এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > বাংলার “উন্নয়ন” এখন “বিশ্ববন্দিত”, তাই “দিল্লি দখলের” লড়াইয়ে “উন্নয়ন” মডেলই স্থান পাবে তৃণমূলের ইশতেহারে

বাংলার “উন্নয়ন” এখন “বিশ্ববন্দিত”, তাই “দিল্লি দখলের” লড়াইয়ে “উন্নয়ন” মডেলই স্থান পাবে তৃণমূলের ইশতেহারে

Priyo Bandhu Media


আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে কেন্দ্র থেকে বিজেপিকে সরাতে প্রথম থেকেই বিরোধী মহাজোট গড়ার পক্ষে সওয়াল করে এসেছিলেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর সেইমতো তৃণমূলের দখলে থাকা বাংলার 42 টি লোকসভা আসনের মধ্যে 42 টি আসনই দখল করবার জন্য দলীয় নেতৃত্বদের কড়া নির্দেশিকাও বেঁধে দিয়েছিলেন তিনি। ইতিমধ্যেই দলের প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করে দিয়েছেন তৃণমূল নেত্রী।

প্রচারেও নেমে পড়েছেন তৃনমূল প্রার্থীরা। আর এবারে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে দলীয় ইশতেহার প্রকাশ করতে চলেছে তৃণমূল কংগ্রেস। বস্তুত, যে কোনো রাজনৈতিক দলই নির্বাচনের আগে তাদের ইস্তেহারে ক্ষমতায় আসার পরে তারা ঠিক কি কি দায়িত্ব পালন করবে তার একটি প্রতিশ্রুতি সম্বলিত পুস্তিকা প্রকাশ করে। আর যেখানে থাকে নানা চমক। আর এবার আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের আগে তৃণমূলের এই ইশতেহারে ঠিক কি কি চমক থাকে এখন সেদিকেই নজর গোটা রাজনৈতিক মহলের।


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

সূত্রের খবর, বিগত সাত থেকে আট বছরে বাংলার উন্নয়নে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বাধীন তৃণমূল সরকারের উদ্যোগে যে সমস্ত প্রকল্প বিশ্ববন্দিত হয়েছে, সেই সমস্ত প্রকল্পের কথা তুলে ধরে বাংলার প্রভূত উন্নয়ন যেভাবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত ধরে এগিয়েছে সেই কথা নিজেদের ইশতেহারে তুলে ধরতে চায় তৃণমূল। যার মধ্যে কন্যাশ্রী, সবুজ সাথী, খাদ্যসাথী, কৃষক বন্ধুর মতো প্রকল্পগুলো সর্বাগ্রে থাকবে বলেই জানা গেছে।

পাশাপাশি গ্রামীন বিকাশ, কৃষি, স্বাস্থ্য, নারী কল্যাণ ও যুব কল্যাণেও রাজ্যের বর্তমান সরকার কি কি উদ্যোগ নিয়েছে সেই কথা তুলে ধরা হবে তৃণমূলের এই ইশতেহারে বলে খবর। তবে শুধু রাজ্যের উন্নয়নের কথাই তুলে ধরা নয়, নিজেদের ইস্তেহারে কেন্দ্রের মোদি সরকারের বিরুদ্ধেও বিভিন্ন আক্রমণাত্মক ইস্যু তুলে ধরতে পারে ঘাসফুল শিবির। তাই একটাতে রাজনৈতিক এবং আরেকটাতে উন্নয়নমূলক কর্মসূচির কথাই তৃণমূলের ইশতেহারে থাকবে বলেই মনে করছে বিশেষজ্ঞ মহলের একাংশ। কিন্তু কবে প্রকাশ হবে তৃণমূলের এই ইশতেহার?

সূত্রের খবর, সব ঠিকঠাক থাকলে আগামী সপ্তাহেই বাংলার পাশাপাশি হিন্দি, ইংরেজি সহ একাধিক ভাষায় প্রকাশিত হবে রাজ্যের শাসক দলের ইশতেহার পত্রিকা। সব মিলিয়ে এখন নিজেদের ইস্তেহারে তৃণমূল ঠিক কী চমক রাখে সেদিকেই তাকিয়ে সকলে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!