এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > পঞ্চায়েত নিয়ে ধাক্কা হাইকোর্টে, কল্যাণ-এর ভূমিকায় দ্বি-বিভক্ত দল

পঞ্চায়েত নিয়ে ধাক্কা হাইকোর্টে, কল্যাণ-এর ভূমিকায় দ্বি-বিভক্ত দল

পঞ্চায়েত নিয়ে ধাক্কা হাইকোর্টে, কল্যাণ-এর ভূমিকায় দ্বিবিভক্ত দল। কলকাতা হাইকোর্টে পঞ্চায়েত নির্বাচন নিয়ে মামলায় বিজেপি-কে মিথ্যে তথ্য দেওয়ার দায়ে পাঁচ লাখ টাকা জরিমানা করে আদালত। ফলে শাসকদলের আইনজীবী কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়- এর উপর দলের গর্ব বেড়ে গিয়েছিলো।এর পর কল্যানবাবুর উপর দলের আটটায় বিশ্বাস আসে যে কল্যাণবাবুর উপদেশ মতোই নাকি ডিভিশন বেঞ্চে এই মামলা নিয়ে যাওয়া হয় দলের অনেকের আপত্তিই স্বত্তেও।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

কিন্তু তার পরেই একের পর এক ধাক্কা খাচ্ছে শাসকদল। যেমন সিঙ্গল বেঞ্চ পঞ্চায়েত নির্বাচন প্রক্রিয়ায় স্থগিতাদেশ দেয়, তারপর ডিভিশন বেঞ্চ পঞ্চায়েত মামলা ফিরিয়ে দেয় সিঙ্গল বেঞ্চেই।ফের সিঙ্গল বেঞ্চ জানিয়ে দেয় মামলায় সমস্ত পক্ষের কথা শোনা হবে। বলা যায় কার্যত ব্যাকফুটে যাচ্ছে শাসকদল। আর তার ফলে ক্ষোভ বাড়ছে দলে।দলের একাংশ মনে করছেন যে এমনিতেই তারা জিততো। কেন যে অতিরিক্ত আত্মবিশ্বাস দেখাতে গেলেন কল্যানবাবু তা নিয়েও প্রশ্ন তুলছেন তারা। পাশাপাশি তারাও দ্বন্দে নেত্রীর অবস্থান নিয়ে। তিনি কি ভাবছেন ,নেত্রীও কি ক্ষুব্ধ ?কল্যানবাবু কি প্রথম থেকেই নেত্রীকে ভুল বোঝাচ্ছেন। এমন প্রশ্ন তুলেছেন তারা। অন্যদিকে আর একাংশ চোখ বন্ধ করে ভরসা করছেন কল্যানবাবুকে। তাদের মতে কল্যানবাবু সিঙ্গুর নিয়ে বড় জয় এনেছিলেন আর এতো সামান্য একটা পঞ্চায়েত নির্বাচনের লড়াই। তাদের বক্তব্য নেত্রী সব দিক বিবেচনা করেই কল্যানবাবুকে দ্বায়িত্ত্ব দিয়েছেন। কাঁচা কাজ তিনি করেন না। জিৎ তাদের হবেই। তবে পঞ্চায়েত ভোটটা কবে হবে তার দিকে তাকিয়ে তারাও।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!