এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > চিটফান্ড কাণ্ডে সংসদে তৃণমূলকে তুলোধোনা অধীর চৌধুরীর, তীব্র জল্পনা শুরু রাজ্য রাজনীতিতে

চিটফান্ড কাণ্ডে সংসদে তৃণমূলকে তুলোধোনা অধীর চৌধুরীর, তীব্র জল্পনা শুরু রাজ্য রাজনীতিতে

লোকসভা নির্বাচনের আগে জাতীয় রাজনীতিতে বিজেপিকে সরাতে বাংলার শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস তথা তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সাথে যখন একজোট হয়ে দেশে বিজেপি বিরোধী মহাজোট তৈরির কথা ভেবে সকলে মিলে একসাথে এগোতে চাইছেন কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সভাপতি রাহুল গান্ধী, ঠিক তখনই বাংলার শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেসের সাথে কোনো সমঝোতা নয় বলে বারে বারেই হাইকমান্ডের কাছে এই ব্যাপারে আপত্তি জানিয়েছেন প্রদেশ কংগ্রেসের সোমেন মিত্র, অধীর চৌধুরীরা।

জাতীয় রাজনীতিতে যাই হোক না কেন, বাংলায় কোনো মতেই তৃণমূলের সাথে সমঝোতা করা যাবে না বলে বিভিন্ন সময়ে কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সভাপতি রাহুল গান্ধীর সাথে বৈঠকে সেই ব্যাপারটি তুলে ধরেছেন রাজ্যের প্রাক্তন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরীর মতো নেতারা।

আর এবার আজ সংসদের শেষ দিনের অধিবেশনে সেই বাংলার শাসক দল তৃণমূলের বিরুদ্ধে চিটফান্ড কেলেঙ্কারি ইস্যুতে তীব্র ভাষায় সরব হতে দেখা গেল রাজ্যের প্রদেশ কংগ্রেসের প্রাক্তন সভাপতি তথা সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরীকে। জানা যায়, এদিন সংসদে তৃণমূলের বিরুদ্ধে সরব হয়ে রাজ্যের প্রাক্তন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর রঞ্জন চৌধুরী বলেন, “চোর মাচায়ে সোর।” আর অধীর চৌধুরীর এহেন মন্তব্যেই এবার শুরু হয়ে গিয়েছে তীব্র জল্পনা।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

কেননা কংগ্রেস হাইকমান্ডের পক্ষ থেকে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে জাতীয় রাজনীতিতে প্রবল বিজেপি বিরোধী প্রবল মুখ হিসেবে পরিচিত মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত ধরার বার্তা দিলেও সংসদের ভেতরে দাঁড়িয়ে সকলের সামনে আর্থিক কেলেঙ্কারি ইস্যুতে সেই বাংলার শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস ও তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সম্পর্কে অধীর চৌধুরীর এহেন মন্তব্য কংগ্রেসকে যে একটু হলেও অস্বস্তিতে ফেলতে চলেছে তা নিঃসন্দেহে বলাই যায়।

সব মিলিয়ে এবার সকল সাংসদের উপস্থিতিতে সংসদের শেষ দিনের অধিবেশনে বাংলার কংগ্রেস সাংসদ অধীর চৌধুরীর গলায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও তৃণমূল বিরোধী আওয়াজ ওঠায় জাতীয় রাজনীতিতে তৃণমূল এবং কংগ্রেসের সম্পর্ক আদৌ ঠিক থাকে কিনা এখন সেদিকেই তাকিয়ে সকলে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!