এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মিটতে চলেছে ভাঙরের পাওয়ার গ্রিড সমস্যা? প্রশাসন-জমি কমিটির বৈঠকে আসার আলো

মিটতে চলেছে ভাঙরের পাওয়ার গ্রিড সমস্যা? প্রশাসন-জমি কমিটির বৈঠকে আসার আলো

অনিশ্চয়তার কালো মেঘ কাটিয়ে ভাঙড়ে বিতর্কিত পাওয়ার গ্রিড নিয়ে শুরু হওয়া অচলাবস্থা স্বাভাবিক হতে চলেছে । সোমবার প্রশাসনিক বৈঠকের পরে জমি কমিটির নেতৃত্ব জানিয়ে দিয়েছে, পাওয়ার গ্রিড হলে তাদের কোনও আপত্তি নেই। জমি কমিটির নেতৃত্ব মোটামুটি সম্মানজনক পথ হিসেবে বিশেষজ্ঞ কমিটি দিয়ে গ্রামের মানুষকে সচেতন করার আর্জি জানিয়েছে। অন্যসিকে প্রশাসনও ভাঙড়ের মানুষের দাবি মেনে নিয়ে কয়েকটি পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। পূর্ব পরিকল্পনা অনুসারে জমি থেকে ৯-১০ মিটার উপর দিয়ে পাওয়ার গ্রিড থেকে বিদ্যুতের তার নিয়ে যাওয়ার কথা ছিলো । কিন্তু এদিন আলিপুরে জেলাশাসকের কার্যালয়ে উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকে প্রশাসনিক কর্তারা জমি কমিটির সদস্যদের উদ্দেশ্যে জানিয়ে দেন যে, মাটি থেকে ১২-১৪ মিটার উঁচু দিয়ে তার নিয়ে যাওয়া হবে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

 এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

মূলতঃ গ্রামবাসীদের সমস্যার কথা চিন্তা করেই এই সিদ্ধান্ত বলে জানা গিয়েছে । এদিনের বৈঠকে প্রশাসনের তরফে উপস্থিত ছিলেন জেলাশাসক ওয়াই রত্নেশ্বর রাও, এডিএম (এলএ) মৃণাল রাণো, রাজ্যের পাওয়ার গ্রিড ডেভেলপমেন্ট কর্পোরেশনের এমডি শান্তনু বসু প্রমুখ ব্যক্তিবর্গ। অন্যদিকে জমি কমিটির তরফ থেকে ছিলেন মির্জা হাসান, এবং শর্মিষ্ঠা চক্রবর্তী। এই বৈঠকে প্রশাসনের তরফে জমি কমিটিকে জানানো হয়, গ্রামের মানুষ কোনওরকম বিপত্তিতে যাতে না পড়েন সেই কথা চিন্তা করে তারা পাওয়ার গ্রিড নিয়ে বিকল্প রূপরেখা তৈরী করেছে। জমি কমিটির সদস্যদের এদিন প্রশাসনিক কর্তারা একাধিকবার বিদ্যুৎ পরিষেবাকে উন্নত করতে কেন পাওয়ার গ্রিড প্রয়োজন সেই বিষয়ে অবগত করার চেষ্টা করেন। তবে এই কথা শুনে কমিটির সদস্যেরা জানায় যে তাঁরা এই প্রকল্পের ব্যক্তিগতভাবে বিরোধী নয় । তবে এই প্রকল্প তৈরী করতে গেলে বিশেষজ্ঞ কমিটি নিয়োগ করে তাঁদের মাধ্যমে গ্রামবাসীদের মধ্যে সচেতনতা তৈরী করতে হবে যে এই গ্রিড তৈরী হলে গ্রামবাসীদের কোনো প্রকার সমস্যা হবেনা। যদি তাঁরা এই কাজ করতে সক্ষঅম হন তাহলে সেক্ষেত্রেই একমাত্র প্রকল্প কাজ শুরু হতে পারে। বৈঠকের শেষে জেলাশাসক ওয়াই রত্নেশ্বর রাও জানালেন পাওয়ার গ্রিড নিয়ে একটা সদর্থক আলোচনা হয়েছে। বেশ কয়েকটি প্রস্তাব এসেছে জমি কমিটির তরফে  তা আলোচনা করে দেখা হচ্ছে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!