এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > অনুপ্রবেশকারীরা কি জাল নথি নিয়ে ভোটার তালিকায় নাম তুলছে? কমিশনের চিঠি ঘিরে জল্পনা

অনুপ্রবেশকারীরা কি জাল নথি নিয়ে ভোটার তালিকায় নাম তুলছে? কমিশনের চিঠি ঘিরে জল্পনা

বাংলা অবৈধ অনুপ্রবেশকারীদের স্বর্গরাজ্যে পরিণত হয়েছে বলে দীর্ঘদিন ধরেই রাজ্যের প্রশাসন এবং সরকারকে তুলোধোনা করে আসছে বিরোধী দলগুলো। এবার সেই অনুপ্রবেশকারীদের বাড়বাড়ন্তের প্রভাব যাতে ভোটার তালিকায় না পড়ে সেই কারণে রাজ্যের সমস্ত জেলার জেলাশাসককে চিঠি পাঠিয়ে কার্যত সতর্ক করল রাজ্য নির্বাচন কমিশন।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত 1 সেপ্টেম্বর থেকে সারাদেশ জুড়ে ভোটার তালিকা সংশোধন, সংযোজন ও বিয়োজনের কাজ চলছে। আর এই ভোটার তালিকায় যাতে 18 বছরের উর্ধ্বে একজন নাগরিকের নামও বাদ না পড়ে সেই ব্যাপারে প্রশাসনকে ইতিমধ্যেই নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

আর এবার সেই ভোটার তালিকায় সকলের নাম তোলার পাশাপাশি যাতে সেই তালিকায় কোনরূপ অবৈধ অনুপ্রবেশকারীদের নাম না ওঠে সেই জন্য জেলা শাসকদের সতর্ক করে দিল কমিশন।

সূত্রের খবর, গত 31 অক্টোবর এই ব্যাপারে রাজ্যের প্রতি জেলার জেলাশাসককে কড়া নজরদারি চালানোর নির্দেশ দিয়েছেন রাজ্যের অতিরিক্ত মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক সঞ্জয় বসু। জানা গেছে, স্কুটিনিতে কোনরূপ ত্রুটি-বিচ্যুতি ধরা পড়লে তা সরাসরি কমিশনকে জানানোর ব্যাপারে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এদিকে কমিশনের তরফে এহেন নির্দেশ পেয়ে তৎপর হয়ে উঠেছে বর্ধমান জেলা প্রশাসন। একদিকে বর্ধমান শহরের মহাজনটুলি যৌনকর্মীদের ভোটার তালিকায় নাম তুলতে যেমন বিশেষ ক্যাম্পেইন করছে প্রশাসন, ঠিক তেমনি অবৈধ বসবাসকারী ব্যক্তিদের ভোটার তালিকায় নাম তোলানোর ক্ষেত্রে সর্তকতা অবলম্বন করেছে তারা।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

 

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

এদিন এই প্রসঙ্গে জেলার অতিরিক্ত জেলাশাসক অরিন্দম নিয়োগী বলেন, “অবৈধ নাগরিকেরা যাতে ভোটার তালিকায় নাম তুলতে না পারেন সেজন্য ইলেক্টোরাল রেজিস্ট্রেশন অফিসাররাই দায়বদ্ধ থাকবেন। ইতিমধ্যেই প্রত্যেককে এই ব্যাপারে সতর্ক করে দেওয়া হয়েছে।” সব মিলিয়ে জাল নথির সাহায্যে অনুপ্রবেশকারীদের ভোটার তালিকায় নাম তোলাকে আটকাতে কড়া পদক্ষেপ নির্বাচন কমিশনের।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!