এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > পঞ্চায়েতে কোনো ‘অশান্তি’ হয় নি, সবই বিরোধীদের ‘অপপ্রচার’, জানালেন মুখ্যমন্ত্রী

পঞ্চায়েতে কোনো ‘অশান্তি’ হয় নি, সবই বিরোধীদের ‘অপপ্রচার’, জানালেন মুখ্যমন্ত্রী

রাজ্যের পঞ্চায়েত নির্বাচনে দিন ঠিক হওয়ার পর থেকেই রাজ্যজুড়ে দেখা দিয়েছে অশান্তি। মনোনয়ন পর্বকে কেন্দ্র করেই হিংসার রাজনীতি চলছে আর সেই নিয়ে সমস্ত অভিযোগের আঙুল উঠেছিলো শাসকদলের দিকে।তাই নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এতোদিনে নিজের বক্তব্য জানালেন। এদিন তিনি তীব্র আক্রমণ শানালেন বিজেপি, কংগ্রেস, সিপিএম-সহ বিরোধীদের দিকে। এদিন তিনি বলেন, এতদিন খুব বিরোধিতা দেখানো হচ্ছিল, এখন তিনভাই একসঙ্গে ঘর করছে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

মুখ্যমন্ত্রী আরো জানান, পঞ্চায়েত ভোট আসতেই তিন বিরোধী দল একসঙ্গে জোট বেঁধেছে জগাই-মাধাই আর বিলাই। তিনজনে মিলে তৃণমূলের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে। নকল বিরোধিতার মুখোশ খুলে গিয়েছে। তাঁর কথায়, মিথ্যা রটনা করা হচ্ছে, শাসকদল যদি বাধা দিত, এত মনোনয়ন বিরোধীরা দিতে পারতেন না।তাঁর থেকে জানা যায়,রাজ্যে মোট ৫৮ হাজার আসনে বিরোধীদের ৭৪ হাজার মনোনয়ন জমা পড়েছে আর নির্দলদের মিলিয়ে সংখ্যাটা হবে ৯০ হাজার।তবুও বিরোধীরা কুত্‍সা ছড়াচ্ছে,অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছে। শুধু তাই নয় বিরোধীরা আবার একজোট হয়ে শাসকদলের বিরুদ্ধাচরণও করছে।
সেইজন্যে বিরোধী শিবিরকে সাবধান হতে বলে তিনি জানান যে, সেদিন ভুলে যায়নি বাংলার মানুষ, যেদিন বিরোধীল দল করার জন্য কই মাছ খাইয়ে দেওয়া হয়েছিল, হাত কেটে নেওয়া হয়েছিল, জিভ কেটে নেওয়া হয়েছিল। এমন কোনও হিংসার ঘটনা ঘটেনি। যা ঘটেছে,তাকে অনেক বড় করে দেখানো হচ্ছে।মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আরো জানান যে তাদের দল থেকে বেশ কিছু বেশি প্রার্থীর মনোনয়ন জমা পড়েছে। তবে সেগুলি সব ঠিক হয়ে যাবে। আসনে সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে ৫৮ হাজারেই প্রার্থী দাঁড়াবে। ধীরে ধীরে বাছাই করা হচ্ছে সকলকে।বড় সংসারে গ্রামের নির্বাচনে এই সমস্যা থাকে। মানুষ বুঝবেন। সব ঠিক হয়ে যাবে।এভাবে তিনি পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে হওয়া অশান্তি নিয়ে বিরোধীদের ‘অপপ্রচার’ এর বিরুদ্ধে মুখ খুললেন।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!