এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > ভাটপাড়া দিয়ে রাজনৈতিক চাপানউতোর অব্যাহত, দখল কি তৃণমূলের হাতে? নাকি এখনো বেতাজ বাদশা অর্জুন?

ভাটপাড়া দিয়ে রাজনৈতিক চাপানউতোর অব্যাহত, দখল কি তৃণমূলের হাতে? নাকি এখনো বেতাজ বাদশা অর্জুন?

সদ্য ভাটপাড়ার তৃণমূল বিধায়ক অর্জুন সিং তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান করেছেন। আর হেভিওয়েট বিধায়কের বিজেপিতে যোগদানে ভাটপাড়া পৌরসভায় অর্জুনের দখলে থাকা একাধিক কাউন্সিলররা বিজেপিতে যোগদান করবে বলে নানা মহলে তীব্র জল্পনা ছড়িয়ে পড়েছে। আর এতেই কিছুটা ভীত হতে দেখা গেছে রাজ্যের শাসকদলের নেতা মন্ত্রীদের। তবে সত্যিই কি ভাটপাড়াতে ব্যক্তি অর্জুনের ফ্যাক্টর কাজ করবে! নাকি তৃণমূলের টিকিটে জেতা কাউন্সিলররা তৃণমূলের দিকেই থাকবেন?

তা নিয়ে নিয়ে যখন বিভিন্ন মহলে জোর গুঞ্জন শুরু হয়েছে, ঠিক তখনই রবিবার শাসক-বিরোধী তরজায় উত্তপ্ত হয়ে উঠলো সেই ভাটপাড়া। সূত্রের খবর, রবিবার ভাটপাড়া কাছারি রোডে তৃণমূলের পক্ষ থেকে একটি কর্মীসভার আয়োজন করা হয়। যেখানে কাউন্সিলররা তৃণমূলের দিকেই আছেন বলে প্রমাণে মরিয়া চেষ্টা চালান তৃনমূলের হেভিওয়েট নেতা নেত্রীরা।

এদিনের এই সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন উত্তর 24 পরগনা জেলা তৃণমূল সভাপতি জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক, নির্মল ঘোষ, মন্ত্রী তাপস রায়, বিধায়ক পার্থ ভৌমিক, ব্যারাকপুরের তৃণমূল প্রার্থী দীনেশ ত্রিবেদী সহ অন্যান্যরা। দেখা যায়, ভাটপাড়া পৌরসভার তৃণমূলের টিকিটে জেতা 19 জন কাউন্সিলরকে এখানে গুনে গুনে নিজেদের মঞ্চে হাজির করান তৃনমূলের নেতারা।

আর সেখানেই বক্তব্য রাখতে উঠে উত্তর 24 পরগনা জেলা তৃণমূলের সভাপতি জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক বলেন, “দিনের পর দিন ভাটপাড়া পৌরসভা লুট করে মানুষকে ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে বাধা দান করেছেন অর্জুন সিং। তার বিরুদ্ধে তদন্ত কমিশন বসানো হবে। লোকসভা নির্বাচনের পর এই ভাটপাড়ায় তৃণমূলই বোর্ড গঠন করবে।”

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

তবে জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক সদ্য তৃনমূল ত্যাগী তথা বর্তমান বিজেপি নেতা অর্জুন সিংয়ের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ করলেও এতদিন সেই অর্জুন সিং যখন তারই দল তৃণমূল কংগ্রেসে ছিল তখন তার বিরুদ্ধে সেই জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক সহ অন্যান্য তৃণমূল নেতারা কোনো ব্যবস্থা নেননি কেন? তাহলে বিজেপিতে আসতে না আসতেই কি সেই অর্জুন সিং দোষী হয়ে গেল?

একাংশের মতে, তৃণমূলে থাকলেই সে ধোয়া তুলসী পাতা। আর নীতির প্রশ্নে যখন কেউ অন্য দলে যাবে, তখনই তার বিরুদ্ধে মামলা করে বা অন্যান্য ভাবে সেই নেতাকে ফাঁসিয়ে দেবে শাসক দল। এদিকে এদিন 2 ঘন্টা নাগাদ সভা করে তৃণমূলের দখলেই ভাটপাড়া রয়েছে বলে রাজ্যের হেভিওয়েট তৃণমূলের নেতা মন্ত্রীরা প্রমাণ করার চেষ্টা করলেও ছটা নাগাদ সেই মিটিং শেষ হওয়ার সাথে সাথেই গোটা রাস্তার দখল নিতে দেখা যায় বিজেপি নেতা অর্জুন সিংহের অনুগামীদের। আর সেখানেই কিছুক্ষণের মধ্যে উপস্থিত হন অর্জুন সিং।

আর এরপরই একটি বেসরকারি সংবাদমাধ্যমের সাক্ষাৎকারে এই বিজেপি নেতা বলেন, “এখন তৃণমূল আর কোনো বিষয় নয়। এখন শুধুই বিজেপি বিজেপি আর বিজেপি।” সব মিলিয়ে এবার ভাটপাড়া তাদের দখলেই আছে বলে সভা করে প্রকাশ্যে প্রমাণ করার চেষ্টা করলেও তৃণমূলের সেই চেষ্টাকে ব্যর্থ করে দিয়ে তৃণমূলের মিটিং শেষ হওয়ার সাথে সাথেই সেই ভাটপাড়ার গোটা রাস্তা দখল নিতে দেখা গেল বিজেপির অর্জুন সিংয়ের অনুগামীদের। আর যাকে ঘিরে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের আগে সরগরম ভাটপাড়ার রাজনীতি।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!