এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মূর্তিকান্ড নিয়ে ত্রিপুরার রাজ্যপাল তথাগত রায়ের ভূমিকায় আবারো তীব্র বিতর্ক

মূর্তিকান্ড নিয়ে ত্রিপুরার রাজ্যপাল তথাগত রায়ের ভূমিকায় আবারো তীব্র বিতর্ক

ত্রিপুরায় লেনিনের মূর্তি ভাঙার ঘটনায় সেখানকার রাজ্যপালের টুইটকে কেন্দ্র করে বিতর্ক দেখা দেয়। যার জেরে, রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের কাছে ত্রিপুরার রাজ্যপাল তথাগত রায়ের বিরুদ্ধে সাংবিধানিক ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য আর্জিও জানিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের বিদ্বজ্জনদের একটি অংশ। এ দিকে আবার, ত্রিপুরায় এই ঘটনার জেরে কলকাতায় শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মূর্তি ভেঙে কালি মাখিয়ে দেওয়ার অভিযোগও উঠেছে।আর কলকাতায় এমন বিষয়ে হওয়া সভায় আসার কথা থাকলেও, শেষ পর্যন্ত এলেন না ত্রিপুরার রাজ্যপাল তথাগত রায়।যা ঘিরে শুরু ফের বিতর্ক।

আর এইজন্যই ভারতের স্বাধীনতা আর, দেশভাগের ক্ষেত্রে অবদানকারী শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মূর্তিকে কালিমালিপ্ত করার বিরুদ্ধে শনিবার কলকাতায় আইসিসিআরে এক সভার আয়োজন করেছিল ইন্ডিয়ান পলিটিক্যালি অ্যান্ড ইকনমিক্যাল রিসার্চ ইনস্টিটিউট। এই সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে থাকার কথা ছিল ত্রিপুরার রাজ্যপাল তথাগত রায়, পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠি, এবং, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মনোজ সিনহা। কিন্তু, এই তিনজনের কেউই এ দিন শেষ পর্যন্ত এলেন না সভায়। কিন্তু কেন তারা এলেন না এই বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে ত্রিপুরার রাজ্যপালের বিষয়ে আয়োজক ওই সংস্থার ডিরেক্টর অসীম সরকার বলেন, ”সোমবার শপথ গ্রহণের অনুষ্ঠান রয়েছে। সেই কাজে তিনি খুবই ব্যস্ত। তাই ইচ্ছা থাকলেও তিনি আমাদের এই অনুষ্ঠানে থাকতে পারেন নি। আর, পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল, ”কেশরীনাথ ত্রিপাঠি আজই দিল্লি থেকে ফিরেছেন। সর্দি-গর্মিতে উনি একটু অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। তাই তিনি আসতে পারেননি।”
এভায় আয়োজকদের তরফ থেকে এ দিন জানানো হল, শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মূর্তিকে কালিমালিপ্ত করার বিরুদ্ধে তাঁরা গর্জে উঠবেন। এবং এই বিষয়ে তারা শপথ গ্রহণ করেন।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!