এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > রাজ্যপালের সঙ্গে মুকুল রায়ের বৈঠক, বেরিয়ে এসেই মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ

রাজ্যপালের সঙ্গে মুকুল রায়ের বৈঠক, বেরিয়ে এসেই মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ

শনিবার রাজভবনে রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠীর সাথে বৈঠক করলেন বিজেপি নেতা মুকুল রায় সহ রাজ্য বিজেপির এক প্রতিনিধি দল। বৈঠক শেষ হওয়ার পরেই মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কে বাক্যবাণে বিদ্ধ করে বললেন ,”মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বেই বিডিও অফিসে হামলা চালাচ্ছে তৃণমূল কংগ্রেসের ‘গুন্ডারা’! ” উল্লেখ্য রাজ্যে পঞ্চায়েত নির্বাচনের বিজ্ঞপ্তি ও সময় সূচী প্রকাশের পরবর্তীতে নানা জায়গায় বিচ্ছিন্ন ভাবে হিংসা ও হানাহানির ঘটনা ঘটে চলেছে। বিজেপির অভিযোগ রাজ্যের উত্তর থেকে দক্ষিণের বিভিন্ন প্রান্তে হামলা চালানো হচ্ছে দলের মনোনীত প্রার্থীদের উপর। এই সব ঘটনার অভিযোগ বিডিও অফিসে জানাতে গেলেও তৃণমূল কংগ্রেসের ‘গুন্ডা’দের কাছে বিজেপির নেতা-কর্মীদের আক্রান্ত হতে হচ্ছে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

আর এইসব খুটিনাটি বিষয় সম্পর্কে অবহিত করতেই এদিন রাজভবনে গিয়েছিলেন মুকুল বাবুর নেতৃত্বে বিজেপির এক প্রতিনিধিদল। মুকুল বাবু এদিন সংবাদমাধ্যমকে বললেন, “রাজ্যে একের পর এক অনভিপ্রেত ঘটনা চলছে। এর নেতৃত্বে রয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিজে। উনি তৃণমূলের গুন্ডাদের প্রত্যেকটা বিডিও অফিসে রেখে দিয়েছেন। আমাদের কর্মীদের মারধরের করতে উনি নির্দেশ দিয়েছেন।” পাশাপাশি মুকুল বাবু একথাও বললেন যে, “এটা ১৯৭০-‘৭১ এর সময় ফিরে এসেছে। তখন ঠিক এমন ভাবেই তত্‍কালীন মুখ্যমন্ত্রী সিদ্ধার্থশঙ্কর রায় বিরোধীদের মারধর, অত্যাচার চালাতেন। সেই যুগের পুনরাবৃত্তি হচ্ছে। ‘৭১-এর কালো সময় আবারও ফিরে আসছে রাজ্যে।বাংলায় গণতন্ত্রকে খুন করা হচ্ছে। আমাদের সাধারণ সম্পাদক রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়কে খুন করার ষড়যন্ত্র হয়েছে। বাঁকুড়ায় একজন কর্মীও মারা গিয়েছেন তৃণমূলের গুন্ডাদের হাতে। আজকেও বীরভূমে গুলি চলেছে।রাজ্য জুড়ে ৬২টি এসডিও ও ৩২০টি বিডিও অফিসে আমাদের কর্মীদের উপর হামলা হয়েছে। এমন অরাজকতার নেতৃত্বে আছেন মুখ্যমন্ত্রী নিজে।” এরপরে তিনি রাজ্যপালের ওপর আস্থা জানিয়ে বললেন, ”আজ এই বিষয়েই ওনার কাছে আমরা বিচার চাইতে এসেছিলাম। উনি রাজ্যের প্রধান। আশা করি উনি ব্যবস্থা নেবেন।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!