনই ছিনিয়ে নেয় বিএমএস। সবথেকে বড় কথা, শাসকদলের সংগঠন INTTUC সেখানে নেমে আসে শূন্যতে। আর মুর্শিদাবাদের পর এবার আবার সুশান্তবাবুর হাত ধরে গেরুয়া ম্যাজিক সাঁওতালডিহি তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে।

সেখানে হয়ে যাওয়া সাম্প্রতিক নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গ বিদ্যুৎ উন্নয়ন নিগম শ্রমিক সংঘ ছিনিয়ে নেয় ৬ টি আসন। তবে, সেখানে লাল ঝড়ও এবার স্বমহিমায় – সিপিএম সমর্থিত সিটু ছিনিয়ে নিয়েছে ১১ টি আসন। তবে সব থেকে বড় কথা লাল-গেরুয়া ঝড়ের মাঝে পরে হাঁসফাঁস করছে ঘাসফুল শিবির – সাগরদীঘির পর সাঁওতালডিহিতেও শাসকদলের প্রাপ্তির ভাঁড়ার শূন্য!

Top
error: Content is protected !!